ইন্টারপোলে নিয়োগ পাচ্ছেন পুলিশের দুই কর্মকর্তা

প্রকাশ: ০৬ জানুয়ারি ২০১৮      

সমকাল প্রতিবেদক

জঙ্গিবাদ দমনে দেশে সফলতার পর এবার বাংলাদেশ পুলিশ বিভিন্ন রাষ্ট্রের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে প্রশিক্ষণ দেবে। আন্তর্জাতিক পুলিশ সংস্থা ইন্টারপোলে বিশেষজ্ঞ হিসেবে পুলিশের দুই কর্মকর্তা নিয়োগ পাচ্ছেন। তারা আন্তর্জাতিক ওই সংস্থাটির হয়ে জঙ্গি দমনে বিভিন্ন দেশের পুলিশকে প্রশিক্ষণ ও কৌশল শেখাবেন। 

শনিবার পুলিশ সদর দপ্তরে সংবাদ সম্মেলনে আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক বলেন, সম্প্রতি ইন্টারপোলের এক সভায় বাংলাদেশ পুলিশের জঙ্গিবাদ দমনের প্রক্রিয়া প্রশংসিত হয়েছে। সংস্থাটির সেক্রেটারি তার কাছে জঙ্গিবাদ দমনে পুলিশের দু’জন কর্মকর্তা চেয়েছেন; যারা অন্যান্য দেশে জঙ্গিবাদ দমনে প্রশিক্ষণ দেবেন। এরই মধ্যে দু’জনের নাম অনুমোদন করা হয়েছে।

আইজিপি বলেন, গত বছর সারাদেশে ৩৫টি জঙ্গিবিরোধী অভিযান পরিচালিত হয়। এতে ৫৭ জন জঙ্গি নিহত হয়েছে, যাদের প্রায় সবাই আত্মঘাতী। এ ছাড়া শতাধিক জঙ্গি গ্রেফতার হয়েছে। বাংলাদেশে জঙ্গি নেটওয়ার্ক বের করা হয়েছে। জঙ্গি দমনে বাংলাদেশ পুলিশ বিশ্বের এখন রোল মডেল।

পুলিশ সদর দপ্তরের কর্মকর্তারা জানান, এর আগেও ইন্টারপোলে বাংলাদেশ পুলিশের কর্মকর্তারা নানা বিষয়ে খণ্ডকালীন প্রশিক্ষক হিসেবে ছিলেন। তবে জঙ্গিবাদ দমনে বিশেষজ্ঞ হিসেবে ইন্টারপোলে বাংলাদেশ পুলিশের স্থায়ী নিয়োগের বিষয়টি এবারই প্রথম। ইন্টারপোলে যে দু’জন কর্মকর্তার নিয়োগ চূড়ান্ত হয়েছে, নিরাপত্তাজনিত কারণে তাদের নাম প্রকাশ করা হয়নি। 

জঙ্গি দমনে যুক্ত পুলিশের এক কর্মকর্তা সমকালকে বলেন, ২০১৬ সালের ১ জুলাই গুলশানে হলি আর্টিসান বেকারিতে জঙ্গি হামলার পর সারাবিশ্বের বাংলাদেশকে নেতিবাচক হিসেবে দেখার চেষ্টা করত। তবে অল্প সময়ে পুলিশের দক্ষতা ও ঝুঁকিপূর্ণ অভিযান চালিয়ে সফলতার পর সে চিত্র পাল্টে গেছে। এখন বিশ্বের কোনো কনফারেন্সে বাংলাদেশ পুলিশ কর্মকর্তারা উপস্থিত হলে তাদের আলাদা দৃষ্টিতে দেখা হয়। অন্যান্য দেশের পুলিশ সদস্যরা তাদের কাছ থেকে সফলতার গল্প শুনতে চান। পুলিশের দেশপ্রেমের কারণেই এটা সম্ভব হয়েছে।

আরও পড়ুন

আতাউরকে নিয়ে বিব্রত বিএনপি

আতাউরকে নিয়ে বিব্রত বিএনপি

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএন-সিসি) নির্বাচন স্থগিতাদেশ দেওয়ার রিট আবেদনকারী ...

এত অস্ত্র বৈধ নাকি অবৈধ

এত অস্ত্র বৈধ নাকি অবৈধ

পরিস্থিতি উত্তপ্ত হতে না হতেই বৈধ-অবৈধ অস্ত্র দেখা যাচ্ছে নারায়ণগঞ্জের ...

শান্তি চায় নাগরিক সমাজ

শান্তি চায় নাগরিক সমাজ

নারায়ণগঞ্জকে যারা সন্ত্রাসের জনপদ হিসেবে পরিচিত করে তুলেছে, মঙ্গলবারের ঘটনাও ...

এই 'অভিজ্ঞতা' দিয়ে কী করবে চট্টগ্রাম বন্দর

এই 'অভিজ্ঞতা' দিয়ে কী করবে চট্টগ্রাম বন্দর

চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার অ্যাডমিরাল এম খালেদ ইকবালকে বদলি ...

আওয়ামী লীগ-বিএনপি বিভেদে সুযোগ নিতে চায় জাপা

আওয়ামী লীগ-বিএনপি বিভেদে সুযোগ নিতে চায় জাপা

নৌকার আসন হিসেবে পরিচিত হলেও অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারণে পিরোজপুর-৩ (মঠবাড়িয়া) ...

 'মানুষ বিপদে পড়ার ভয়ে প্রতিবাদ করছে না'

'মানুষ বিপদে পড়ার ভয়ে প্রতিবাদ করছে না'

ক্রমশ মানুষ কথা বলা বন্ধ করে দিচ্ছে। প্রতিবাদ করছে না ...

ভাড়া বিমানে খাবার পৌঁছালো রেস্টুরেন্ট

ভাড়া বিমানে খাবার পৌঁছালো রেস্টুরেন্ট

আবাসস্থলের আশেপাশে পছন্দের রেস্টুরেন্টের কোনো শাখা না থাকায়, অথবা ডেলিভারি ...

পদ্মায় আরেকটি স্প্যান বসছে রোববার

পদ্মায় আরেকটি স্প্যান বসছে রোববার

পদ্মা সেতুতে আরেকটি স্প্যান বসানো হবে আগামী রোববার। সেতুর জাজিরা ...