রাজনীতি

ইভিএম-এ ভোট জালিয়াতি ও ভোট চুরির অফুরন্ত সুযোগ থাকবে: রিজভী

প্রকাশ: ২৯ আগস্ট ২০১৮      

 সমকাল প্রতিবেদক

রুহুল কবির রিজভী আহমেদ -ফাইল ছবি

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ বলেছেন, ইভিএম-এ ভোট জালিয়াতি ও ভোট চুরির অফুরন্ত সুযোগ থাকবে বলেই বাংলাদেশের অবৈধ সরকার নির্বাচন কমিশনকে দিয়ে জাতীয় নির্বাচনের প্রাক্কালে ইভিএম ব্যবহারে ব্যতিব্যস্ত হয়ে পড়েছে। ভোটারবিহীন সরকারের দিক থেকে ভোটাররা মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে বলেই এখন ডিজিটাল মেশিন কারচুপির ওপর নির্ভর করছে অবৈধ শাসকগোষ্ঠী।

বুধবার সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, গতকাল নির্বাচন কমিশনের সচিব হেলাল উদ্দিন বলেছেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ১০০টি আসনে ইভিএম (ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন) ব্যবহারের পরিকল্পনা নিয়েছে ইসি। একমাত্র সরকারি দল ছাড়া নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সুধীজন, পেশাজীবী সংগঠনগুলোর অধিকাংশই আগামী জাতীয় নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার না করার জন্য মতামত পেশ করেছিল। ইসিও দীর্ঘদিন ধরে বলে এসেছে সব দল না চাইলে ইভিএম ব্যবহার করা হবে না। কিন্তু বেশিরভাগ রাজনৈতিক দল ও শ্রেণিপেশার মানুষের মতামতকে উপেক্ষা করে তড়িগড়ি করে আরপিও সংশোধনের মাধ্যমে ইভিএম ব্যবহারের উদ্যোগ ও নানা ষড়যন্ত্রের কথা শোনা যাচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আযম খান, উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আব্দুস সালাম, আবুল খায়ের ভূঁইয়া, স্বেচ্ছাসেবকবিষয়ক সম্পাদক মীর শরফত আলী শপু, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, নির্বাহী কমিটির সদস্য শামসুজ্জামান সুরুজ, নিপুন রায় চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এরআগে বুধবার সকালে রাজধানীর শান্তিনগর বাজারসংলগ্ন প্রধান সড়কে বিএনপির চেয়ারপারসন কারাবন্দী খালেদা জিয়ার মুক্তি ও তারেক রহমানকে ‘ষড়যন্ত্রমূলক’ মামলায় সাজা প্রদানের প্রতিবাদে পথসভা ও বিক্ষোভ মিছিল করে দলটি। রুহুল কবির রিজভীর নেতৃত্বে পথসভা ও মিছিলে দলের নির্বাহী কমিটির সদস্য নিপুণ রায় চৌধুরীসহ বিএনপি ও অঙ্গ-সংগঠনের নেতা-কর্মীরা অংশগ্রহণ করেন। পথসভা শেষে মিছিলটি শান্তিনগর কাঁচাবাজার থেকে শুরু হয়ে শান্তিনগর মোড় পার হয়ে শেষ হয়।

পথসভায় রুহুল কবির রিজভী বলেন, দেশকে গোরস্থানের নীরবতায় নামিয়ে আনতেই গণতান্ত্রিকভাবে স্বীকৃত সব অধিকার হরণ করা হয়েছে। বাংলাদেশ এখন চলছে হরণের নীতিমালা দিয়ে। সে জন্য মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার ফিরিয়ে আনার আপসহীন নেত্রীকে অন্যায়ভাবে কারারুদ্ধ করা হয়েছে এবং দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে মিথ্যা মামলায় সাজা দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন

জলবায়ু পরিবর্তনে ঝুঁকির মুখে বাংলাদেশের ১৩ কোটি মানুষ: বিশ্ব ব্যাংক

জলবায়ু পরিবর্তনে ঝুঁকির মুখে বাংলাদেশের ১৩ কোটি মানুষ: বিশ্ব ব্যাংক

জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে তাপমাত্রা বৃদ্ধি ও অতিবর্ষণে বাংলাদেশের ১৩ কোটি ...

কাঠগড়ায় শাকিব খান!

কাঠগড়ায় শাকিব খান!

শাকিব খান কাঠগড়ায়। খুনের দায়ে অভিযুক্ত শাকিবকে কাঠগড়ায় দাঁড় করানো ...

সাঙ্গ হলো বঙ্গমেলা

সাঙ্গ হলো বঙ্গমেলা

বাংলা বইয়ের সমাগম যে মেলায় তাকে বাঙালি, বাংলাদেশ বা বঙ্গের ...

কুষ্টিয়ায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসির আদেশ

কুষ্টিয়ায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসির আদেশ

কুষ্টিয়ায় গৃহবধূ শাহানারা হত্যা মামলায় স্বামী আতিয়ার রহমানকে (৩৫) ফাঁসির ...

মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ'র বিচারক হতে অনীহা দুই ভাইয়ের

মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ'র বিচারক হতে অনীহা দুই ভাইয়ের

'মাইলস ব্যান্ড আমাদের দেশের অন্যতম জনপ্রিয় একটি ব্যান্ড। আর এই ...

অ্যালকোহলের নেশায় বছরে ৩০ লাখ মানুষের মৃত্যু

অ্যালকোহলের নেশায় বছরে ৩০ লাখ মানুষের মৃত্যু

অতিরিক্ত মদ্যপানের কারণে ২০১৬ সালে ৩০ লাখের বেশি মানুষের মৃত্যু ...

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৯

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৯

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদকবিরোধী বিশেষ অভিযানে ৪৯ জনকে গ্রেফতার করেছে ...

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান ...