বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে বৃত্তি

০২ সেপ্টেম্বর ২০১৮

গোলাম কিবরিয়া

দেশের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষার্থীদের জন্য নানা রকম বৃত্তি চালু আছে। বিভিন্ন কোটা ছাড়াও মেধার ভিত্তিতে ভর্তি ও টিউশন ফির ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়। দরিদ্র শিক্ষার্থীদের জন্য আর্থিক সহায়তা দিয়ে থাকে কোনো কোনো বিশ্ববিদ্যালয়। এ প্রতিবেদনে থাকছে স্নাতক পর্যায়ে দেশের কয়েকটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের বৃত্তির খবর।

নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় :ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম এবং দ্বিতীয় স্থান অধিকারীরা শতভাগ বৃত্তি পাবেন। এ ছাড়া সন্তোষজনক ফলাফলের ওপরও বৃত্তি পেতে পারেন। সে ক্ষেত্রে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক দুটো পরীক্ষাতেই আলাদা আলাদাভাবে কমপক্ষে ৪.৮ জিপিএ থাকতে হবে। ভর্তির পরও বৃত্তি অর্জনের সুযোগ থাকছে। সেমিস্টারের ফলাফল ভালো হলে এর ওপর ভিত্তি করে ভিন্ন ভিন্ন হারে বৃত্তি পেতে পারেন।

বিস্তারিত:http://www.northsouth.edu/re sources/fao.html

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় :মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক দুটোতেই চতুর্থ বিষয় ছাড়া জিপিএ ৫ (গোল্ডেন জিপিএ ৫) থাকলে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ে শতভাগ টিউশন ফি মওকুফ করা হয়। সেমিস্টারের ফলাফলের ওপর শতকরা ১০ থেকে শতভাগ পর্যন্তও বৃত্তি দিয়ে থাকে এ বিশ্ববিদ্যালয়। কোনো সেমিস্টারে 'ফোর আউট অব ফোর' সিজিপিএ অর্জন করলে শতভাগ বৃত্তি পাওয়া যাবে। আর সর্বনিম্ন ১০ শতাংশ বৃত্তি পেতে হলে সিজিপিএ হতে হবে কমপক্ষে ৩.৭০।

বিস্তারিত :  goo.gl/SnfmwV

ইনডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ (আইইউবি) :ইনডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটি, বাংলাদেশে টিউশন ফির ওপর শতভাগ বৃত্তি নিয়ে পড়তে পারবেন, যদি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় চতুর্থ বিষয় ছাড়া জিপিএ ৫ থাকে। শুধু জিপিএ নয়, ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল অনুযায়ী সেরা পাঁচজনও পাবেন শতভাগ ছাড়। সেমিস্টার ফলাফলের ওপরও বিভিন্ন হারে বৃত্তি রয়েছে এ বিশ্ববিদ্যালয়ে।

বিস্তারিত :  goo.gl/7qsCHY

ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি :চতুর্থ বিষয় ছাড়া উচ্চ মাধ্যমিকে জিপিএ ৫ থাকলে টিউশন ফিতে ৫০ শতাংশ বৃত্তি পাওয়া যাবে। আর চতুর্থ বিষয়সহ জিপিএ ৫ থাকলে পাওয়া যাবে ২৫ শতাংশ বৃত্তি। ভর্তির পর প্রতি ট্রাইমিস্টারেই প্রতিটি বিভাগের জন্য বৃত্তির সুযোগ আছে। মেধা তালিকায় ওপরের দিকে থাকা শতকরা চার ভাগ শিক্ষার্থী শতভাগ বৃত্তি পাবেন। পরবর্তী ৬ শতাংশ শিক্ষার্থী ৫০ শতাংশ বৃত্তি পাবেন। আর এর পরের ১০ শতাংশ শিক্ষার্থী পাবেন ২৫ শতাংশ বৃত্তি।

বিস্তারিত : goo.gl/K889cp


ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি :ভর্তি পরীক্ষায় সর্বোচ্চ নম্বরপ্রাপ্ত পাঁচজনকে ব্যবসায় ও অর্থনীতি অনুষদ, চারজনকে বিজ্ঞান ও প্রকৌশল অনুষদ এবং একজনকে কলা ও সমাজবিজ্ঞান অনুষদে শতভাগ বৃত্তি দিয়ে থাকে এ বিশ্ববিদ্যালয়। তবে এ ক্ষেত্রে কমপক্ষে শতকরা ৭৫ ভাগ নম্বর পেতে হবে। মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকে চতুর্থ বিষয় ছাড়া আলাদা আলাদাভাবে জিপিএ পাঁচ থাকলে ভর্তির ক্ষেত্রে শতভাগ বৃত্তি পাওয়া যাবে। অবশ্য এ ক্ষেত্রেও ভর্তি পরীক্ষায় ৭৫ ভাগ নম্বর অর্জন করতে হবে। এ ছাড়া ভর্তি পরীক্ষায় সন্তোষজনক ফলাফল এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকে চতুর্থ বিষয় ছাড়া আলাদা আলাদাভাবে জিপিএ ৪.৯০ থাকলেও ভর্তির ক্ষেত্রে ৫০ শতাংশ বৃত্তি পাবেন। সেমিস্টার ফলাফলের ওপরও বৃত্তি পাওয়ার সুযোগ আছে। বিস্তারিত :  goo.gl/ntDuwf

ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটি :আন্তর্জাতিক মানের শিক্ষায় শিক্ষিত জনবল তৈরি ও সঠিক দিকনির্দেশনার মাধ্যমে দক্ষ মানবসম্পদ তৈরির প্রত্যয় নিয়ে ইস্টার্ন ইউনিভার্সিটির অগ্রযাত্রা শুরু হয়েছিল ২০০৩ সালে। মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের উচ্চশিক্ষা লাভের সুযোগ তৈরির জন্য এ বিশ্ববিদ্যালয়ে রয়েছে অনেক ধরনের বৃত্তি সুবিধা। অত্যন্ত মেধাবীদের জন্য সম্পূর্ণ ও আংশিক কোর্স ফি মওকুফের ব্যবস্থা এবং আর্থিকভাবে অসচ্ছল ছাত্রছাত্রীদের জন্য রয়েছে শিক্ষা ঋণের ব্যবস্থা। এ শিক্ষা ঋণ ছাত্রছাত্রীরা পেয়ে থাকে কোনো ধরনের শর্ত ছাড়াই। এ ছাড়া মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক দুটো পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে এবং প্রতি সেমিস্টারের ফলাফল বিবেচনা করে মেধা বৃত্তি প্রদান করা হয়ে থাকে।

বিস্তারিত:http://www.easternuni.edu.bd /Admission_FAidSch.aspx

[বাকি অংশ আগামী সংখ্যায়]

© সমকাল 2005 - 2018

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

১৩৬ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৮৮৭০১৭৯-৮৫, ৮৮৭০১৯৫, ফ্যাক্স : ৮৮৭০১৯১, ৮৮৭৭০১৯৬, বিজ্ঞাপন : ৮৮৭০১৯০ । ইমেইল: info@samakal.com