ভারতে বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী থাকতে দেব না অমিত শাহ

১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮

সমকাল ডেস্ক

আসাম রাজ্যে অবৈধভাবে বসবাসকারীদের নিয়ে ভারতে ক্ষমতাসীন বিজেপির সাধারণ সম্পাদক রাম মাধবের পর এবার হুঁশিয়ারি দিলেন দলটির সভাপতি অমিত শাহ। তিনি বলেছেন, ভারতে অবৈধভাবে অবস্থানকারী সব 'বাংলাদেশি'কে শনাক্ত করবে সরকার। এরপর তাদের একে একে ফেরত পাঠানো হবে। অবৈধভাবে কাউকে ভারতে বসবাস করতে দেওয়া হবে না। মঙ্গলবার জয়পুরে দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে এমন সতর্কবার্তা দেন তিনি। খবর ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের।

অমিত শাহ এদিন বিরোধী দল কংগ্রেসকে আক্রমণ করে বক্তব্য দেন। তিনি এসব অবৈধ মানুষকে কংগ্রেসের ভোট ব্যাংক বলে অভিহিত করে বলেন, কংগ্রেস মানবাধিকারের কথা বলে। দেশের নিরাপত্তা নিয়ে তাদের কি কোনো উদ্বেগ নেই? শত শত সন্ত্রাসী ভারতে অনুপ্রবেশ করছে। তারা বোমা হামলার পরিকল্পনা করছে।

অমিত শাহ বলেন, প্রতিটি নির্বাচনেই বিজয়ী হবে বিজেপি। যদিও বিরোধীরা মোহাম্মদ আখলাক হত্যার মতো ইস্যুকে পুনরুজ্জীবিত করার চেষ্টা করবে। এর আগে গরুর মাংস রাখার অভিযোগে আখলাক হোসেনের বাড়িতে হামলা চালিয়ে তাকে হত্যা করা হয়।

বিজেপি সম্পাদক আরও বলেন, তাদের সরকার এনআরসি ইস্যু থেকে পিছু হটবে না। 'বাংলাদেশি'দের বের করে দেওয়ার পর তাদের প্রত্যেকের নাম তালিকায় রাখা হবে, যাতে তাদের শনাক্ত করা যায়। তিনি বলেন, কংগ্রেস তো এসব 'বাংলাদেশি'কে রক্ষা করার জন্য নতুন উপায় অবলম্বন করেছে। কংগ্রেস বলছে, যদি তাদের ভারত থেকে বের করে দেওয়া হয়, তাহলে সেখানে হিন্দুদের

কী হবে?

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সিটিজেন অ্যামেন্ডমেন্ট বিল ২০১৬ সামনে এনেছেন। এর আওতায় সিদ্ধান্ত হয়- বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে যেসব হিন্দু, শিখ, বৌদ্ধ ও জৈন ভারতে এসেছেন, তারা অনুপ্রবেশকারী নন। তারা আশ্রয়প্রার্থী। তারা আমাদের ভাই। তাদের নাগরিকত্ব দেওয়া হবে।





© সমকাল 2005 - 2018

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

১৩৬ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৮৮৭০১৭৯-৮৫, ৮৮৭০১৯৫, ফ্যাক্স : ৮৮৭০১৯১, ৮৮৭৭০১৯৬, বিজ্ঞাপন : ৮৮৭০১৯০ । ইমেইল: info@samakal.com