নড়িয়ায় পদ্মার ভাঙন

ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে দাঁড়াতে হবে

প্রকাশ: ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

নদীমাতৃক বাংলাদেশে নদী এখন একটি বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। নদনদী হারিয়ে যাচ্ছে এবং নাব্য সংকটে নদনদীর অস্তিত্ব হুমকির সম্মুখীন। অন্যদিকে নদীভাঙনে সর্বহারা হচ্ছে মানুষ। মঙ্গলবার সমকালে একটি সচিত্র প্রতিবেদনে প্রকাশ, পদ্মার অব্যাহত ভাঙনে বিলীন হচ্ছে ভিটেমাটি, ঘরবাড়ি, আবাদি জমি, বাজার, মসজিদ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, হাসপাতালসহ বড় বড় স্থাপনা। গত দুই মাসের অব্যাহত ভাঙনে শরীয়তপুর, শিবচর, রাজবাড়ীর গোয়ালন্দের বিভিন্ন এলাকা অস্তিত্বহীন হয়ে গেছে। নদীভাঙন বাংলাদেশের জন্য নতুন কোনো সমস্যা নয়। এ দেশের নদীপাড়ের মানুষ দীর্ঘকাল ধরেই এই বিপর্যয়ের শিকার। নদীভাঙনে ইতিমধ্যে অনেক সম্পন্ন পরিবারও পথে বসেছে। আমাদের দেশের উদ্বাস্তু-ছিন্নমূল জনগোষ্ঠীর সিংহভাগই নদীভাঙনের শিকার। গ্রামীণ দারিদ্র্যের অন্যতম কারণও এই নদীভাঙন। একটি পরিসংখ্যানে প্রকাশ, প্রতি বছর প্রায় আড়াই লাখ মানুষ নদীভাঙনের শিকার হয়। প্রায় ১০ হাজার হেক্টর আবাদি জমি প্রতি বছর নদীতে বিলীন হয়ে যায়।

অব্যাহত নদীভাঙন ছিন্নমূল মানুষের শহরমুখী জনস্রোত ক্রমবর্ধমান হারে স্ম্ফীত করে চলেছে। শুধু বর্ষা মৌসুমেই নয়, নদী ভাঙছে শুকনো মৌসুমেও। নদীভাঙনের বহুবিধ কারণের মধ্যে জলবায়ুর বিরূপ প্রভাব, অবৈজ্ঞানিক উপায়ে বালু উত্তোলন, দখল, নাব্য হ্রাস ইত্যাদি অন্যতম। এসব কারণে নদীর স্বাভাবিক গতিপথ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে এবং নদনদীর তলদেশে এক ধরনের ঘূর্ণির সৃষ্টি হচ্ছে। এই ঘূর্ণি রূপ নেয় ভাঙনে। অপরিকল্পিত নদীশাসনও ভাঙনের অন্যতম কারণ। নদনদীর নাব্য ফিরিয়ে দিতে নিয়মিত ড্রেজিংয়ের পাশাপাশি নদীশাসনে নিতে হবে বৈজ্ঞানিক পন্থা। শুধু পদ্মার ভাঙনই নয়, এই সমস্যা বলতে গেলে কমবেশি সারাদেশেই বিদ্যমান। নদীভাঙন মানবিক বিপর্যয়ের সৃষ্টি করছে। এ থেকে পরিত্রাণের জন্য তাৎক্ষণিক, স্বল্প ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা এবং এর বাস্তবায়নে আরও গভীর মনোযোগ দরকার। নদীভাঙন রোধে বরাদ্দের যথাযথ ব্যবহারের বিষয়েও প্রশ্ন আছে। নদীভাঙনের শিকার বাস্তুচ্যুত জনগোষ্ঠীর পুনর্বাসনে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে হবে। নদীভাঙনের সমস্যা এবং এ থেকে সৃষ্ট মানবিক বিপর্যয় আমাদের দেশে এক রূঢ় বাস্তবতা। এই পরিস্থিতি মোকাবেলায় প্রয়োজন অব্যাহত নজরদারি ও বাস্তবোচিত পদক্ষেপ।

পরবর্তী খবর পড়ুন : গরিব দেশে এত ধনকুবের!

সর্বোচ্চ ৬৫ আসনে ছাড় দেবে বিএনপি

সর্বোচ্চ ৬৫ আসনে ছাড় দেবে বিএনপি

একাদশ সংসদ নির্বাচনে জোট শরিকদের মধ্যে আসন বণ্টন নিয়ে মহাসংকটে ...

গ্রামাঞ্চল পাবে শহরের সুবিধা

গ্রামাঞ্চল পাবে শহরের সুবিধা

গ্রামাঞ্চলকে শহরের সুবিধায় আনতে ব্যাপক পরিকল্পনা রয়েছে আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ...

প্রত্যাবাসন আজ শুরু হচ্ছে না

প্রত্যাবাসন আজ শুরু হচ্ছে না

বহুল প্রতীক্ষিত রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া আজ বৃহস্পতিবার শুরু হচ্ছে না। ...

ডায়াবেটিস থেকে শিশুদের রক্ষায় এগিয়ে আসতে হবে

ডায়াবেটিস থেকে শিশুদের রক্ষায় এগিয়ে আসতে হবে

ঘাতক ব্যাধি ডায়াবেটিস থেকে শিশুদের রক্ষা করার আহ্বান জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞ ...

লোকজ সুরে খুঁজে পাই প্রাণের স্পন্দন

লোকজ সুরে খুঁজে পাই প্রাণের স্পন্দন

'লোকগানের কথায় রয়েছে জীবনের দিকনির্দেশনা। এর ঐন্দ্রজালিক সুর অদ্ভুত এক ...

দুর্ধর্ষ এক ভাড়াটে খুনির থানায় যাতায়াত!

দুর্ধর্ষ এক ভাড়াটে খুনির থানায় যাতায়াত!

দক্ষ রাজমিস্ত্রি হিসেবেই মিরপুর, ভাসানটেক ও কাফরুল এলাকার মানুষজন চিনতেন ...

নির্বাচন পেছানোর দাবি নিয়ে বসবে নির্বাচন কমিশন: সচিব

নির্বাচন পেছানোর দাবি নিয়ে বসবে নির্বাচন কমিশন: সচিব

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পেছাতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের দাবি নিয়ে নির্বাচন ...

ইসির সঙ্গে বৈঠকে নির্বাচন পেছানোর বিরোধিতা আ. লীগের

ইসির সঙ্গে বৈঠকে নির্বাচন পেছানোর বিরোধিতা আ. লীগের

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন আবারও পেছানোর বিরোধিতা করেছে আওয়ামী ...