ডিজিটালাইজেশন ও সমাজতন্ত্র

রম্য

প্রকাশ: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

জাঁ-নেসার ওসমান

'আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদ, ধ্বংস হোক, নিপাত যাক'...গগনবিদারী স্লোগানে মহান নেতা সলিম শরাফী রাজপথ দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন। 'আজ আমেরিকা ভিয়েতনামে নাপাম বোমা মেরেছে, কাল যে আপনার গৃহে নাপাম আঘাত করবে না? কে বলতে পারে! তার নিশ্চয়তা কী?'

'ভাইসব, এই নোংরা আমেরিকার বিরুদ্ধে, সিআইএর দালালদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হোন, রুখে দাঁড়ান। প্রতিরোধ গড়ে তুলুন। বলুন জয় গণতন্ত্র, জয় সমাজতন্ত্র।' সলিম শরাফী ভাইয়ের গমগমে ভরাট কণ্ঠের এই উদাত্ত আহ্বানে সবাই দলে দলে আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াল।

বাঙালি ছাত্র, বাঙালি ছাত্রী, বাঙালি জনতা, বাঙালি ক্ষেতমজুর-দিনমজুর, নারী-পুরুষ র্নির্বিশেষে সবাই ঝাঁপিয়ে পড়ল আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে।

'যারা লুমুম্বার মতো নেতাদের জিপ গাড়ির সঙ্গে বেঁধে রাস্তায় টেনে-হিঁচড়ে হত্যা করেছে, সেই আমেরিকান পিশাচদের বিরুদ্ধে দুনিয়ার মজদুরের সঙ্গে এক হয়ে লড়তে হবে। বিশ্ব থেকে আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের কলঙ্ক, মানবসমাজের কলঙ্ক, কুচক্রী আমেরিকানদের ঝেঁটিয়ে বিদায় করতে হবে। বিশ্ব থেকে উপড়ে ফেলতে হবে আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদ।

শান্তিতে নোবেল প্রাইজ পাওয়া মার্টিন লুথার কিংকে হত্যা করেছে এই শয়তানের বাচ্চা, শয়তানের দোসর, ব্লাডি আমেরিকানস। আমি আর কত ফিরিস্তি দেব। চিলির প্রেসিডেন্ট আলেন্দেকে কারা নৃশংসভাবে গুলি করে হত্যা করেছে! যতই লুকোছাপা করো বিশ্ববাসী জানে- চিলির মিলিটারি ডিক্টেটরদের পেছনে কারা মদদ জুগিয়েছে, কারা হত্যার রাজনীতিকে পুঁজি করে বিশ্ববাসীকে আতঙ্কের রাজ্যে নিক্ষেপ করেছে! ডা. আর্নেস্তো চে গুয়েভারাকে কারা ডাকাত বলে হত্যা করেছে! এই জারজ, নিষ্ঠুর, খুনে আমেরিকানদের ধ্বংসের জন্য ঘরে ঘরে কেল্লা গড়ে তোলো। আজ আমাদের সবাইকে আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে গর্জে উঠতেই হবে।

ষাটের দশকের তুখোড় নেতা সলিম শরাফী তার বাম রাজনীতি নিয়ে শোষিতের পক্ষে, শোষিত জনগণের পক্ষে প্রাণপণ লড়াই শুরু করলেন। ধীরে ধীরে মহান সলিম শরাফী মস্ত বামপন্থি রাজনৈতিক নেতা হয়ে উঠলেন। প্রতিটি পরীক্ষায় প্রথম হয়ে তুখোড় ছাত্রনেতা। তারপর ঘন ঘন রাশিয়া ট্যুর, হিঃ হিঃ বাম ঘরানার বিশ্বস্ত নেতারূপে আত্মপ্রকাশ করলেন। বামপন্থি সলিম শরাফী আইয়ুববিরোধী সংগ্রামে প্রথম শ্রেণির বিদ্রোহী হয়ে ঘরে ঘরে প্রশংসা কুড়ালেন। পথে পথে মিটিংয়ে-মিছিলে সলিম শরাফী বললেন, রাশিয়া আমার মদিনা আর আমেরিকা, হাবিয়া দোজখ। 'কোথায় স্বর্গ কোথায় নরক/ কে বলে তা বহুদূর/পৃথিবীর মাঝেই স্বর্গ-নরক/পৃথিবীই সুরাসুর...'

বুঝলেন ভাই সব, এই পৃথিবীর মাঝে নরক রয়েছে, আর নরক হচ্ছে আমেরিকা। এই আমেরিকায় বেশি গম উৎপাদন হলে তা আমেরিকানরা সমুদ্রে ফেলে দেয়। তবুও আমাদের মতো গরিব থার্ড ওয়ার্ল্ড কান্ট্রিকে অনুদান দেয় না, শালা আমেরিকা।

সলিম শরাফীর অকাট্য যুক্তিতে, প্রাণঢালা সততা দেখে, জনে জনে জনতা বাম রাজনীতিতে বাম আদর্শে যুক্ত হতে থাকল। এদিকে দেশে ঘোর অমানিশা পাকিস্তানি বর্বরদের বিরুদ্ধে '৭১-এর মুক্তিযুদ্ধে সলিম শরাফী আগরতলা কমিউনিস্ট ক্যাম্পে আশ্রয় নিয়ে গেরিলা ট্রেনিং গ্রহণ করে মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়লেন। মহান মুক্তিযুদ্ধে বিজয়ী হয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কাছে ঢাকা স্টেডিয়ামে ঘটা করে অস্ত্র সমর্পণ করলেন। জয়জয়কার, চারদিকে সলিম শরাফীর জয়গান। ওই মহামানব আসে, মর্ত্য ধূলির ঘাসে ঘাসে... ওই মহাসলিম আসে।

এবার সবাই একাগ্রচিত্তে তাকিয়ে বাংলার মাটি থেকে, বিশ্বের মাটি থেকে আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের শিকড় উপড়ে ফেলবেন আমাদের তুখোড় বাম রাজনৈতিক নেতা সলিম শরাফী।

ও হরি, আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদ ধ্বংসের আগেই কালনাগিনীর ছোবলে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বিশ্বাসঘাতকতাপূর্বক হত্যায় সলিম শরাফী ধাক্কা খেলেন। আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদ ধ্বংস তো দূরের কথা, নিজের অস্তিত্ব নিয়েই টান। কী আর করা, নিজের অস্তিত্ব রক্ষার জন্য বলবিন্দ্র সিং, হরপ্রসাদ চৌরাশিয়া, নাহিন্দ্র নূরুল ও মুকুলকে নিয়ে সলিম শরাফী তুখোড় বাম নেতা খাল কাটাতে যোগ দিলেন।

'আমার মনি ভাই, ফণী ভাই, কোই গেলা রে, চল যাই দলের সাথে খাল কাটিতে, আমার মনি ভাই, আমার মুরহাদ ভাই।' ব্যস, বিধিবাম। বাম রাজনীতিতে ফাটল। গোপন বৈঠকে বোমা ফাটল। নেতাদের পদত্যাগ দাবি। সবাই বলাবলি করল, সলিম শরাফীর বাম দল খাল কেটে কুমির আনল... বাম রাজনীতির ত্রাহি মধুসূদন অবস্থা। কেন গেল খাল কাটতে? কেন গেল দলের সঙ্গে!

কুমিরের খালের (চামড়া) কি এতই দাম! যে বাম রাজনীতি ছেড়ে খাল কাটতে গেল! এই ক্যাবলা ভুলের জন্য নেতাদের পদত্যাগ চাই। কিন্তু না, বাম নেতারা পদত্যাগ করবেন না। গদির মোহ ছাড়া অতই সোজা! বাম-ডান-বাম-ডান-বাম- যতই বাম-ডান করো গদির লোভ বড় লোভ। দেশ ছাড়া যায়; কিন্তু গদি ছাড়া যায় না।

বামের সব তুখোড় কর্মীরা দলছুট। মুনিরুজ্জামান, মুকুল ভাই, আরও শত শত ভাই ও আপা, দাদা ও দিদি, চাচা ও চাচি, কাকা ও কাকি, রতন-টতন সব বেরিয়ে বাম দল ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ্র হয়ে গেল।

সত্যেন ঘোষ ও রমেশ দাস দুঃখে ভেঙে পড়লেন। বাম বড় নেতারা সব হজব্রত পালন করে লাব্বাইক, লাব্বাইক, লাব্বাইক ধ্বনি তোলে। শ্মশ্রুমুণ্ডন করে তৌবাস্তাগ-ফিরুল্লাহ পড়ে মন্ত্রিত্ব গ্রহণ করলেন। ফলে কমরেডদের শরীরের গ্রোথ থেমে গেল। খর্বকায় বামুন হয়ে উঠল। দধীচী তচকতায় পারদর্শী হয়ে উঠল।

ইনাম বোমার আগেই পাড়ি জমাল। আমেরিকার বিরুদ্ধে লড়াই না করে সলিম শরাফী হুদা হুদাই, হুদাইবিয়ার সন্ধি করে ফেলল। তুখোড় বাম রাজনৈতিক নেতা সলিম শরাফী শেষে আমেরিকান ভিসা জোগাড় করে তার মেয়েকে নিয়ে নিউইয়র্কের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি করে দিল। 'আজব শহর আমেরিকা/সব শহরের চেয়ে,/কল টিপলেই খাবার/ আর চোখ টিপলেই মেয়ে'...

আমজনতা, পাবলিক, কমরেড, ফৌজি ভাই, বড় ভাই, ছোট ভাই, দুলাভাই সবাই জিজ্ঞেস করল, 'কী শরাফী, সলিম ভাই, এত বছর আমেরিকান সাম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে লড়াই করে, যারা ১৯৭১-এ আপনাদের বাংলাদেশকে ধ্বংস করার জন্য পাকিস্তানের পক্ষে 'সেভেনথ ফ্লিট' পাঠিয়েছিল, সেই স্বাধীনতাবিরোধী দেশে নিজের মেয়েকে ভর্তি করলেন!'

একটু স্মিত হাসি হেসে তুখোড় বাম রাজনৈতিক নেতা সলিম শরাফী বললেন, 'ডিজিটাইজেশন কমরেড, ডিজিটাইজেশন। ফেসবুকে দেখেন না! সমাজতন্ত্রও এখন ডিজিটাইজড হয়েছে কমরেড, ডিজিটাইজড। যুগের সঙ্গে তাল মেলাবেন না!'...হিঃ হিঃ হিঃ

লেখক
‘থ্যাঙ্ক ইউ পিএম’ প্রচারে সমস্যা নেই: ইসি

‘থ্যাঙ্ক ইউ পিএম’ প্রচারে সমস্যা নেই: ইসি

প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে নির্মিত ‘থ্যাঙ্ক ইউ পিএম’ বিজ্ঞাপন হিসেবে টেলিভিশনে ...

সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য ইসির নির্লিপ্ত থাকার সুযোগ নেই: সুজন

সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য ইসির নির্লিপ্ত থাকার সুযোগ নেই: সুজন

দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য জাতীয় সংসদ নির্বাচন করতে ...

দেশে হঠাৎ বন্ধ স্কাইপি

দেশে হঠাৎ বন্ধ স্কাইপি

দেশে হঠাৎ করে সোমবার বিকেল থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম স্কাইপি ...

জেনে-শুনে মন্তব্য করা উচিত: দুদক চেয়ারম্যান

জেনে-শুনে মন্তব্য করা উচিত: দুদক চেয়ারম্যান

'তদন্ত করলে দুদকেও দুর্নীতি বেরুবে'- জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যানের ওই ...

আগাম প্রচার সামগ্রী সরানো না হলে জরিমানা: ইসি

আগাম প্রচার সামগ্রী সরানো না হলে জরিমানা: ইসি

জাতীয় নির্বাচন উপলক্ষে আগাম প্রচার সামগ্রী যারা সরাননি, তাদের জরিমানা ...

পুরুষের ন্যায্য অধিকার প্রতিষ্ঠার দাবি

পুরুষের ন্যায্য অধিকার প্রতিষ্ঠার দাবি

'বৈষম্য নয় পুরুষের ন্যায্য অধিকার প্রতিষ্ঠিত হোক' প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে ...

উচ্চশিক্ষায় নতুন কারিকুলাম প্রণয়ন করবে ইউজিসি

উচ্চশিক্ষায় নতুন কারিকুলাম প্রণয়ন করবে ইউজিসি

বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) উচ্চশিক্ষায় সক্ষমতা বৃদ্ধি, দক্ষ স্নাতক ...

টমটমের ধাক্কায় প্রাণ গেল প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষার্থীর

টমটমের ধাক্কায় প্রাণ গেল প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষার্থীর

চট্টগ্রামে প্রাথমিক সমাপনী (প্রাইমারি এডুকেশন সার্টিফিকেট-পিইসি) পরীক্ষা দিতে যাওয়ার পথে ...