ভিডিও কনফারেন্সে দুই প্রধানমন্ত্রী

ভারত থেকে এলো আরও ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ

প্রকাশ: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

সমকাল ডেস্ক

ভারত থেকে এলো আরও ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ

সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নয়াদিল্লি থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বাংলাদেশে ভারতের বিদ্যুৎ সরবরাহ কার্যক্রম উদ্বোধন করে- ফোকাস বাংলা

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে সহযোগিতার অংশ হিসেবে বাংলাদেশের জাতীয় গ্রিডে আরও ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু করেছে ভারত। পশ্চিমবঙ্গের বহরমপুর গ্রিড থেকে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারার আন্তঃবিদ্যুৎ সংযোগ গ্রিডের মাধ্যমে এ বিদ্যুৎ বাংলাদেশে আসছে।

গতকাল সোমবার বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঢাকার গণভবন থেকে এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দিল্লি থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ বিদ্যুৎ সরবরাহ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপল্গব কুমার দেবও কলকাতা ও আগরতলা থেকে এ ভিডিও কনফারেন্সে অংশ নেন। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজও যুক্ত ছিলেন এ অনুষ্ঠানে। খবর কলকাতা প্রতিনিধি, বাসস, ইউএনবি ও বিডিনিউজের।

বর্তমানে ভারত থেকে ৬৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ পাচ্ছে বাংলাদেশ। নতুন ৫০০ মেগাওয়াট যুক্ত হওয়ার পর ভারত থেকে বাংলাদেশে বিদ্যুৎ আমদানির পরিমাণ দাঁড়াচ্ছে ১ হাজার ৬৬০ মেগাওয়াটে। বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, উদ্বোধনের আনুষ্ঠানিকতা সোমবার বিকেলে হলেও রোববার মধ্যরাত থেকেই পরীক্ষামূলক সরবরাহ শুরু হয়েছে।

এ অনুষ্ঠানে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভেড়ামারায় নবনির্মিত ৫০০ মেগাওয়াট ক্ষমতার 'হাই ভোল্টেজ ডিসি ব্যাক টু ব্যাক স্টেশনে'র দ্বিতীয় পর্যায়েরও উদ্বোধন করেন দুই প্রধানমন্ত্রী। এ ছাড়া আখাউড়া-আগরতলা ডুয়েল গেজ রেললাইন প্রকল্পের বাংলাদেশ অংশ এবং মৌলবীবাজারের কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ পুনর্বাসন প্রকল্পের নির্মাণ কাজেরও উদ্বোধন হয় এ অনুষ্ঠানে।

জাতীয় গ্রিডে নতুন আসা ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুতের মধ্যে ৩০০ মেগাওয়াট আসবে ভারতের সরকারি কোম্পানি 'ন্যাশনাল থার্মাল পাওয়ার পল্গ্যান্ট' থেকে। বাকি ২০০ মেগাওয়াট আসবে বেসরকারি কোম্পানি 'পাওয়ার ট্রেডিং করপোরেশন' থেকে। রেলপথ মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানান, আখাউড়া-আগরতলা ডুয়েল গেজ রেললাইন নির্মাণ প্রকল্প এবং কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেল পুনর্বাসন প্রকল্পের খরচের একটি বড় অংশ মেটানো হবে ভারতের এক বিলিয়ন ডলার ঋণের অংশ থেকে। এ প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সঙ্গে উত্তর-পূর্ব ভারতের সাতটি রাজ্যের রেল যোগাযোগ সহজ হবে। রেলপথে ত্রিপুরা থেকে কলকাতার দূরত্ব ১ হাজার ৬৫০ কিলোমিটার থেকে কমে দাঁড়াবে ৫১৫ কিলোমিটারে।

এ সময় বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বিদ্যমান সম্পর্ক বিশ্বের অন্যান্য অংশের জন্য রোল মডেল। তিনি বলেন, বহু বছর ধরে আমাদের মধ্যে বিদ্যমান পারস্পরিক বিশ্বাস, শ্রদ্ধাবোধ এবং সুনামের কারণে আমাদের সম্পর্ক পরিপকস্ফতা পেয়েছে। এ সুসম্পর্ক আমাদের দৃঢ় আস্থার সঙ্গে পারস্পরিক সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে যেতে সাহায্য করছে। এতে দুই দেশের জনগণই লাভবান হচ্ছে।

শেখ হাসিনা বলেন, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ব্যবসা-বাণিজ্য, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, যোগাযোগ, অবকাঠামো উন্নয়ন এবং জনগণের মধ্যে যোগাযোগসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে দু'দেশের মধ্যে প্রভূত অগ্রগতি সাধিত হয়েছে। ব্লু ইকোনমি, সামুদ্রিক সহযোগিতা, পারমাণবিক শক্তি, সাইবার নিরাপত্তা, মহাকাশ গবেষণার মতো নতুন নতুন ক্ষেত্রেও আমরা কাজ শুরু করেছি।

তিনি বলেন, বর্তমানে রেলওয়ে খাতে দু'দেশের মধ্যে সহযোগিতা ক্রমান্বয়ে বাড়ছে। বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে মালামাল পরিবহনের জন্য আমরা ১৯৬৫-পূর্ব রেল সংযোগ পুনরায় চালু করার জন্য কাজ করে যাচ্ছি।

শেখ হাসিনা বলেন, 'আমি আশা করি, আমরা শিগগির লাইন অব ক্রেডিটের আওতায় ভারতীয় অর্থায়নে যৌথভাবে ঢাকা ও টঙ্গীর মধ্যে তৃতীয় ও চতুর্থ ডুয়েল গেজ রেললাইন এবং টঙ্গী ও জয়দেবপুরের মধ্যে ডুয়েল গেজ ট্র্যাক নির্মাণের ভিত্তিফলক স্থাপন করতে পারব।' প্রধানমন্ত্রী বলেন, 'নরেন্দ্র মোদিকে আমাদের উন্নয়নে সমর্থনদানের জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জানাচ্ছি।'

শেখ হাসিনা বলেন, 'আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি বাংলাদেশের বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা গত সাড়ে ৯ বছরে তিন হাজার থেকে ২০ হাজার মেগাওয়াটে উন্নীত হয়েছে। ধন্যবাদ জানাই পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীকে, তিনি বলেছেন আমাদের আরও এক হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ দেবেন। আশা করি নরেন্দ্র মোদি এতে সম্মতি দেবেন।'

প্রধানমন্ত্রী বলেন, 'উচ্চ অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ধরে রাখার জন্য আমাদের আরও অনেক বিদ্যুৎ প্রয়োজন। এ জন্য আমরা আঞ্চলিক সহযোগিতা কাঠামোর অধীনে ২০৪১ সালের মধ্যে প্রতিবেশী দেশগুলো থেকে ৯ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানির পরিকল্পনা করছি। আশা করি এ লক্ষ্য অর্জনে ভারত আমাদের পাশে থাকবে।'

নরেন্দ্র মোদি বলেন, 'প্রতিবেশী দেশের নেতাদের সঙ্গে প্রতিবেশীর মতোই সম্পর্ক হওয়া উচিত। যখন ইচ্ছা হয় তখন কথা বলা উচিত, যখন দরকার তখন সফর হওয়া প্রয়োজন। এসব ব্যাপার নিয়ে প্রটোকলের বন্ধনে থাকা উচিত নয়।' মোদি বলেন, 'অনেক সাক্ষাতের বাইরে এটা আমাদের চতুর্থ ভিডিও কনফারেন্স। নিকট ভবিষ্যতে আরও একটি ভিডিও কনফারেন্স হবে।'

নরেন্দ্র মোদি বলেন, 'প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশ করার লক্ষ্যে কাজ করছেন। ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ উন্নত রাষ্ট্র করার তার ভিশনকে বাস্তবে রূপ দেওয়ার ক্ষেত্রে সহযোগিতা করা আমাদের জন্য গর্বের বিষয় হবে। আমার বিশ্বাস, যেভাবে আমরা আমাদের সম্পর্ক বাড়াব আর মানুষের সঙ্গে সম্পর্ক জোরদার করব, সেভাবে আমরা উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির নতুন আকাশও স্পর্শ করব।'

ভিডিও কনফারেন্সের শুরুতে বাংলায় অভিবাদন জানান মোদি। পুরো ভাষণ হিন্দিতেই দিয়েছেন মোদি। তবে শেষদিকে আবারও বাংলায় কথা বলেন। এবার মোদি পরিস্কার বাংলায় বলেন, 'আজ থেকে আমরা আরও কাছে এলাম। আমাদের সম্পর্ক আরও গভীর হলো।'

বিদ্যুৎ সরবরাহ প্রকল্পে সহযোগিতার জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে অভিনন্দন জানান মোদি। তিনি বলেন, 'আখাউড়া-আগরতলার রেল সংযোগের কাজ শেষ হলে আমাদের ক্রস বর্ডার সংযোগে নতুন অর্জন আসবে। এ জন্য আমি ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপল্গব কুমার দেবকেও অভিনন্দন জানাই।'

উদ্বোধনের পর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে কথা বলেন শেখ হাসিনা। দু'জনের শুভেচ্ছা বিনিময়ের পর শেখ হাসিনা বলেন, 'বাংলাদেশে আবার আসেন বেড়াতে, সেটাই চাই।' তখন মমতা বলেন, 'নিশ্চয় আসব। আপনি জিতুন, আমরা আসব আবার।' ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবকে শেখ হাসিনা জিজ্ঞেস করেন- কবে আসবেন? উত্তরে বিপ্লব বলেন, 'আমি আসব আপনার কাছে।'









বুকে কফ জমা প্রতিরোধ করবেন যেভাবে

বুকে কফ জমা প্রতিরোধ করবেন যেভাবে

একটু একটু করে এগিয়ে আসছে শীত। ঋতু পরিবর্তনের এ সময়টাতে ...

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীসহ ৩ জনকে মৃত্যুদণ্ডের রায় দিয়েছেন ...

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা গণভবনে

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা গণভবনে

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রতাশীরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ ...

আবার প্রমাণ হলো বিএনপি সন্ত্রাসী দল: ওবায়দুল কাদের

আবার প্রমাণ হলো বিএনপি সন্ত্রাসী দল: ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নয়াপল্টনে বিএনপি পরিকল্পিতভাবে ...

যেসব অভ্যাসে ওজন কমে

যেসব অভ্যাসে ওজন কমে

ওজন কমানো বেশ কঠিন। খাদ্য তালিকা পরিবর্তন কিংবা ব্যায়ামের পরেও ...

বাংলাদেশ সফরে নেই হোল্ডার

বাংলাদেশ সফরে নেই হোল্ডার

খবরটা বাংলাদেশ দলের জন্য যতটা স্বস্তির। ততটাই চিন্তার ওয়েস্ট ইন্ডিজ ...

সব প্রার্থী সমান: সিইসি

সব প্রার্থী সমান: সিইসি

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা নির্বাচন কর্মকর্তাদের উদ্দেশে বলেছেন, ...

আজ বিয়ে, ২৮ নভেম্বর রিসেপশন

আজ বিয়ে, ২৮ নভেম্বর রিসেপশন

অবসান হচ্ছে সব জল্পনাকল্পনা। ‘স্রেফ বন্ধু’ এই বাক্য থেকে রণবীর ...