'বন্দুকযুদ্ধে' মাদক ব্যবসায়ী ও ডাকাত নিহত

প্রকাশ: ১৭ মে ২০১৮      

সমকাল ডেস্ক

নারায়ণগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে 'বন্দুকযুদ্ধে' মো. পারভেজ (৩০) নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের চার কর্মকর্তাসহ ছয় সদস্য। মঙ্গলবার গভীর রাতে ফতুল্লার দাপা ইদ্রাকপুর বালুর মাঠে এ ঘটনা ঘটে। এদিকে ফেনীর দাগনভূঞায় ডাকাত-পুলিশ 'বন্দুকযুদ্ধে' মুসা আলম মাসুদ (৩০) নামে এক ডাকাত নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার খুশিপুর গ্রামের মতিন চেয়ারম্যানের বাড়ি-সংলগ্ন স্থানে এ ঘটনা ঘটে। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

নারায়ণগঞ্জ : বন্দুকযুদ্ধের পর পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তিন রাউন্ড গুলিভর্তি রিভলবার ও দুটি বড় ছোরা উদ্ধার করে। নিহত পারভেজ দাপা পাইলট স্কুল এলাকার ভাড়াটিয়া সোবহান মিয়ার ছেলে। তাদের স্থায়ী বাড়ি বাগেরহাটে। পারভেজ সোমবার রাতে ফতুল্লা পুলিশের টহল টিমের গাড়ি থেকে রাইফেল চুরির মামলার প্রধান আসামি ছিল। ফতুল্লা মডেল থানার ওসি শাহ মঞ্জুর কাদের বলেন, মঙ্গলবার গভীর রাতে দাপা ইদ্রাকপুরের বালুর মাঠে দু'দল মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা জানতে পেরে এসআই এনামুলের নেতৃত্বে এসআই শাফিউল, এসআই কামরুল, এএসআই তারেক আজিজ, কনস্টেবল মনিরুজ্জামান এবং ইমরুল ঘটনাস্থলে যান। ওই সময় মাদক ব্যবসায়ীদের দু'পক্ষই পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ শুরু করে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থলে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পারভেজকে পড়ে থাকতে দেখা যায়। তাকে নারায়ণগঞ্জ দেড়শ' শয্যা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কতর্ব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। অস্ত্র চুরির ঘটনায় অন্য আসামিরা হলো- টিপু, রিফাত ও নূর ইসলাম।

দাগনভূঞা (ফেনী) : উপজেলার খুশিপুর গ্রামে মুহাম্মদ শাহ আলমের ছেলে মুসা আলম মাসুদকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কুমিল্লার নাঙ্গলকোট থেকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে। রাত ২টায় তাকে নিয়ে তারা অভিযানে বের হয়। উপজেলার মতিন চেয়ারম্যানের বাড়ি-সংলগ্ন স্থানে পৌঁছলে মাসুদের সহযোগীরা পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলিবর্ষণ করে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। উভয়ের গোলাগুলিতে মাসুদ নিহত হয় এবং এ সময় এসআই আবদুর রাহিম, এএসআই মোহাম্মদ ইসমাইল, কনস্টেবল কাঞ্চন ও জসীম আহত হন। অতিরিক্ত পুলিশ গিয়ে মাসুদের লাশ এবং আহত পুলিশ সদস্যদের হাসপাতালে নিয়ে আসে। ঘটনাস্থল থেকে পিস্তল ও তিন রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশের দায়িত্ব পালনে বাধা ও হামলার অভিযোগে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের আসামি করে থানায় মামলা করা হয়। পুলিশ জানায়,মাসুদের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা, ধর্ষণ ও ডাকাতিসহ ছয়টি মামলা রয়েছে।

পরবর্তী খবর পড়ুন : অজগরের পেটে আস্ত ছাগল

ওয়াটসনের সেঞ্চুরিতে আইপিএল শিরোপা চেন্নাইয়ের

ওয়াটসনের সেঞ্চুরিতে আইপিএল শিরোপা চেন্নাইয়ের

মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে আইপিএলের ১১তম আসরের শিরোপা ...

দেশের এ অবস্থা জাতির জন্য হুমকি: ফখরুল

দেশের এ অবস্থা জাতির জন্য হুমকি: ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আজকে গণতন্ত্রকে যেভাবে ...

সৌদি থেকে ফিরলেন আরও ৪০ নারী

সৌদি থেকে ফিরলেন আরও ৪০ নারী

সৌদি আরবে কর্মক্ষেত্রে নির্যাতনের শিকার আরও ৪০ নারী দেশে ফিরছেন। ...

বিশিষ্টজনের সঙ্গে রাষ্ট্রপতির ইফতার

বিশিষ্টজনের সঙ্গে রাষ্ট্রপতির ইফতার

রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ রোববার বঙ্গভবনে প্রধানমন্ত্রীসহ দেশের বিশিষ্ট নাগরিকদের ...

তাপপ্রবাহের আভাস, গরম আরও বাড়বে

তাপপ্রবাহের আভাস, গরম আরও বাড়বে

টানা বৃষ্টির কারণে এবার চৈত্র ও বৈশাখে পারদ চড়তে পারেনি। ...

ঈদে নতুন নোট ৩ জুন থেকে

ঈদে নতুন নোট ৩ জুন থেকে

ঈদ উৎসবে নতুন নোটের বাড়তি চাহিদা তৈরি হয়। এ চাহিদা ...

আগামী জাতীয় নির্বাচন সবার জন্য চ্যালেঞ্জ: স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

আগামী জাতীয় নির্বাচন সবার জন্য চ্যালেঞ্জ: স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

ফরিদপুর জেলা পুলিশের আয়োজনে ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্থানীয় ...

রামোসের শাস্তি চেয়ে দেড় লাখের বেশি ভক্তের স্বাক্ষর

রামোসের শাস্তি চেয়ে দেড় লাখের বেশি ভক্তের স্বাক্ষর

রিয়াল মাদ্রিদ ডিফেন্ডার সের্গিও রামোস লিভারপুলের তারকা মোহাম্মদ সালাহকে ইচ্ছাকৃতভাবে ...