এসডিজি বাস্তবায়নে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নয়ন জরুরি

নাগরিক প্ল্যাটফর্মের সম্মেলনে বিশিষ্টজন

প্রকাশ: ০৭ ডিসেম্বর ২০১৭      

সমকাল প্রতিবেদক

এসডিজি বাস্তবায়নে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নয়ন জরুরি

বুধবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউটে এসডিজি বাস্তবায়নে নাগরিক প্ল্যাটফর্মের সম্মেলনে সিপিডির চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেহমান সোবহান ও ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামানসহ বিশিষ্টজন-সমকাল

উন্নয়ন ধারণায় 'গড়ের খেলা' থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। গত ৫ বছরে বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবিশ্বাস্য উন্নয়ন সত্ত্বেও গ্রাম-শহর, নারী-পুরুষ এরকম সব ক্ষেত্রেই বৈষম্য বেড়েছে। এ বৈষম্য এবং বিভাজন দেশের সামাজিক, রাজনৈতিক অবস্থানকে দুর্বল করছে। ৭ শতাংশ হারে মোট দেশজ উৎপাদন (জিডিপি) প্রবৃদ্ধি বড় অর্জন; কিন্তু এ অর্জন কার কাছে কতটুকু পৌঁছল সে প্রশ্নটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ। এ পরিপ্রেক্ষিতে উন্নয়ন ধারণাটা সুস্পষ্ট হওয়া উচিত। সবচেয়ে পেছনে পড়া মানুষকে দিয়েই উন্নয়ন শুরু করতে হবে।

বাংলাদেশে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য (এসডিজি) বাস্তবায়নে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত নাগরিক সম্মেলনে এ বক্তব্য তুলে ধরেছেন বিশিষ্টজনরা। তাদের মতে, দেশের এই প্রেক্ষিতে এসডিজির বৈশ্বিক অঙ্গীকার একটা বড় সুযোগ। এ সুযোগ কাজে লাগাতে সরকার, বেসরকারি খাতসহ সমাজের প্রতিটি মানুষকেই তার অবস্থান থেকে দায়িত্ব নিতে হবে। স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা, নজরদারি, সুশাসন প্রতিষ্ঠা ও রাজনৈতিক অঙ্গীকার প্রয়োজন।

গতকাল বুধবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউটে (কেআইবি) দিনব্যাপী এ সম্মেলনের আয়োজন করে বাংলাদেশে এসডিজি বাস্তবায়নে নাগরিক প্ল্যাটফর্ম। ৭৪টি দেশি-বিদেশি উন্নয়ন সংস্থা এবং শতাধিক বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের নেটওয়ার্কের সচিবালয় হিসেবে কাজ করছে গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি)। সংস্থার সম্মাননীয় ফেলো ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য নাগরিক প্ল্যাটফর্মের আহ্বায়কের দায়িত্ব পালন করছেন। সম্মেলনে বিশেষজ্ঞ এবং বিশিষ্টজনদের অংশগ্রহণে এসডিজির সঙ্গে সম্পৃক্ত চারটি কর্ম অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়। এসবের ভিত্তিতে ১২ পয়েন্টের একটি নাগরিক ঘোষণাপত্র চূড়ান্ত করা হয়।

সম্মেলনে প্রারম্ভিক অধিবেশনে সিপিডির চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেহমান সোবহান বলেন, এসডিজি অর্জনে বেস্টিক এবং সামষ্টিক সব পর্যায়ে লক্ষ্য নির্ধারণ এবং সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপ নেওয়া প্রয়োজন। বিশেষ করে সমাজের পিছিয়ে পড়া বঞ্চিত শ্রেণির চাহিদার ভিত্তিতে এসব পদক্ষেপ নিতে হবে। এ জন্য সরকার এবং সুশীল সমাজকে যৌথভাবে দায়িত্ব ভাগাভাগি করে নিতে হবে।

ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান বলেন, পৃথিবীর বেশিরভাগ সম্পদ অল্প কিছু মানুষের হাতে কেন্দ্রীভূত হয়ে আছে- এটা কিছুতেই মেনে নেওয়া যায় না। সবার জন্য সমান সুযোগ থাকা প্রয়োজন, যাতে সবাই তার অধিকার পায়। মোট কথা, অধিকার নিশ্চিত করে মানুষকে মানুষের মর্যাদায় প্রতিষ্ঠিত করতে হবে।

অধিবেশন পরিচালনার বিভিন্ন পর্যায়ে ড. দেবপ্রিয় বলেন, এ সম্মেলনের তিনটি মূল উদ্দেশ্য রয়েছে। এগুলো হচ্ছে- এসডিজি বাস্তবায়নে প্রান্তিক ও সুবিধাবঞ্চিত এবং বৈষম্যের শিকার জনগোষ্ঠীর কণ্ঠস্বরকে জোরদার করা, বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ও ব্যক্তি খাত যে অবদান রেখে

যাচ্ছে সেটি সুস্পষ্ট করা এবং এসডিজি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়ায় সরকারের সঙ্গে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা তথা ব্যক্তি খাতের একটি সহযোগিতাপূর্ণ ও অংশীদারিত্বমূলক সম্পর্ক আরও জোরদার করা। এসডিজির অর্জনে কীভাবে কাজ হচ্ছে, কোথায় কী শূন্যতা রয়েছে সেসব বিষয়ে প্রতিবেদন দিয়ে সরকারকে সহযোগিতা করতে চায় নাগরিক প্ল্যাটফর্ম- যাতে এসডিজি থেকে কেউ বাদ না পড়ে। দুর্নীতি রোধ এবং আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে। এসব বিষয়ে যে নজরদারি প্রয়োজন, তা করতে হবে স্থানীয়ভাবেই। এসডিজি অর্জনে বেসরকারি খাত বড় অংশীদার হতে পারে। সফলভাবে এসডিজি বাস্তবায়নে 'এসডিজি ট্রাস্ট ফান্ড' গঠনের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, এসডিজি অর্জনে স্থানীয় সরকারকে শক্তিশালী করতে হবে। কারণ, স্থানীয় সরকারের মাধ্যমেই তৃণমূলের মানুষ প্রয়োজনীয় সেবা পেয়ে থাকে। ইউএনডিপির ডেপুটি কান্ট্রি ডিরেক্টর কোয়কো ইউকোচুকা বলেন, গত কয়েক বছরে বাংলাদেশের প্রশংসাযোগ্য উন্নয়ন হয়েছে। তবে বৈষম্য প্রকট হয়েছে। এখনও চার কোটি মানুষ দারিদ্র্যসীমার নিচে বাস করে। এদের সম্পৃক্ত করে এসডিজি বাস্তবায়ন করতে হবে।

নাগরিক প্ল্যাটফর্মের মূল উদ্যোক্তাদের পক্ষে সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল বলেন, কাউকে পেছনে ফেলে রাখা যাবে না- এ স্লোগান বাস্তবায়নে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর কণ্ঠস্বরকে জোরালো করতে হবে।

রাশেদা কে চৌধুরী বলেন, জাতীয় জবাবদিহিতার কাঠামো তৈরি করতে হবে, যেখানে প্রত্যেকের উন্নয়ন হবে, কাজের জবাবদিহিতা থাকবে। উন্নয়নে 'গড়ের খেলা' বাদ দিতে হবে।

অপর উদ্যোক্তা সিপিডির সম্মাননীয় ফেলো অধ্যাপক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তি, সামাজিক ন্যায়বিচার ও সমৃদ্ধ পরিবেশের যে চেতনা নিয়ে মুক্তিযুদ্ধ হয়েছে, এসডিজিতে সে বিষয়গুলোই রয়েছে। তিনি বলেন, 'মুক্তিযোদ্ধাদের বঞ্চনার অতীত যাতে আমাদের ভবিষ্যৎ' না হয়, সে বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে।

ঢাকা চেম্বারের সাবেক সভাপতি আসিফ ইব্রাহীম বলেন, এসডিজি অর্জনে বেসরকারি খাতও গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছে।

দিনের বিভিন্ন অধিবেশেন উল্লেখযোগ্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন- হাঙ্গার প্রজেক্টের কান্ট্রি ডিরেক্টর ড. বদিউল আলম মজুমদার, সিপিডির সম্মাননীয় ফেলো অধ্যাপক রওনক জাহান, ব্লাস্টের নির্বাহী পরিচালক ব্যারিস্টার সারা হোসেন, টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান, বেলার নির্বাহী পরিচালক সৈয়দা হাসান, অ্যাকশন এইডের কান্ট্রি ডিরেক্টর ফারাহ কবীর। এসব অধিবেশনে বিভিন্ন সুপরিশ করা হয়।

সমাপনী অধিবেশনে আগামী জাতীয় নির্বাচনে অংশগ্রহণকারী সব রাজনৈতিক দলের ইশতেহারে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নয়নের লক্ষ্যে অঙ্গীকার এবং সেগুলো বাস্তবায়নের কর্মপরিকল্পনা রাখার বাধ্যবাধকতাসহ ১২ দফা সুপরিশ করা হয়। এ অধিবেশনে বক্তব্য দেন- বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, নিজেরা করির সমন্বয়ক খুশী কবির, চ্যানেল আইর বার্তা প্রধান শাইখ সিরাজ ও নির্মাতা অমিতাভ রেজা চৌধুরী।

পরবর্তী খবর পড়ুন : বাংলা প্রথম পত্র

'কিক-টু' ছবিতে জ্যাকুলিন

'কিক-টু' ছবিতে জ্যাকুলিন

কিছুদিন আগে সালমান খান এক অনুষ্ঠানে বলেছিলেন, 'কিক' ছবির সিকুয়েল ...

বিএনপি নেতারাই খালেদার দীর্ঘ কারাবাস চান: কামরুল

বিএনপি নেতারাই খালেদার দীর্ঘ কারাবাস চান: কামরুল

বিএনপি নেতারাই খালেদা জিয়ার দীর্ঘ কারাবাস চান বলে দাবি করেছেন ...

বুলডোজার দিয়ে রোহিঙ্গা নির্যাতনের আলামত নষ্ট করছে মিয়ানমার: এইচআরডব্লিউ

বুলডোজার দিয়ে রোহিঙ্গা নির্যাতনের আলামত নষ্ট করছে মিয়ানমার: এইচআরডব্লিউ

মিয়ানমারের রাখাইনে সেনাবাহিনীর দমন অভিযানে জনশূন্য হয়ে পড়া রোহিঙ্গা গ্রামগুলো ...

খালেদার জিয়ার জামিনে বিলম্ব বিএনপির প্লাস পয়েন্ট: মওদুদ

খালেদার জিয়ার জামিনে বিলম্ব বিএনপির প্লাস পয়েন্ট: মওদুদ

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেছেন, দেশের বিচার ...

বগুড়ায় স্বেচ্ছাসেবক দলের দু'গ্রুপে সংঘর্ষ, নিহত ১

বগুড়ায় স্বেচ্ছাসেবক দলের দু'গ্রুপে সংঘর্ষ, নিহত ১

বগুড়ায় স্বেচ্ছাসেবক দলের দু'গ্রুপের মধ্যে নেতৃত্বের দ্বন্দ্ব ও আধিপত্য বিস্তার ...

রোহিঙ্গাদের ফেরাতে সিঙ্গাপুরের সহযোগিতা চাইলেন রাষ্ট্রপতি

রোহিঙ্গাদের ফেরাতে সিঙ্গাপুরের সহযোগিতা চাইলেন রাষ্ট্রপতি

মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে প্রত্যাবর্তনে সিঙ্গাপুরের সহযোগিতা ...

শেরপুরে যুবককে ডেকে নিয়ে গলা কেটে হত্যা

শেরপুরে যুবককে ডেকে নিয়ে গলা কেটে হত্যা

শেরপুর সদর উপজেলায়  ফোন করে পাওনা টাকা দেওয়ার কথা বলে ...

চোর সন্দেহে যুবককে পিটিয়ে হত্যা

চোর সন্দেহে যুবককে পিটিয়ে হত্যা

মাগুরায় গরু চোর সন্দেহে এক  যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। সদর ...