আঁচিল

চিকিৎসকের পরামর্শ নিন

প্রকাশ: ১২ আগস্ট ২০১৮      

ডা. তাওহীদা রহমান ইরিন, ডার্মাটোলজিস্ট শিওর সেল মেডিকেল (বাংলাদেশ) লিমিটেড

আজকাল অনেকেই ভাইরাল ওয়ার্ট বা আঁচিল সমস্যায় ভুগছেন। এই ভোগান্তির প্রধান কারণ হলো ভাইরাল ওয়ার্ট খুব বেশি ছোঁয়াচে, যা শুধু অন্য রোগী থেকেই নয়, নিজের শরীরের এক অংশ থেকে অন্য অংশে সহজেই সংক্রমিত হতে পারে। এই বিশেষ ধরনের আঁচিলটি হিউম্যান প্যাপিলোমা ভাইরাস (এইচপিভি) দ্বারা সংক্রমিত, যার দ্বারা শিশু, কিশোর, তরুণ-তরুণী, প্রাপ্তবয়স্ক যে কেউ আক্রান্ত হতে পারে। এটি বিনাইন বলে শুরুতে অনেকেই একে গুরুত্ব মনে করে না। কিন্তু পরে অস্বস্তি ও বিরক্তির কারণ হতে পারে। তাই আঁচিল দেখা দেওয়া মাত্রই চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করা উচিত। বিভিন্ন গবেষণায় গবেষকরা ১০০ ধরনের প্যাপিলোমা ভাইরাস আবিস্কার করেছেন। আঁচিলের আকৃতি, গঠন, ধাপ ও শরীরের কোন অংশে আক্রমণ করেছে- এর ওপর ভিত্তি করে ওয়ার্টের নামকরণ করা হয়েছে। যেমন- ডেরুকা ভালগারিস : এই আঁচিলটি হাঁটু, হাত ও পায়ের আঙুলে হয়। কিন্তু অনেক সময় শরীরের অন্যান্য স্থানে প্রসারণ করতে পারে, এমনকি মাথার তালুতেও হয়।

ডেরুকা ফ্ল্যাট : এটি ছোট, মসৃণ ও মাংসের রক্তের মতো প্রচুর সংখ্যায় হতে পারে। এই আঁচিল ঘাড়ে ও কব্জিতে বেশি হয়।

প্লান্টার আঁচিল : প্লান্টার ওয়ার্ট শক্ত ও পায়ের পাতার নিচে হয়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে রোগী ব্যথা অনুভব করে।

জেনিটাল আঁচিল : যৌনাঙ্গে হয় বলে একে ভেরুকা অ্যাকুমিনাটা নামে পরিচিত।

ডিজিটেট আঁচিল : ডিজিটেট আঁচিল আঙুরের মতো দেখতে, যা ঠোঁট ও চোখের পাতার কাছে হয়ে থাকে। আঁচিল অপসারণের জন্য বিভিন্ন ধরনের চিকিৎসা পদ্ধতি বাংলাদেশে রয়েছে। ডার্মাটোলজিস্টরা সাধারণত নিম্নলিখিত পদ্ধতিগুলো দিয়ে চিকিৎসা করে থাকেন।

স্যালিসাইলিক এসিড : চিকিৎসকরা সাধারণত আঁচিলের সাইজ ও শেপের ওপর নির্ভর করে স্যালিসাইলিক এসিড নির্ধারণ করে থাকেন। এটি লিকুইড লোশন হিসেবে (১০-৬৫ শতাংশ) পর্যন্ত পাওয়া যায়। এ ছাড়া স্যালিসাইলিক এসিডযুক্ত আঠালো টেপ ফার্মাসিতে পাওয়া যায়।

ইলেকট্রো সার্জারি : এটি সব ধরনের ওয়ার্টের জন্য (ডিজিটেট ভালগারিশ, প্লান্টার) হচ্ছে একটি ভালো চিকিৎসা পদ্ধতি। এটির চিকিৎসা খরচ কম এবং এক সেশনেই চিকিৎসা সম্ভব।

ক্রাইওথেরাপি : এ ক্ষেত্রে লিকুইড নাইট্রোজন ব্যবহার করা হয়। এই চিকিৎসা পদ্ধতিটি খুব সহজ ও ব্যথামুক্ত হওয়ায় শিশু ও পেরিঅ্যানাল ওয়ার্টে বেশি জনপ্রিয়। তবে সম্পূর্ণ নিরাময়ের জন্য ৩-৪ সেশনের প্রয়োজন হতে পারে।

লেজার চিকিৎসা : আজকাল আঁচিল অপসারণে সিওটু লেজার বেশ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। এই চিকিৎসা পদ্ধতি একটু ব্যয়বহুল হলেও সম্পূর্ণ নিরাপদ। উপরের চিকিৎসা পদ্ধতিতে আঁচিল অপসারণের পরও অনেক রোগী অভিযোগ করেন আঁচিল পুনরাবৃত্তি হচ্ছে; সে ক্ষেত্রে মনে রাখতে হবে যাদের ইমিউনিটি কম, তারাই এ সমস্যায় ভুগে থাকেন। তাই আঁচিল প্রতিরোধের জন্য ইমিউনিটি বুস্ট আপ করা জরুরি।

আমি আগেই বলেছি, এই রোগ অত্যন্ত ছোঁয়াচে, যার কারণে চিকিৎসাকালে ডাক্তার ও নার্সরা আক্রান্ত হতে পারেন। তাই রোগীর পরীক্ষা ও চিকিৎসার সময় অবশ্যই গ্লাভস পরে নিতে হবে। আমরা যদি সতর্ক হই ও সুস্থ জীবনযাপন করি, তাহলেই ভাইরাল ওয়ার্ট বা আঁচিল থেকে মুক্ত হতে পারব। হ

পরবর্তী খবর পড়ুন : হাঁপানি হলে যা করবেন

প্রার্থীদের হলফনামায় চোখ রাখবে দুদক

প্রার্থীদের হলফনামায় চোখ রাখবে দুদক

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সম্ভাব্য প্রার্থীদের হলফনামার সম্পদের হিসাবে নজর ...

সময় শেষ ব্যানার-পোস্টার সরেনি

সময় শেষ ব্যানার-পোস্টার সরেনি

সুষ্ঠু নির্বাচন ও প্রার্থীদের জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরির জন্য ...

হাল ছাড়েননি বাদপড়ারা চলছে চেষ্টা-তদবির

হাল ছাড়েননি বাদপড়ারা চলছে চেষ্টা-তদবির

আওয়ামী লীগের সম্ভাব্য তালিকা থেকে বাদ পড়া দলের মনোনয়নপ্রত্যাশীরা এখনও ...

মিশ্র প্রতিক্রিয়া আইনজ্ঞদের

মিশ্র প্রতিক্রিয়া আইনজ্ঞদের

দুর্নীতির দুটি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার ১০ ও ৭ ...

বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়া যাবে না

বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়া যাবে না

দল থেকে যাকেই মনোনয়ন দেওয়া হবে, তার পক্ষে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে ...

ধানের শীষের প্রতীক্ষায় শতাধিক ব্যবসায়ী

ধানের শীষের প্রতীক্ষায় শতাধিক ব্যবসায়ী

জাতীয় সংসদে ব্যবসায়ী সাংসদের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। বর্তমান সংসদে ব্যবসায়ীদের ...

কিশোরগঞ্জের ৬ আসনের তিনটিতেই প্রার্থী পুত্ররা

কিশোরগঞ্জের ৬ আসনের তিনটিতেই প্রার্থী পুত্ররা

আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে কিশোরগঞ্জের ৬টি সংসদীয় আসনের তিনটিতেই উত্তরাধিকার আজ ...

বিএনপির অভিযোগ তদন্তে পুলিশ

বিএনপির অভিযোগ তদন্তে পুলিশ

প্রধানমন্ত্রী ও নির্বাচন কমিশনের কাছে বিএনপির পক্ষ থেকে 'গায়েবি ও ...