ইউটিউবে টিভি নাটক

প্রকাশ: ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮      
ইউটিউবে টিভি নাটক

'কৃষ্ণকলির আত্মকথা' নাটকে অপর্ণা ঘোষ ও সজল

৪০ মিনিটের একটি নাটক দেখার জন্য এখন দর্শকদের ৮০ থেকে ১০০ মিনিট সময় ব্যয় করতে হয়। বাকি সময়ে বিজ্ঞাপন, নয়তো সংবাদ শিরোনাম। থাকে আরেক যন্ত্রণা 'স্ট্ক্রলে সংবাদ'। কার এত ধৈর্য বা মাথাব্যথা আছে এত সময় নিয়ে নাটক দেখার! এ কারণেই আধুনিক দর্শকরা এখন নাটক দেখার মাধ্যম হিসেবে বেছে নিয়েছেন ইউটিউবকে। লিখেছেন মীর সামী

প্রচারমাধ্যমের উন্নয়নে আবিস্কার হয়েছিল টেলিভিশন যন্ত্রটি। এরপর এতে যুক্ত হয় বিনোদনের নানা আয়োজন। একসময় মঞ্চ থেকে নাটকও উঠে এসেছিল টিভি পর্দায়। কয়েক দশকের পালাবদলে টেলিভিশনের জন্যই নির্মিত হতে লাগল নাটক ও টেলিছবি, যা এখন রীতি। জীবনের নানামুখী চাপ সামলে মানুষ একটু স্বস্তি পেতে চান। একটু স্বপ্নময় জগতে বিচরণ করতে চান, দেখা পেতে চান একটু আনন্দের। নানা অভাব, অগোছালো ছাপোষা জীবন গুটিয়ে রেখে টিভির সামনে তারা বসেন খানিকক্ষণ, গোছালো একটি নাটক, রিয়েলিটি শো, রান্না, রূপচর্চা, গেম শো বা শিশুতোষ অনুষ্ঠান দেখবেন বলে। কিন্তু সে আশায় গুড়েবালি। এখন টেলিভিশন থেকেও মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছেন দর্শক। গত কয়েক বছর ধরেই দেখা যাচ্ছে, আমাদের দেশের দর্শকরা টেলিভিশনে নাটক বা টেলিছবিগুলো দেখছেন না! বলা ভালো, নাটক টেলিভিশনে নয়, দর্শক দেখছেন ইউটিউবে। ফলে বলা যায়, দর্শক এখন টিভি ছেড়ে অনলাইনের দিকে ঝুঁকছেন। কারণ ইউটিউবে বিরতিহীন একটানা কাজটা উপভোগ করা যায়। ইদানীং অনলাইনের প্ল্যাটফর্মগুলো বেশ আলোচনায় এসেছে। আমি অন্তত ৫০ জন টিভি দর্শকের সঙ্গে কথা বলেছি। জানতে চেয়েছি কেন, টিভিতে নাটক না দেখে ইউটিউবে তারা নাটক দেখেন? দর্শকরা উত্তরের চেয়ে অভিযোগ জানিয়েছেন বেশি। তাদের অভিমত- 'বিজ্ঞাপনের ফাঁকে ফাঁকে নাটক', 'মানহীন নাটক', 'চ্যানেল সংখ্যা অনেক', 'বিনোদননির্ভর চ্যানেল নেই', আর 'সময়ের অপচয়'।

ইউটিউবে কেন দর্শকরা টিভি নাটক দেখছেন?- এমনটা জানতে চাইলে অভিনেত্রী জাকিয়া বারী মম বলেন, 'বিজ্ঞাপনের বিরতি না থাকায় ইউটিউবের মতো সামাজিক মাধ্যমে নাটক বা সিনেমা দর্শকদের স্বস্তি দিচ্ছে।' সে কারণে 'বড় ছেলে', 'বেস্ট ফ্রেন্ড', 'আমার নাম মানুষ' কিংবা 'আয়শা'সহ অসংখ্য নাটক ও টেলিছবি লাখ লাখবার দেখছেন দর্শকরা। অভিনেতা ও নির্মাতা আবুল হায়াত বলেন, 'দর্শক এখন বিজ্ঞাপন বিড়ম্বনাসহ নানা কারণে টিভি সেটের সামনে থেকে সরে গিয়ে ইউটিউবে টিভি অনুষ্ঠান দেখছে। তারা বিরতিহীনভাবে অনুষ্ঠান উপভোগ করতে পারছে। একজন শিল্পী হিসেবে আমি বলব, এটি ভালো হচ্ছে। কারণ, আমাদের কাজগুলো তো অন্তত দর্শক দেখছেন। কেউ যদি আমাদের কাজই দেখতে না পান, তাহলে এর মূল্য কি? আমরা কাজ করি তো দর্শকদের জন্যই। তবে পেশার দিক থেকে বলব, এতে করে কিন্তু ক্ষতিও আছে। অর্থাৎ, টিভি চ্যানেলগুলো যদি দর্শক হারায়, তাহলে চ্যানেল আর আমরা সবাই আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হব। এ কারণে টিভি চ্যানেলের উচিত এ অবস্থার উত্তরণে জরুরিভাবে বিকল্প ব্যবস্থা গ্রহণ করা।'

শুধু নাটক বা গানই নয়, এখন পুরো চলচ্চিত্রও মুক্তি পাচ্ছে ইউটিউবে। একটা সময় পত্রপত্রিকায় নতুন ছবির বিজ্ঞাপন করা হতো নানা কায়দায়। এখন ইউটিউবে সিনেমার ট্রেলার ও গানও ছাড়া হচ্ছে। আর সে কারণেই এখন অনেক পরিচালক বা নাটক নির্মাতা এই অনলাইন প্ল্যাটফর্মকে 'বক্স অফিস' হিসেবে বলছেন। নির্মাতা শিহাব শাহীন প্রায় দুই দশক ধরে টেলিভিশনের জন্য নাটক নির্মাণ করছেন। তিনি বলেন, 'টিভিতে কতজন দর্শক আমার পরিচালিত নাটক ও টেলিছবি দেখছেন, তার সঠিক হিসাব দিতে পারব না। কিন্তু ইউটিউবে কতজন দর্শক দেখছেন, সেটা বলতে পারছি। সে কারণে ইউটিউবকে নাটক, টেলিছবি, গান ও চলচ্চিত্রে বক্স অফিসও বলা যায়। তবে এই যে, এত এত নাটকের ভিউ। এতে করে কিন্তু একজন শিল্পী বা নির্মাতার আত্মতুষ্টি ছাড়া আর কোনো লাভ হচ্ছে না।'

যেহেতু এখন টেলিভিশনের দর্শকরা ইউটিউবের দিকে ঝুঁকছেন। সে কারণেই এখন দেশের প্রায় সব বেসরকারি স্যাটেলাইট টেলিভিশন চ্যানেলের রয়েছে নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল। আর এসব চ্যানেলের সাবস্ট্ক্রাইবারও লাখ লাখ। প্রতিদিনই যুক্ত হচ্ছে নতুন নতুন সাবস্ট্ক্রাইবার। ফলে নাটক প্রচারের সঙ্গে সঙ্গেই চ্যানেলগুলো নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করে দিচ্ছে তাদের প্রচারিত নাটক, টেলিছবি ও অন্যান্য অনুষ্ঠান। টেলিভিশন চ্যানেলের বিভিন্ন অনুষ্ঠান বিভাগের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলেও জানা গেছে, তারা এখন নাটক প্রচারের কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই সেটি ইউটিউবে আপলোড দিচ্ছেন। সেখানেই দর্শক বেশি দেখছেন নাটক। আর এখন তো কেউ কেউ শুধু ইউটিউব-কেন্দ্রিকই নির্মাণ করছেন নাটক। ইউটিউবে নাটক ও টেলিছবি কতটা লাভজনক? জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জনপ্রিয় এক টিভি চ্যানেলের কর্মকর্তা জানান, 'ইউটিউব ও গুগল থেকে এখন অনেকেই ভালো রোজগার করছেন। আর এই ক্ষেত্রটি লাভজনক হয়ে ওঠায় এখন বিনোদন জগতের অনেকেই সেদিকে ঝুঁকছেন।'

আর এখন তো নিউজ পোর্টালেও খোলা হয়েছে ইউটিউব চ্যানেল। তবে ইউটিউব চ্যানেলগুলোতে দর্শকরা মূলত বিনোদনমূলক কিংবা হালকা মেজাজের কন্টেন্ট দেখতে চায় বলে জানান সংশ্নিষ্টরা। তরুণ নির্মাতা সাইফুল আলম শামীম বলেন, 'টেলিভিশনে নাটক প্রচারের পর যখন সেটি ইউটিউবে প্রচার হচ্ছে, তখন দর্শক আর টেলিভিশনে নাটক বা টেলিছবি দেখার জন্য অপেক্ষা করছেন না। এতে করে দর্শক কিন্তু টেলিভিশন থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাচ্ছেন। টেলিভিশনের অনুষ্ঠান বিভাগই কিন্তু দর্শককে ইউটিউবের দিকে ঠেলে দিচ্ছে। ইউটিউবে নাটক প্রচারের ফলে অনেক বেশি দর্শক সেটি দেখছেন, এটা যেমন সত্য, আবার এটাও সত্য যে, দর্শক টেলিভিশনের পর্দা থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাচ্ছে। আর নির্মাতা হিসেবে আমি বলব, ইউটিউবে নাটক প্রচারের কারণে নির্মাতাদের কোনো লাভ হয় না। কারণ নাটক যখন টেলিভিশন চ্যানেলের কাছে বিক্রি করে দেওয়া হয়, তারপর পুরো বিষয়টি চ্যানেল কর্তৃপক্ষের। তারা ইউটিউবে আপলোড করে সেখান থেকেও অর্থনৈতিক সুবিধা পাচ্ছে।'

আরেক নির্মাতা ইউসুফ চৌধুরী বলেন, ইউটিউবে অর্থ উপার্জনের বিষয়টি ভিউয়ার বেশি হওয়ার ওপর নির্ভর করে। ফলে ভিডিও নির্মাণের ক্ষেত্রে 'দর্শক হিট' ব্যাপারটি মাথায় রাখতে হয়। সে কারণেই অনেক আজেবাজে ভিডিও ইউটিউবে প্রচার হচ্ছে।

নির্মাতা মাবরুর রশীদ বান্নাহ বলেন, চ্যানেলের মতো ইউটিউব হচ্ছে আরেকটি মাধ্যম। আর সে কারণেই চ্যানেল কর্তৃপক্ষ কিন্তু ইউটিউবে নাটক আপলোড করে। এতে করে টিভিতে প্রচারের সময় যারা নাটকটি দেখতে পারেননি, তারা ইউটিউবে নাটকটি দেখতে পারছেন। এতে নাটকের দর্শকসংখ্যা বাড়ছে।

'বড় ছেলে' নাটকের নির্মাতা মিজানুর রহমান আরিয়ান বলেন, 'এটা স্বীকার করতেই হবে যে, এখনও নাটক দেখার সবচেয়ে বড় মাধ্যম টিভি। পরিবারের সবাইকে নিয়ে টেলিভিশন দেখা উৎসবের মতো। কিন্তু এখন মানুষ ইউটিউবের দিকেও ঝুঁকছে। এর অন্যতম কারণ বিজ্ঞাপন।' যেহেতু দর্শক টিভি সেটের সামনে থেকে সরে গিয়ে ভার্চুয়াল বিনোদনে অভ্যস্ত হয়ে উঠছে, তাই এখন প্রশ্ন- আমাদের দেশীয় টেলিভিশনের দিন কি শেষ হচ্ছে? আমাদের দেশের টেলিভিশন দেখার যে সংস্কৃতি, তা এই মুহূর্তে সংকটে। এর পেছনে শুধু অতিরিক্ত বিজ্ঞাপন নয়; মানহীন আর ভাঁড়ামিতে ভরপুর অনুষ্ঠানও দায়ী বলে মনে করেন অনেক নাট্য ও চলচ্চিত্র নির্মাতা। ফলে দেরি না করে এখন সবাইকে সচেতন হতে হবে বলেও মনে করেন নির্মাতা ও কলাকুশলীরা।

পরবর্তী খবর পড়ুন : বাংলা দ্বিতীয় পত্র

কোটি টাকায় কেনা দীর্ঘশ্বাস

কোটি টাকায় কেনা দীর্ঘশ্বাস

ধানমণ্ডিতে সুপরিসর একটি ফ্ল্যাট কেনার উদ্যোগ নিয়েছিলেন ব্যবসায়ী আহাদুল ইসলাম। ...

বিএনপির জনসভায় আমন্ত্রণ পাচ্ছে না জামায়াত

বিএনপির জনসভায় আমন্ত্রণ পাচ্ছে না জামায়াত

বিএনপির বৃহস্পতিবারের সম্ভাব্য জনসভায় ২০ দলের শরিক জামায়াতে ইসলামীকে কৌশলগত ...

প্রধানমন্ত্রীর ফ্লাইটের ক্রুর মাদক সেবন

প্রধানমন্ত্রীর ফ্লাইটের ক্রুর মাদক সেবন

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ফ্লাইটের এক কেবিন ক্রুর মাদক সেবন ও ...

দুদককে পঙ্গু করতে চায় একটি মহল

দুদককে পঙ্গু করতে চায় একটি মহল

দুর্নীতি দমন কমিশনকে (দুদক) একটি অথর্ব প্রতিষ্ঠানে পরিণত করতে অপতৎপরতা ...

নিবর্তনমূলক ধারা বাতিল দাবি সাংবাদিক নেতাদের

নিবর্তনমূলক ধারা বাতিল দাবি সাংবাদিক নেতাদের

স্বাধীন সাংবাদিকতায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে পারে- এমন সব ধারা-উপধারা বহাল ...

ইয়াবা কারবারিরা তবু বেপরোয়া

ইয়াবা কারবারিরা তবু বেপরোয়া

মিয়ানমার থেকে নানা কৌশলে ভিন্ন ভিন্ন রুট ব্যবহার করে সারা ...

বিপিএলের কারণে রশিদকে চেনা ইমরুলের

বিপিএলের কারণে রশিদকে চেনা ইমরুলের

হুট করেই ইমরুল কায়েস এশিয়া কাপের দলে ডাক পান। এরপর ...

মৃত ব্যক্তিকে জীবিত দেখিয়ে ব্যাংক ঋণ!

মৃত ব্যক্তিকে জীবিত দেখিয়ে ব্যাংক ঋণ!

বরিশালে মৃত ব্যক্তিকে জীবিত দেখিয়ে ব্যাংক থেকে ঋণ নেওয়ার অভিযোগ ...