ঈদের চুড়ি

প্রকাশ: ০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

নীরব চন্দন

সদ্য বিবাহিত আরিফ তার বউকে যতটা না ভালোবাসে তার চেয়ে কয়েক গুণ ভয় করে। এক কথায়, বউয়ের কথায় ওঠা-বসা করে। এমনকি বাথরুমে গেলেও বউয়ের অনুমতি নিয়ে যায়। অবশ্য এসবের পেছনে তার কঠিন যুক্তি আছে। আরিফ মনে করে, 'এসব করলে বউয়ের প্রতি ভালোবাসা বাড়ে এবং ঘরে শান্তিও বজায় থাকে।' আরিফের বউয়ের একটা উল্লেখযোগ্য বৈশিষ্ট হলো, সে ম্যাচিং ছাড়া কোনো কিছুই পরে না। ঝামেলাটা বাধল এখানেই। নতুন কেনা পাঁচটা শাড়ির মধ্যে চারটা শাড়ির সঙ্গে ম্যাচিং করে চুড়ি কেনা হয়েছে। কিন্তু ভুলবশত একটা শাড়ির সঙ্গে ম্যাচিং করে চুড়ি কেনা হয়নি। এ নিয়ে আরিফের বউ মহাচিন্তায় পড়ে গেল। প্রচণ্ড টেনশনে এদিক-ওদিক ছোটাছুটি করতে লাগল। হাতে সময়ও নেই শপিংয়ে যাওয়ার। হঠাৎ তার মাথায় একটা আইডিয়া এলো। আরিফকে মার্কেটে পাঠালে কেমন হয়? যেমন ভাবনা, তেমন কাজ। আরিফকে চুড়ির কালার ও ডিজাইন ভালোভাবে বুঝিয়ে দেওয়া হলো। আরিফ বাধ্য স্বামীর মতো চুড়ি কিনতে মার্কেটে চলে গেল। আরিফ চুড়ির কালার ও ডিজাইন মতো একডজন চুড়ি পছন্দও করে ফেলল। কিন্তু চুড়ির সাইজ নিয়ে দারুণ ঝামেলায় পড়ে গেল। উল্টাপাল্টা সাইজের চুড়ি বাসায় নিয়ে গেলে বউ যে কী কাণ্ডটাই ঘটাবে, তা ভেবেই আরিফের গা শিউরে উঠল। তাই বাধ্য হয়ে ভয়ে ভয়ে আরিফ তার বউকে ফোন দিল। আরিফের বউ ঝটপট জানিয়ে দিল, 'তোমার হাতের মাপে নাও। তোমার-আমার হাতের মাপ তো একই। আর হ্যাঁ, তুমি কিন্তু চুড়ি হাতে পরেই নেবে। বুঝলে?' আরিফ হ্যাঁ-সূচক জবাব দিয়ে ফোনের লাইনটা কেটে দিল। আরিফ তার বউয়ের কথা মতো একটা চুড়ি হাতে পরল। সে খুব খুশি। সঠিক সাইজের চুড়িই পাওয়া গেছে। কিন্তু বিপত্তি ঘটল চুড়ি খোলার সময়। আরিফ অনেক চেষ্টার পরেও কিছুতেই আর তার হাত থেকে চুড়িটা খুলতে পারল না। অবশেষে সে সিদ্ধান্ত নিল, বাসায় গিয়ে চুড়িটা ভেঙে তারপর খুলবে। তাই মার্কেট থেকে বাসার দিকে রওনা দিল আরিফ। কিছুক্ষণ পর আরিফ তার আশপাশে তাকিয়ে খেয়াল করল যে, সবাই তার দিকে হাঁ করে তাকিয়ে আছে এবং হো হো হি হি করে হাসছে। আরিফ কী করবে বুঝতে না পেরে আরও জোরে জোরে হাঁটতে শুরু করল এবং নিজের হাতে পরা চুড়ি দেখে নিজেই লজ্জায় লাল হয়ে গেল।

হখিলক্ষেত, ঢাকা

পরবর্তী খবর পড়ুন : ঘরজামাই

সৌম্য থাকছেন একাদশে

সৌম্য থাকছেন একাদশে

সৌম্য সরকার কি খেলছেন? ওপেনিংয়ে কে কে খেলবেন? আফগানিস্তান ম্যাচের ...

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৯

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৯

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদকবিরোধী বিশেষ অভিযানে ৪৯ জনকে গ্রেফতার করেছে ...

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মর্যাদা সমুন্নত রাখার আহ্বান ...

মুন্সীগঞ্জে ‌‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

মুন্সীগঞ্জে ‌‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

মুন্সীগঞ্জে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আব্দুল মালেক (৪৫) নামে এক ব্যক্তি ...

ভারতের শ্বাস রুদ্ধ করে ’টাই’ আফগানদের

ভারতের শ্বাস রুদ্ধ করে ’টাই’ আফগানদের

ভারত 'বধ' করেই ফেলেছিল আফগানিস্তান। কিন্তু ম্যাচটা শেষ পর্যন্ত টাই ...

১৪ দল-বিএনপি মুখোমুখি

১৪ দল-বিএনপি মুখোমুখি

রাজনীতিতে পাল্টাপাল্টি বক্তব্য ও কর্মসূচিকে ঘিরে উত্তাপ ক্রমশ বাড়ছে। এবার ...

পল্টন-সোহরাওয়ার্দী কোনোটাই পাচ্ছে না বিএনপি

পল্টন-সোহরাওয়ার্দী কোনোটাই পাচ্ছে না বিএনপি

আগামীকাল বৃহস্পতিবার প্রথমে রাজধানীতে জনসভা করার ঘোষণা দিয়েছিল বিএনপি। ওইদিন ...

শীর্ষ চার রুশ ব্লগার বাংলাদেশে

শীর্ষ চার রুশ ব্লগার বাংলাদেশে

বাংলাদেশের পর্যটন সম্ভাবনাকে রাশিয়ার জনগণের সামনে তুলে ধরা এবং দ্বিপক্ষীয় ...