ঘরজামাই

প্রকাশ: ০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

সেঁজুতি লিমা

আমাদের এলাকার ধনী ব্যক্তিদের মধ্যে প্রথম তিনজনের একজন হচ্ছেন বারেক চাচা। এত ধন-সম্পত্তি হলে কী হবে? তা দেখাশোনা করা বা খাওয়ার তেমন কেউ নেই বারেক চাচার। কেননা বহু বছর নিঃসন্তান থাকার পর তিনি একটিমাত্র মেয়ে পারুলের বাবা হতে পেরেছেন। পারুল এখন বড় হয়েছে, দেখতে মোটেও ভালো না। নাক দেখলে মনে হয় নাকের ওপর দিয়ে কোনো এককালে ট্রাক চলে গিয়েছিল। চোখ দুটো যেন বিড়ালের চোখের চেয়েও ছোট, গায়ের রঙ কালো এবং বেঁটে। পারুল দেখতে অসুন্দর হলে কী হবে, তার বাবার অঢেল ধন-সম্পত্তি থাকার কারণে দেখতে সুন্দর ছেলেদের পক্ষ থেকে বিয়ের প্রস্তাব আসে। বারেক চাচা এসব প্রস্তাব না করে দেন। কারণ তার একমাত্র মেয়ের বিয়ে তিনি তার সঙ্গেই দেবেন, যে তার মেয়েকে বিয়ে করে তার বাড়িতেই থাকবে, যাকে সাধারণত ঘরজামাই বলা হয়! এক বার এক ছেলে পারুলকে বিয়ে করে ঘরজামাই হতে রাজি হয়েছিল। তা বারেক চাচা বিশ্বাস করতে পারছিলেন না বলে ওই ছেলেকে শর্ত জুড়ে দিয়ে বললেন, তুমি ঘরজামাই থাকতে পারবে কি-না পরীক্ষামূলক বিয়ের আগে ১৫ দিন আমার বাড়িতে থেকে দেখাও। যদি ঠিকঠাক মতো থাকতে পার তবেই তোমার সঙ্গে আমার মেয়ের বিয়ে দেব। বারেক চাচার কথা মতো ওই ছেলে থাকা শুরু করে। দশ দিনের দিন পালিয়ে যায় আর ফিরে আসেনি। অনেক দিন পরে ওই ছেলের সঙ্গে আমার এক ভাইয়ের দেখা হওয়ার পর পালানোর কথা জানতে চাইলে সে শুধু বলেছিল- ঘরজামাই হওয়ার চেয়ে ভিক্ষুক হওয়াও ভালো, এতে অন্তত সম্মান পাওয়া যায়!

যাই হোক, বারেক চাচা তার মেয়ের বিয়ে দেওয়ার জন্য ঘরজামাই খুঁজতে বিভিন্ন জায়গায় লোক লাগিয়েছেন। হঠাৎ একদিন বারেক চাচার বোন জামাই এসে জানালেন পারুলের জন্য একটা ছেলে পেয়েছেন এবং এই ছেলেই পারুলের জন্য সবচেয়ে উপযুক্ত। এ কথা শুনেই বারেক চাচা দেরি না করে তার বোন জামাইয়ের সঙ্গে ছেলেকে দেখতে যান। ছেলের বাবা নেই। মা আর ছেলের ছোট্ট সংসার, ছেলে দেখতে ভালো, সহজ-সরল- তবে গ্রামের পোলাপান ছেলেকে মজা করে বলদা মজিদ বলে ডাকে! সব দিক বিবেচনা করে বারেক চাচা ঠিক করলেন এই ছেলের সঙ্গেই তার মেয়ের বিয়ে দেবেন। তখনই বারেক চাচা দিন-তারিখ ঠিক করে ছেলের মাকে বললেন, এই বিয়েতে আপনাদের পক্ষ থেকে কোনো খরচপাতি নেই, যেখানে যা দরকার সব ব্যবস্থা আমি করব। আপনি শুধু সময়মতো আপনার ছেলেকে নিয়ে আমার বাড়িতে উপস্থিত থাকবেন।

অবশেষে, বারেক চাচার একমাত্র মেয়ে পারুলের বিয়ে সম্পন্ন হয় খুব ধুমধাম করে দশ গ্রামের লোকজনকে খাইয়ে। বিয়ে হওয়ার পর থেকে প্রতিদিন বারেক চাচার বাড়িতে আশপাশের কেউ না কেউ আসেই পারুলের বরকে দেখতে। পারুলের বর নাকি দরকার ছাড়া ঘর থেকে বের হয় না। কেউ জামাই দেখতে গেলে পারুল নিজে স্বামীকে ডেকে বাইরে এনে দেখায়। তো সেদিন বিকেলে পাশের বাসার পিঙ্কি ভাবি আমাকে বলল, চলো পারুলের বরকে দেখে আসি। ভাবলাম এমন ঘটনাবহুল বিয়ে হলো পারুলের, যাই জামাই দেখে আসি একবার। পারুলদের বাসায় গিয়ে বুঝলাম যা শুনেছিলাম তাই ঠিক, সত্যিই পারুলের বর ঘরে থাকে বেশি। আমাদের দেখে পারুল তার স্বামীকে বাইরে ডেকে এনে বলে- সারাদিন তোমাকে কত মানুষ দেখতে আসে, কুনো ব্যাঙের মতো এত ঘরকুনো স্বভাবের কেন তুমি? বাইরে বের হলে তোমাকে সাপে গিলে খাবে নাকি? জবাবে পারুলের স্বামী খানিকটা জড়সড় হয়ে বলে, কী সর্বনাশ! তবে কি ঘরজামাই থেকে এবার আমাকে বাইর জামাই হতে হবে?

পরবর্তী খবর পড়ুন : এ কল সে কল

হুমায়ূন আহমেদ সাহিত্য পুরস্কার পেলেন রিজিয়া রহমান

হুমায়ূন আহমেদ সাহিত্য পুরস্কার পেলেন রিজিয়া রহমান

'হুমায়ূন আহমেদ নেই, হুমায়ূন আহমেদ আছেন। যারা তার সাহচর্য পেয়েছিলেন, ...

আসন হারানোর শঙ্কায় জাপা

আসন হারানোর শঙ্কায় জাপা

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মহাজোটের প্রধান শরিক আওয়ামী লীগের কাছে ...

জামায়াতও ৩৫ আসনের কমে মানতে নারাজ

জামায়াতও ৩৫ আসনের কমে মানতে নারাজ

নিবন্ধন বাতিল হওয়ায় দলীয় পরিচয়ে ভোটে অংশ নেওয়ার সুযোগ নেই ...

হুমায়ূন জয়ন্তী আজ

হুমায়ূন জয়ন্তী আজ

'আমরা জানি একদিন আমরা মরে যাব, এই জন্যেই পৃথিবীটাকে এত ...

কূটনীতিকদের অসন্তোষের কথা জানাল বিএনপি

কূটনীতিকদের অসন্তোষের কথা জানাল বিএনপি

একাদশ জাতীয় নির্বাচন নিয়ে বাংলাদেশে কর্মরত কূটনীতিকদের কাছে নিজেদের অসন্তোষের ...

দেশের মানুষ এখন পরির্তন চায়: এরশাদ

দেশের মানুষ এখন পরির্তন চায়: এরশাদ

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, দেশের মানুষ এখন ...

তফসিলের পরই নির্বাচনকালীন সরকার শুরু হয়ে গেছে: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

তফসিলের পরই নির্বাচনকালীন সরকার শুরু হয়ে গেছে: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

নির্বাচনকালীন সরকারের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে কোনো ঘোষণা ...

ইভিএম থেকে পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি

ইভিএম থেকে পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে. এম. নুরুল হুদা বলেছেন, একাদশ ...