অপশক্তির বিরুদ্ধে লড়াই

প্রকাশ: ০৭ আগস্ট ২০১৮      

তাছলিমা মেহজাবিন

ফ্যান্টাসি রোল প্লেয়িং ধাঁচের ভিডিও গেমপ্রিয়দের জন্য আকর্ষণীয় গেম সিরিজ 'ডিভিনিটি'। লারিয়ান স্টুডিওস এবং ফোকাস হোম ইন্টারেক্টিভের তত্ত্বাবধানে ও লারিয়ান স্টুডিওস ব্যানারে নির্মিত গেমটির তৃতীয় সংস্করণ 'ডিভিনিটি : অরিজিনাল সিন ২'। ২০১৭ সালে অবমুক্ত গেমটি মাইক্রোসফটের উইন্ডোজ সংস্করণে খেলা যায়। তবে চলতি মাসেই গেমটির প্লে-স্টেশন ৪, এক্সবক্স ওয়ান সংস্করণ উন্মোচন করা হবে। ডিভিনিটি সিরিজের তৃতীয় সংস্করণটি বাজারে আসার পরই দারুণ সাড়া ফেলেছে। প্রথম দুই মাসেই বিক্রি হয়েছে গেমটির ১০ লাখ কপি। সংস্করণটিকে সর্বকালের সেরা রোলপ্লেয়িং গেমের মর্যাদা দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

গেমের কাহিনী :রিভিলন নামের কাল্পনিক এক গ্রহ। কল্প এ গ্রহে সাত ভয়ংকর দৈত্যের শক্তির দাপট। নিজস্ব ক্ষমতায় তারা তৈরি করে নিয়েছে তাদের অনুসারী। অনুসারীদের বলা হচ্ছে সোর্সার। সোর্সারদের ব্যবহার করে নিজেদের কব্জায় নিয়ে নিয়েছে রিভিলন নামের গ্রহটি। তারা তৈরি করেছে ত্রাসের রাজত্ব। যেন পুরো রিভিলন সাক্ষাৎ দোজখ। কেউ তাদের কথা না শুনলেই শক্তি প্রয়োগ করে মেরে ফেলা হয়। অশুভ এই শক্তির বিরুদ্ধে একাই লড়াই করেছেন লুসায়ান। তবে সাত দৈত্য মিলে নিজেদের শক্তি কিছুটা অপচয় করে লুসিয়ানকে হত্যা করে। গেম শুরুর আগেই লুসিয়ানকে মেরে ফেলা হয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে গড কিং। গ্রহটিকে বাঁচাতে গড কিং নামের দেবতা জাদুকরী শক্তির একটি দলকে রিভিলনে পাঠায়। রিসোর্সারদের দানবীয় শক্তি থেকে মুক্তি দিতে বিশেষ প্রক্রিয়ায় পুনর্বাসন করা হয়। যাদের শক্তি অপেক্ষাকৃত বেশি তাদের ধরে পাঠিয়ে দেওয়া হয় দূরের একটি দ্বীপে বানানো কারাগারে। এখানে অপশক্তির উৎস থেকে তাদের পুনর্বাসন করা হয়। গেমটিতে গেমারকে আত্মপ্রকাশ করবে রিসোর্সার হিসেবে। পাশাপাশি রিভিলনবাসীদের বাঁচাতে হবে অশুভ শক্তির হাত থেকে। ইতিমধ্যে গড কিংয়ের জাদুবিদ্যার অধিকারীদের সঙ্গে অশুভ শক্তির রিসোর্সারদের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধ শুরু হয়। গেমার শুরুতেই ব্লাক রিংয়ের সদস্য গড কিংয়ের অনুসারীদের হাতে ধরা পড়ে গেমার। তাকে পুনর্বাসনে ফর্ট জয় নামের জেলখানায় পাঠিয়ে দেওয়া হয়। তবে পথিমধ্যে তাকে বহন করা জাহাজটি আক্রমণের শিকার হয়ে ডুবে যায়। কিন্তু গেমারকে বিশেষ এক দেবতা বাঁচিয়ে জেলখানায় নিয়ে যায়। মূলত এখান থেকেই গেমারকে অশুভ শক্তি থেকে পুনর্বাসন করা হয়। এরপর গেমারকে মূল লড়াইয়ের জন্য প্রস্তুতি হতে হয়। কাল্পনিক এমন প্রেক্ষাপটে গেমারকে খেলতে হবে গেমের প্রধান চরিত্রে। এখানে একক চরিত্রে কিংবা তিনটি চরিত্র নিয়ে গেমটি খেলা যাবে। গেমটি সিঙ্গেল ও মাল্টিপ্লেয়ার উভয় মোডেই উপভোগ করতে পারবেন গেমার। তবে সিঙ্গেল প্লেয়ার মুডে গেমারকে উভয় গেম চরিত্রকে একসঙ্গে নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। আর মাল্টিপ্লেয়ার মুডে পৃথক এ দুটি চরিত্র আলাদাভাবে নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। গেমটিতে গেমারকে বিভিন্ন চরিত্রের সঙ্গে আলাপচারিতা করতে হবে। আর অন্যদের সংঘবদ্ধ করতে হবে অশুভ শক্তির বিরুদ্ধে।

গেমটিতে শত্রুপক্ষকে ধ্বংস করতে বিভিন্ন জাদুর প্রয়োগ তো রয়েছেই। থাকছে নানা রকম কৌশল এবং অস্ত্র। গেমটিতে প্রতিটি লেভেল অতিক্রমে গেমারকে বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে ধ্বংস করতে হবে শত্রু সৈন্যদলকে। রণকৌশলের প্রয়োগে শত্রুদের হত্যা করে এগিয়ে যেতেই মিলবে বোনাস পয়েন্ট। আর এ বোনাস পয়েন্ট দিয়ে আন-লক হবে গেমের নতুন লেভেল। গেমারকে সহযোগিতায় থাকছে বিশেষ ম্যাপ ব্যবস্থা। গেমে ব্যবহূত আধুনিক শব্দ-কৌশল এবং আকর্ষণীয় গ্রাফিক্সের প্রয়োগ গেমারদের মাঝে পরিপূর্ণ ত্রিমাত্রিক জগতের অনুভূতি জাগাতে সক্ষম।

প্রয়োজনীয় পিসি সিস্টেমস :ইন্টেল কোর টু ডুয়ো ই৬৬০০ ২.৪ গিগাহার্জ বা এএমডি অ্যাথলন ৬৪ এক্স টু ডুয়াল কোর ৫৬০০ প্লাস সিরিজের প্রসেসর, ৪ গিগাবাইট র‌্যাম, এনভিডিয়া জি-ফোর্স ৮৮০০ জিটিএস অথবা এএমডি র‌্যাডন এইচডি ৪৮৫০ সিরিজে ৫১২ মেগাবাইট গ্রাফিক্স কার্ড, ডাইরেক্ট এক্স-৯ এবং কমপক্ষে ৫ গিগাবাইট হার্ডডিস্ক স্পেস।

পরবর্তী খবর পড়ুন : দারুণ স্লিম ল্যাপটপ

জয়পুরহাটে লেভেল ক্রসিংয়ে অল্পের জন্য বাঁচলো ৪৮ বাস যাত্রী

জয়পুরহাটে লেভেল ক্রসিংয়ে অল্পের জন্য বাঁচলো ৪৮ বাস যাত্রী

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর পৌর এলাকার পশ্চিম আমুট্ট (মহিলা কলেজ সংলগ্ন) এলাকায় ...

সিডরে নিখোঁজের ১১ বছর পর প্রত্যাবর্তন

সিডরে নিখোঁজের ১১ বছর পর প্রত্যাবর্তন

প্রলংয়করী ঘূর্ণিঝড় সিডরে নিখোঁজের ১১ বছর পর বাড়ি ফিরেছেন শরণখোলা ...

সরকারি কাজে বাধা দেয়ায় রাবি ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতির জেল

সরকারি কাজে বাধা দেয়ায় রাবি ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতির জেল

সরকারি কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাবেক ...

আসন বণ্টনের আলোচনা চেয়ে প্রধানমন্ত্রীকে এরশাদের চিঠি

আসন বণ্টনের আলোচনা চেয়ে প্রধানমন্ত্রীকে এরশাদের চিঠি

আসন বণ্টন নিয়ে আলোচনা করতে সময় চেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ...

নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র দেশবাসী ক্ষমা করবে না: বি. চৌধুরী

নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র দেশবাসী ক্ষমা করবে না: বি. চৌধুরী

যুক্তফ্রন্টের চেয়ারম্যান ও বিকল্পধারার প্রেসিডেন্ট একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেছেন, নির্বাচন ...

মিটু আন্দোলন: যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে সোচ্চার বাংলাদেশের নারীরাও

মিটু আন্দোলন: যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে সোচ্চার বাংলাদেশের নারীরাও

যৌন নিপীড়নের শিকার যে কেউ হতে পারে। শুধু নারী ও ...

নির্বাচনকে হালকা করে দেখার সুযোগ নেই: আসাদুজ্জামান নূর

নির্বাচনকে হালকা করে দেখার সুযোগ নেই: আসাদুজ্জামান নূর

সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর বলেছেন, 'নির্বাচনকে হালকা করে দেখার কোনো সুযোগ ...

পক্ষপাতহীনভাবে নির্বাচন পরিচালনা করবে ইসি: গণপূর্ত মন্ত্রী

পক্ষপাতহীনভাবে নির্বাচন পরিচালনা করবে ইসি: গণপূর্ত মন্ত্রী

নির্বাচন কমিশন (ইসি) পক্ষপাতহীনভাবে নির্বাচন পরিচালনা করবে বলে আশা প্রকাশ ...