ফেনীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ২

প্রকাশ: ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮     আপডেট: ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফেনী

ফেনীতে র‌্যাবের সঙ্গে ‍পৃথক দুটি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার রাত ও বুধবার ভোরে এসব ঘটনা ঘটে। র‌্যাবের দাবি, নিহত দু’জনই মাদক ব্যবসায়ী। 

র‌্যার-৭ এর কোম্পানি কমান্ডার সাফায়াত জামিল ফায়িম সমকালকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মঙ্গলবার রাতের ঘটনাটি ঘটে ফেনী শহরতলীর সুলতানপুর গ্রামে। রাত ৯টার দিকে র‌্যাবের একটি দল সুলতানপুর গ্রামের কবিরের দিঘীর পাড়ে সন্ত্রাসীদের একটি আস্তানায় হানা দিলে সন্ত্রাসীরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে করে। আত্মরক্ষার্থে র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। এতে লাল সুমন (৩৬) নামের এক সন্ত্রাসী নিহত হয়। ঘটনাস্থল থেকে র‌্যাব একটি ওয়ান স্যুটার গান, একটি বিদেষি পিস্তল, একটি রিভলবার ও ৩ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করে। 

কোম্পানি কমান্ডার সাফায়াত জামিল ফায়িম বলেন, নিহত লাল সুমন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় হত্যা, নাশকতা, অস্ত্র, মাদক ও ছিনতাইসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১৪টি মামলা রয়েছে। 

অপর ঘটনা ঘটে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফেনীর লেমুয়া এলাকায়। বুধবার ভোরে সেখানে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ কবির হোসেন (৩৫) নামে এক ব্যক্তি মারা যান।

র‌্যাবের দাবি, নিহত কবির হোসেন একজন মাদক ব্যবসায়ী। র‌্যাব কবিরের কাছে থাকা এক লাখ ৮০ হাজার পিস ইয়াবা, একটি ওয়ান স্যুটার গান ও ৪ রাউন্ড গুলির খোসা উদ্ধার করেছে। 

কবির হোসেন চাঁদপুরের সাহারাস্তি থানার আদর্শ ইছাপুর গ্রামের মৃত আনোয়ার হোসেনের ছেলে।

র‌্যাব-৭ কোম্পানি কমান্ডার সাফায়াত জামিল ফাহিম বলেন, বুধবার ভোর সাড়ে ৪টার দিকে চট্টগ্রাম থেকে ঢাকাগামী একটি কাভার্ডভ্যানকে তল্লাশির জন্য থামার নির্দেশ দেওয়া হয়। কিন্তু সেটি না থেমে র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি করা শুরু করে। এর জবাবে র‌্যাবও পাল্টা গুলি করে। এ সময় মাদক ব্যবসায়ী কবির হোসেন নিহত হয়। কাভার্ডভ্যান তল্লাশি করে এক লাখ ৮০ হাজার পিস ইয়াবা, একটি ওয়ান স্যুটার গান ও ৪ রাউন্ড গুলির খোসা উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাব জানায়, লাশ দুটি ফেনী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। কাভার্ডভ্যান পুলিশ হেফাজতে দেওয়া হয়েছে। 

আরও পড়ুন

সিরাজগঞ্জে অটোরিকশা চালক খুন

সিরাজগঞ্জে অটোরিকশা চালক খুন

সিরাজগঞ্জে এক অটোরিকশা চালককে ধারালো অস্ত্র দিয়ে খুন করা হয়েছে। রোববার ...

বাদের খাতায় অন্তত ১৩ এমপি

বাদের খাতায় অন্তত ১৩ এমপি

জাতীয় পার্টি, বিকল্পধারা ও ১৪ দলের শরিকদের জন্য নির্ধারিত আসন ...

রাষ্ট্রপতির সহায়তা চেয়ে চিঠি দেবে ঐক্যফ্রন্ট

রাষ্ট্রপতির সহায়তা চেয়ে চিঠি দেবে ঐক্যফ্রন্ট

অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের পরিবেশ তৈরিতে রাষ্ট্রপতির সহায়তা চেয়ে ...

এরশাদ কোথায়

এরশাদ কোথায়

অজ্ঞাত স্থানে 'বিশ্রাম নিচ্ছেন' জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ ...

প্রার্থীর যোগ্যতা অযোগ্যতা প্রশ্নে দ্বিধায় ইসি

প্রার্থীর যোগ্যতা অযোগ্যতা প্রশ্নে দ্বিধায় ইসি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও প্রার্থী হওয়ার যোগ্যতা ও অযোগ্যতার মানদণ্ড ...

নৌকায় চড়তে চান শতাধিক ব্যবসায়ী

নৌকায় চড়তে চান শতাধিক ব্যবসায়ী

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ব্যানারে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে ...

নওয়াব ফয়জুন্নেছার বাড়ি হবে উন্মুক্ত জাদুঘর

নওয়াব ফয়জুন্নেছার বাড়ি হবে উন্মুক্ত জাদুঘর

ফয়জুন্নেছা চৌধুরাণী উপমহাদেশের একমাত্র নারী নওয়াব। কুমিল্লার লাকসাম থেকে আধা ...

আসামিকে জামিন পাইয়ে দিলেন দুদক পিপি

আসামিকে জামিন পাইয়ে দিলেন দুদক পিপি

দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) চট্টগ্রামের পিপির সুপারিশে ১৩৫ কোটি টাকা ...