তাঞ্জানিয়াকে ‘করোনামুক্ত’ ঘোষণা, ডব্লিউএইচওর উদ্বেগ

প্রকাশ: ০৯ জুন ২০২০     আপডেট: ০৯ জুন ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

আফ্রিকার দেশ তাঞ্জানিয়াকে ‘করোনাভাইরাস মুক্ত’ ঘোষণা করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট জন মাগুফুলি। বিবিসির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। স্থানীয় সময় রোববার রাজধানী দোদোমার একটি গির্জায় এ ঘোষণা দেন তিনি। বলেন, ‘ঈশ্বরের কৃপায় করোনাভাইরাস নির্মূল করা গেছে।’ তবে সরকারের এ ঘোষণায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

তাঞ্জানিয়ার সরকার ইতোমধ্যেই করোনাভাইরাস সম্পর্কিত সব ধরনের তথ্য প্রকাশ করা বন্ধ করে দিয়েছে। সর্বশেষ গত ২৯ এপ্রিল করোনাভাইরাস সম্পর্কিত তথ্য প্রকাশ করে সরকার। সরকারি ওই পরিসংখ্যান অনুযায়ী তখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ছিলেন ৫০৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের।

প্রেসিডেন্ট মাগুফুলি গত সপ্তাহে জানিয়েছিলেন, দেশের সবচেয়ে বড় শহর দার-উস-সালামের হাসপাতালগুলোতে মাত্র চার জন করোনা আক্রান্ত ভর্তি ছিলেন।

গত মাসে যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাস থেকে এক সতর্কবার্তা জারি করা হয়। তাতে বলা হয়, দার-উস-সালামের হাসপাতালগুলোতে করোনায় আক্রান্তদের উপচে পড়া ভীড় দেখা গেছে। ফলে দেশটিতে বিপুল সংখ্যক মানুষ ভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে তাঞ্জানিয়ার সরকার এ বিবৃতিকে অসত্য বলে দাবি করেছে।

তাঞ্জানিয়ার করোনা পরিস্থিতিকে অনেকেই অতিরঞ্জিত করে ব্যাখ্যা করছে বলে দাবি প্রেসিডেন্ট মাগুফুলির। এসবে কান না দিয়ে মানুষকে গির্জা ও মসজিদে গিয়ে বেশি বেশি প্রার্থনার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি, যাতে করোনাভাইরাস একেবারে ‘নির্মূল’ হয়ে যেতে পারে।

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় প্রেসিডেন্ট মাগুফুলির নীতির তীব্র বিরোধিতা করে আসছেন তাঞ্জানিয়ার বিরোধী রাজনীতিকরা।