আহত শিক্ষার্থীদের চিকিৎসা ব্যয় দেবে সরকার: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

প্রকাশ: ০২ আগস্ট ২০১৮      

সমকাল প্রতিবেদক

ফাইল ছবি

রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় আহত শিক্ষার্থীদের চিকিৎসার সব ব্যয় সরকার বহন করবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। তিনি বলেন, এমন দুর্ঘটনায় মৃত্যুর ঘটনা নিঃসন্দেহে অনাকাঙ্ক্ষিত ও দুঃখজনক। এটি এক ধরনের হত্যাকাণ্ড। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ বিষয়ে অবগত আছেন। ঘটনার পর থেকেই দোষীদের গ্রেফতার ও শাস্তি প্রদানের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ এবং আহতদের সর্বোচ্চ মানের চিকিৎসাসেবা দেওয়ার জন্য সংশ্নিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। আহত শিক্ষার্থীদের যথাযথ চিকিৎসাসেবা দেওয়া হচ্ছে। 

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে বাংলাদেশকে চীন সরকারের চিকিৎসা উপকরণ হস্তান্তর চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন। চীনা প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত জ্যাং জু। 

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এনায়েতুর রহমান প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি হাসপাতালের জন্য ৩৯ প্রকারের চিকিৎসা উপকরণ দিয়েছে চীন সরকার। আর স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সংশ্নিষ্ট বিভাগ এরই মধ্যে ওইসব চিকিৎসা উপকরণ বেশ কয়েকটি হাসপাতালে বিরতরণ করেছে। এসবের মধ্যে রয়েছে এমআরআই, সিটি স্ক্যান, মেমোগ্রাফি, এপ-রে, সি-আর্ম, ডিফ ক্যাটেগরি অব ল্যাব, ওটি, আইসিইউ ইত্যাদি উপকরণ। 

চীন সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়ে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, বাংলাদেশ-চীন মৈত্রী নতুন কিছু নয়; এ সম্পর্ক অনেক আগের। দুই দেশের কূটনৈতিক সম্পর্ক শুরু হওয়ার পর থেকে বরাবরই তা চমৎকার ছিল, ক্রমে তা আরও নিবিড় হয়েছে এবং এ সম্পর্ক সময়ের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ। রাজনৈতিক আদর্শ এবং সামাজিক ও সাংস্কৃতিক ব্যবস্থার ভিন্নতা সত্ত্বেও দুই দেশের মধ্যকার চমৎকার কূটনৈতিক সম্পর্ক একটি রোলমডেল হিসেবে স্বীকৃত। আমাদের অর্থনৈতিক উন্নয়নে, অর্থনৈতিক অবকাঠামো গড়ে তোলার ক্ষেত্রে এবং ব্যবসা-বাণিজ্য, কৃষি, শিল্প ও প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রেও চীন সহযোগিতা করে এসেছে। স্বাস্থ্য সেক্টরেও রয়েছে চীনের প্রশংসনীয় অবদান।