শিশু রাইফা হত্যা মামলায় চার চিকিৎসকের জামিন

প্রকাশ: ২৭ আগস্ট ২০১৮     আপডেট: ২৭ আগস্ট ২০১৮      

চট্টগ্রাম ব্যুরো

শিশু রাইফা- ফাইল ছবি

চট্টগ্রামের ম্যাক্স হাসপাতালে ভুল চিকিৎসা ও অবহেলায় শিশু রাইফার মৃত্যুর অভিযোগে করা হত্যা মামলায় জামিন পেয়েছেন চার চিকিৎসক।

সোমবার সকালে বাদী ও আসামিপক্ষের শুনানি শেষে চট্টগ্রাম মহানগর হাকিম আবু সালেম মোহাম্মদ নোমানের আদালত পুলিশ রিপোর্ট জমা দেওয়া পর্যন্ত তাদের এ জামিন দেয়।

জামিন পাওয়া চারজন হলেন- ম্যাক্স হাসপাতালের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডা. বিধান রায় চৌধুরী, ডা. দেবাশীষ সেনগুপ্ত, ডা. শুভ্র দেব ও হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. লিয়াকত আলী।

এ প্রসঙ্গে বাদীপক্ষের মানবাধিকার আইনজীবী ও চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম চৌধুরী সমকালকে বলেন, ‘রাইফার মৃত্যুর মামলাটি চাঞ্চল্যকর মামলা। ভুল চিকিৎসা ও অবহেলায় চিকিৎসকরা তাকে হত্যা করেছেন-সেই বিষয়গুলো আদালতে তুলে ধরে তাদের জামিন না দিয়ে কারাগারে পাঠানোর আবেদন করি। অন্যদিকে আসামিপক্ষ মামলার ধারা জামিনযোগ্য হওয়ায় তারা জামিন প্রার্থনা করেন। শুনানি শেষে আদালত পুলিশের তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়া পর্যন্ত প্রত্যেক চিকিৎসককে ১০ হাজার টাকা বন্ডে জামিন দেন।’

বাদীপক্ষের অপর আইনজীবী চট্টগ্রাম বিভাগীয় স্পেশাল পিপি মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘আদালত জামিন আদেশ পড়ে শুনানোর সময় আবেগ জড়িত কন্ঠে বলেন, শিশু রাইফা আমার মেয়ে। তার মৃত্যুর সংবাদ দেখে ও শুনে আমিও কেঁদেছি। এ মৃত্যুতে আমি নিজেও ব্যথিত। মনে হয়েছে যেন আমার শিশু কন্যা মারা গেছে। মামলার ধারাগুলো যেহেতু জামিনযোগ্য। তাই আসামিরা জামিন পাওয়ার অধিকার রাখেন। তাদের জামিন দেওয়া হলো। এছাড়া আসামিরা হাইকোর্ট থেকেও জামিন নিয়েছিলেন।’

গত ২০ জুলাই চট্টগ্রাম নগরের ম্যাক্স হাসপাতালে অব্যবস্থাপনা ও চিকিৎসকের অবহেলায় শিশু রাইফা খানের মৃত্যুর অভিযোগ এনে তার বাবা সাংবাদিক রুবেল খানের করা এজাহারটি মামলা হিসেবে রেকর্ড করে চকবাজার থানা পুলিশ।

চকবাজার থানায় মামলার পর ৩০ জুলাই উচ্চ আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেছিলেন অভিযুক্ত এই চার চিকিৎসক। উচ্চ আদালত এসময় তাদের চার সপ্তাহের জামিন দেন।

রোববার (২৬ আগস্ট) উচ্চ আদালতের জামিনের মেয়াদ শেষ হলে সোমবার চট্টগ্রামের আদালতে আত্মসমর্পণ করেন অভিযুক্ত চার চিকিৎসক জামিন আবেদন করেন।

গত ২৯ জুন রাতে নগরের বেসরকারি ম্যাক্স হাসপাতালে ভুল চিকিৎসা ও অবহেলায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন সাংবাদিক রুবেল খানের মেয়ে রাইফা খান।

ওই দিন রাতেই এ জন্য অভিযুক্ত ডাক্তার এবং নার্সদের আটক করে চকবাজার থানা পুলিশ। কিন্তু ভোর রাতে তাদের ছাড়িয়ে আনতে থানায় গিয়ে অশোভন আচরণ এবং চট্টগ্রামে চিকিৎসাসেবা বন্ধের হুমকি দেন বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) চট্টগ্রাম শাখার সাধারণ সম্পাদক চিকিৎসক ফয়সল ইকবাল চৌধুরী ও তার সহযোগীরা।

রাইফার মৃত্যুর পর চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন আজিজুর রহমান সিদ্দিকীকে প্রধান করে ৩ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। ৬ জুলাই প্রকাশিত প্রতিবেদনে চিকিৎসক ও অবহেলায় রাইফার মৃত্যু হয়েছে বলে উল্লেখ করে তদন্ত কমিটি। অভিযুক্ত চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ করা হয়।

এছাড়া স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে গঠিত তদন্ত কমিটি ম্যাক্স হাসপাতালের লাইসেন্সে ত্রুটিসহ ১১টি অসঙ্গতি রয়েছে বলে জানানো হয়।

গত ৮ জুন ম্যাক্স হাসপাতালে ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলমের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করে।

চট্টগ্রাম পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের অর্থ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী বলেন, চিকিৎসকদের জামিনের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে শুনানিতে আমরা আদালতে রাইফার মৃত্যুর ঘটনার বিস্তারিত ব্যাখা দিই। তারা কথায কথায় রোগীদের জিম্মি করে নগরের সব প্রাইভেট হাসপাতাল ও ক্লিনিক বন্ধ করে দেয়। যা মেনে নেওয়া কঠিন। বিষয়গুলো আমরা আদালতে তুলে ধরে জামিনের বিরোধিতা করি।

আসামিপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট রানা দাশগুপ্ত, সম্ভু প্রসাদ বিশ্বাস, খোরশেদ আলম চৌধুরী, রনি কুমার দে।

আরও পড়ুন

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে র‌্যাবের অভিযান, আটক ১

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে র‌্যাবের অভিযান, আটক ১

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ১৫টি বাড়িতে অভিযান চালিয়ে একজনকে ...

বদির তিন ভাই 'সেফহোমে'

বদির তিন ভাই 'সেফহোমে'

স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পণে ইচ্ছুক ইয়াবাকারবারিরা এখন কক্সবাজারে পুলিশ হেফাজতে এক ধরনের ...

প্রবৃদ্ধির প্রথম সারিতে থাকবে বাংলাদেশ

প্রবৃদ্ধির প্রথম সারিতে থাকবে বাংলাদেশ

চলতি বছর বিশ্বের যেসব দেশে ৭ শতাংশ বা এর বেশি ...

পেশা পাল্টাচ্ছে পাঁচুপুরের কামার কুমার জেলেরা

পেশা পাল্টাচ্ছে পাঁচুপুরের কামার কুমার জেলেরা

কামারপাড়া। ভেবেছিলাম পাড়ায় ঢুকতেই হাঁপর আর লোহা পেটানোর শব্দ শোনা ...

স্বেচ্ছাশ্রমে ১০ কিলোমিটার রাস্তা

স্বেচ্ছাশ্রমে ১০ কিলোমিটার রাস্তা

'দশে মিলে করি কাজ, হারি জিতি নাহি লাজ'- এ প্রবাদটিকে ...

এমএম কলেজে নির্বাচনে বাধা গঠনতন্ত্র

এমএম কলেজে নির্বাচনে বাধা গঠনতন্ত্র

গঠনতন্ত্রের 'সামান্য বাধা'য় দেয়াল উঠেছে যশোর সরকারি মাইকেল মধুসূদন কলেজ ...

ক্রমেই বড় হচ্ছে একুশে বইমেলা

ক্রমেই বড় হচ্ছে একুশে বইমেলা

ক্রমে বিকশিত হচ্ছে প্রকাশনা শিল্প। সেইসঙ্গে প্রকাশকের সংখ্যাও বাড়ছে প্রতিবছর। ...

এক কেজি চালের দামে এক মণ ফুলকপি

এক কেজি চালের দামে এক মণ ফুলকপি

বগুড়ায় শীতকালীন সবজির বাম্পার ফলন হলেও দাম পাচ্ছেন না চাষিরা। ...