রাজনৈতিক সমালোচনায় ভদ্রতা বজায় রাখুন: তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশ: ১৬ জুন ২০১৯     আপডেট: ১৬ জুন ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

ফাইল ছবি

রাজনৈতিক সমালোচনায় ভব্যতা-ভদ্রতা বজায় রাখতে বিরোধী দলগুলোর রাজনীতিকদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। রোববার সচিবালয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ কথা বলেন। 

২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটকে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতা মাহমুদুর রহমান মান্না 'ফোর-টোয়েন্টি বাজেট' বলার বিষয়ে সাংবাদিকরা মন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করলে তথ্যমন্ত্রী বলেন, মাহমুদুর রহমান মান্না যে ভাষায় সমালোচনা করেছেন, তা শুনে আমি প্রার্থনা করি যে, বারবার দলবদল করার কারণে তাকে যেন কেউ 'ফোর-টোয়েন্টি রাজনীতিবিদ' না ভাবেন।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, সমগ্র বিশ্ব বলছে, বিশ্বব্যাংক বলছে, বাংলাদেশ এগিয়ে গেছে আর ১০ বছর ধরে সিপিডি ও বিএনপি একই বক্তব্য, গৎবাঁধা সমালোচনা করে আসছে। সিপিডির গবেষণা কি বিশ্বব্যাংকের চেয়েও ভালো! গত বছর তো বিএনপি বাজেট দেওয়ার আগেই প্রতিক্রিয়া দিয়ে দিয়েছিল, এ বছর অবশ্য পরে দিয়েছে। এমন নিরর্থক সমালোচনা না করে আমি তাদের বলব, অর্থবহ সমালোচনা করে যুক্তিতর্কের মাধ্যমে দেশকে এগিয়ে নিতে। আর রাজনৈতিক সমালোচনায় ভব্যতা-ভদ্রতা বজায় রাখতে।

তিনি আরও বলেন, বিএনপি ও সিপিডির কাছে আমার প্রশ্ন, গত ১০ বছরে দেশটা কীভাবে এগোল? দারিদ্র্যসীমা অর্ধেকে কীভাবে এলো? মানুষের মাথাপিছু আয় সাড়ে তিনগুণ কীভাবে বাড়ল? শুধু তাই নয়, গত ১০ বছর ধরে শেখ হাসিনার সরকারের বাজেট বাস্তবায়নের হার ৯৫ শতাংশ। উন্নয়ন বাজেট বাস্তবায়নের হারও ৯০ থেকে ৯৫ শতাংশ, যা বাজেট বাস্তবায়নে সরকারের সক্ষমতার পরিচায়ক।

এ বছরের বাজেট কেমন- তা জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, প্রস্তাবিত বাজেট একটি চমৎকার বাজেট। এটি শিল্প ও ব্যবসাবান্ধব বাজেট, যাতে কর্মসংস্থান ও করদাতার সংখ্যা বাড়বে। 

গণফোরামের 'গণতান্ত্রিক উপায়ে সরকার পরিবর্তনের আন্দোলনের' হুঁশিয়ারি বিষয়ে জানতে চাইলে তথ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, আমি গণফোরাম সভাপতিকে বলব, তার নিজের দলের ঐক্যই আগে ধরে রাখার চেষ্টা করতে। কারণ অনেকেই সেখান থেকে চলে যাচ্ছে। তার দলই যদি ঠিক না থাকে, আন্দোলন করবেন কীভাবে! 

এ সময় তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান, তথ্য সচিব আবদুল মালেক, ডিবিসি২৪ টিভি চ্যানেলের চেয়ারম্যান ইকবাল সোবহান চৌধুরীসহ মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।