জি কে শামীম ও খালেদের বিরুদ্ধে চার্জশিট গ্রহণ

প্রকাশ: ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২০     আপডেট: ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২০   

আদালত প্রতিবেদক

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

মাদকের মামলায় বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা জি কে শামীম এবং যুবলীগের ঢাকা মহানগর দক্ষিণের বহিষ্কৃত সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) গ্রহণ করেছেন আদালত। ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ সোমবার আসামিদের উপস্থিতিতে চার্জশিট গ্রহণ করেন। 

জি কে শামীমের মামলাটি ৮ম অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতে চার্জ শুনানির জন্য আগামী ২৩ মার্চ দিন ধার্য করা হয়। পাশাপাশি খালেদের বিরুদ্ধে মামলাটি আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি চার্জ শুনানির জন্য দিন ধার্য করে ঢাকার তৃতীয় অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতে বদলির আদেশ দেন। গত ২৩ নভেম্বর জি কে শামীমের বিরুদ্ধে এবং ১৭ নভেম্বর খালেদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দেয়া হয়।

গত বছরের ২০ সেপ্টেম্বর গুলশানের নিকেতনে নিজ কার্যালয় থেকে জি কে শামীমকে সাত দেহরক্ষীসহ আটক করে র‌্যাব। এর আগে ১৮ সেপ্টেম্বর রাতে গুলশানের বাসা থেকে খালেদ মাহমুদকে গ্রেপ্তার করা হয়। দুদক তাদের বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে মামলা দায়ের করেছে। বর্তমানে তারা কারাগারে আছেন।

সম্রাটের স্বাস্থ্যগত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ : বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের বহিস্কৃত সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী সম্রাটের স্বাস্থ্যগত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

উন্নত চিকিৎসার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ সোমবার এ আদেশ দেন। সম্রাটের পক্ষে আফরোজা শাহনাজ পারভীন হীরা এ আবেদন করেন।

এদিকে, সম্রাটের বিরুদ্ধে র‌্যাবের করা অস্ত্র ও মাদক আইনের মামলায় চার্জশিট গ্রহণের দিন ধার্য ছিল গতকাল। কিন্তু সম্রাট অসুস্থ থাকায় এদিন তাকে আদালতে হাজির করেনি কারা কর্তৃপক্ষ। এ জন্য আগামী ২৫ মার্চ চার্জশিট গ্রহণের নতুন দিন ধার্য করেন আদালত। মাদক মামলায় সম্রাটের পাশাপাশি তার সহযোগী এনামুল হক আরমানও আসামি।