গণহত্যা ও স্বাধীনতা দিবসে উন্মুক্ত স্থানে অনুষ্ঠান নয়: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশ: ১১ মার্চ ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল- ফাইল ছবি

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল- ফাইল ছবি

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, করোনাভাইরাসের ঝুঁকি এড়াতে আগামী ২৫ মার্চ গণহত্যা ও ২৬ মার্চ স্বাধীনতা দিবসের সব ধরনের গণজমায়েত নিরুৎসাহিত করা হয়েছে। এ ছাড়া জাতীয় স্মৃতিসৌধের অনুষ্ঠানও সীমিত করা হবে। উন্মুক্ত স্থানে স্বাধীনতা দিবসের বড় ধরনের অনুষ্ঠান করা যাবে না। ২৫ মার্চ গণহত্যা দিবস উপলক্ষে রাত ৯টা থেকে ৯টা ১ মিনিট পর্যন্ত এক মিনিটের জন্য সারাদেশে আলো নিভিয়ে ব্ল্যাকআউট কর্মসূচি পালন করা হবে।

বুধবার সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত সভা শেষে তিনি এসব কথা বলেন। সভায় জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব মোস্তাফা কামাল উদ্দিন, সুরক্ষা সেবা বিভাগের সচিব শহিদুজ্জামানসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ২৬ মার্চ স্টেডিয়ামসহ সারাদেশে শিশু সমাবেশ হবে কিনা সে সিদ্ধান্ত নেবে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়। এ ছাড়া স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের অনুষ্ঠান করতে চাইলে তা করতে হবে ইনডোরে। তিনি বলেন, স্বাধীনতা দিবসে সারাদেশে আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে সাভার স্মৃতিসৌধসহ বিভিন্ন স্থানে স্বাধীনতা দিবস উদযাপনে উন্মুক্ত অনুষ্ঠান ও জনসমাবেশ নিরুৎসাহিত করা হয়েছে। সীমিত আকারে অনুষ্ঠান পালিত হবে। সারাদেশে একই সময়ে যাতে তোপধ্বনি করা হয় সে জন্য মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রণালয়কে অনুরোধ জানানো হবে।

সভা শেষে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের কর্মচারীদের জন্য রেশন কার্ড চালু করা হয়। এ সময় কর্মচারীদের মধ্যে প্রতীকী রেশন কার্ড বিতরণ করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।