করোনা ঠেকাতে আরও উদ্যোগের আহ্বান প্রবাসী শিক্ষক শিক্ষার্থী ও গবেষকদের

প্রকাশ: ২৮ মার্চ ২০২০     আপডেট: ২৮ মার্চ ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

করোভাইরাসের সব বন্ধ থাকায় কাজ হারিয়েছেন শ্রমজীবী মানুষেরা-সংগৃহীত ছবি

করোভাইরাসের সব বন্ধ থাকায় কাজ হারিয়েছেন শ্রমজীবী মানুষেরা-সংগৃহীত ছবি

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে দ্রুত আরও প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন প্রবাসে অবস্থানরত বাংলাদেশি শিক্ষক শিক্ষার্থী ও গবেষকরা।

বিবৃতিতে বলা হয়, করোনা রোধে ঢাকাসহ সারাদেশে জেলা-উপজেলা পর্যায়ে পর্যাপ্ত রোগ-নির্ণয় কিট, নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র এবং ভেন্টিলেটরের ব্যবস্থা করা উচিত। করোনার উপসর্গ উপস্থিতি হওয়া থেকে শুরু করে চিকিৎসা, পরিচর্যা এবং মৃত-ব্যক্তিদের সৎকারসহ সমস্থ প্রক্রিয়ার সহজবোধ্যভাবে গাইডলাইন আকারে প্রকাশ ও প্রচার নিশ্চিত করা দরকার।  

চিকিৎসক, নার্সসহ সকলের ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রীসহ পর্যাপ্ত নিরাপত্তা সামগ্রী অগ্রাধিকার ভিত্তিতে নিশ্চিত করা উচিত। এছাড়াও যেসব স্বেচ্ছাসেবক, মাঠকর্মী, এবং কর্মচারী মাঠপর্যায়ে কাজ করবে তাদেরও নিরাপত্তা দেওয়া উচিত। এ কাজে স্বেচ্ছাসেবক বাহিনীকে প্রস্তুত করা ও তাদের কাজের মধ্যে সমন্বয় সাধন করা দককার।

শ্রমিক,কর্মজীবিসহ নিম্নবিত্ত মানুষদের জন্য আপদকালীন সময়ে বিনামূল্যে খাদ্যশস্য বিতরণ করা প্রয়োজন।একইসাথে কঠোরভাবে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদির দাম নিয়ন্ত্রণ করা উচিত। করোনায় আক্রান্ত রোগী যাতে কোন ধরনের সামাজিক হয়রানি ও বৈষম্যের শিকার না হয় তাও নিশ্চিত করা দরকার।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়,  সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিদের দিয়ে করোনা মোকাবেলার প্রচার-প্রচারণা চালানো উচিত। মানুষেরর মধ্যে আস্থা অর্জন ও দ্রুততার সাথে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য তথ্য আদান- প্রদানের সমস্ত বাধা দূর করা দরকার।  বিজ্ঞপ্তি।

বিষয় : করোনা গবেষক