দূষিত বাতাসের শহরের তালিকায় চতুর্থ খারাপ অবস্থানে উঠে এসেছে রাজধানী ঢাকা। এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্সে (একিউআই) মঙ্গলবার সকাল ৯টা ৮ মিনিটে জনবহুল এ শহরের স্কোর ছিল ১০১। 

এ রকম বাতাসের মান নগরীতে বসবাসকারী ‘সংবেদনশীল মানুষদের জন্য অস্বাস্থ্যকর’ বলে নির্দেশ করে। খবর ইউএনবির

একিউআই স্কোর ১০১ থেকে ১৫০ হলে শিশু, বয়স্ক ও অসুস্থ রোগীরা স্বাস্থ্যঝুঁকিতে পড়তে পারেন। তবে, এ পরিস্থিতিতে সাধারণ জনগণের স্বাস্থ্যঝুঁকিতে পড়ার সম্ভাবনা কম।

ইন্দোনেশিয়ার জার্কাতা, দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানেসবার্গ এবং ভারতের দিল্লি যথাক্রমে ১৮৩, ১৫৬ ও ১৫৬ স্কোর নিয়ে এ তালিকার শীর্ষ তিনে রয়েছে।

প্রতিদিনের বাতাসের মান নিয়ে তৈরি করা একিউআই সূচক একটি নির্দিষ্ট শহরের বাতাস কতটুকু নির্মল বা দূষিত সে সম্পর্কে মানুষকে তথ্য দেয় এবং তাদের জন্য কোন ধরনের স্বাস্থ্য ঝুঁকি তৈরি হতে পারে তা জানায়।

বাংলাদেশে একিউআই নির্ধারণ করা হয় দূষণের পাঁচটি ধরনকে ভিত্তি করে- বস্তুকণা (পিএম১০ ও পিএম২.৫), এনও২, সিও, এসও২ এবং ওজোন (ও৩)।

গ্রীষ্মমণ্ডলীয় মৌসুমি জলবায়ুর কারণে বাংলাদেশে ঋতু পরিবর্তনের সাথে সাথে বৃষ্টিপাত, উচ্চ তাপমাত্রা এবং আর্দ্রতায় বৈচিত্র্য দেখা যায়।

জনবহুল ঢাকা দীর্ঘদিন ধরেই দূষিত বাতাস নিয়ে হিমশিম খাচ্ছে। তবে মধ্য জুন থেকে বৃষ্টিপাত শুরুর পর বাতাস পরিষ্কার হতে আরম্ভ করে। আর জুন থেকে অক্টোবর পর্যন্ত বর্ষার মৌসুমে বাতাসের মান মোটামুটি গ্রহণযোগ্য থাকে।