অনলাইনে আঞ্চলিক জীববিজ্ঞান উৎসব সোমবার, সারাদেশে মক টেস্ট অনুষ্ঠিত

প্রকাশ: ১৮ জুলাই ২০২০     আপডেট: ১৯ জুলাই ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

করোনাকালে এবার অনলাইনে অনুষ্ঠিত হচ্ছে বিডিবিও-সমকাল বাংলাদেশ জীববিজ্ঞান উৎসব। প্রতিযোগীদের অনলাইন পদ্ধতির সঙ্গে পরিচিত করাতে শনিবার সন্ধ্যা সোয়া ৭টা থেকে ৮টা পর্যন্ত সারাদেশে একযোগে এ মক টেস্ট অনুষ্ঠিত হয়।

অনলাইনে আঞ্চলিক উৎসব ২০ জুলাই সোমবার ও জাতীয় উৎসব ২৪ জুলাই শুক্রবার অনুষ্ঠিত হবে। এরপর ভার্চুয়াল বায়োক্যাম্পের মাধ্যমে চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত হবেন বাংলাদেশের চার প্রতিযোগী।

চূড়ান্তভাবে বিজয়ী চার শিক্ষার্থী আগামী ১১-১২ আগস্ট অনুষ্ঠেয় অনলাইন আন্তর্জাতিক জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড ’আইবিও চ্যালেঞ্জে’ বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করবেন। আয়োজক বাংলাদেশ জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড কমিটি ও সমকাল এবং উৎসব সহযোগী হিসেবে আছে কথাপ্রকাশ, ল্যাব বাংলা ও ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অব বায়োটেকনোলজি।

সার্ভার ত্রুটির কারণে অনেকে ১৩ জুলাই আয়োজিত মক টেস্ট দিতে পারেননি। মূল পরীক্ষার আগে শিক্ষার্থীদের অনলাইন পরীক্ষা ব্যবস্থার সাথে পরিচিত করার লক্ষ্যে এবং সিস্টেমের সক্ষমতা যাচাইয়ের জন্য সারাদেশে আবারও একযোগে মক টেস্ট অনুষ্ঠিত হয়েছে। সিস্টেম রিসেট করে রোববার সন্ধ্যা সোয়া ৭টা থেকে থেকে ৮টা পর্যন্ত আয়োজিত এ মহড়ায় সহস্রাধিক শিক্ষার্থী অংশ নেন। যেহেতু পরীক্ষা পদ্ধতির সাথে পরিচয় ঘটানোর উদ্দেশ্যে নেওয়া হচ্ছে, সেহেতু মক টেস্টের ফল প্রকাশ করা হবে না।

আঞ্চলিক উৎসব ২০ জুলাই সকাল সোয়া ১১টা থেকে শুরু হয়ে বেলা ১২টায় শেষ হবে। ইন্টারনেট সংযুক্ত যেকোনো ডিভাইসে পরীক্ষা দেওয়া যাবে। হাতে রাখতে হবে আঞ্চলিক পর্যায়ের প্রবেশপত্র। যেসব অঞ্চলে এবছর আঞ্চলিক উৎসব হয়নি সেসব অঞ্চলের সকল রেজিস্টার্ড প্রতিযোগী এতে অংশ নিতে পারবেন। এবারের অফলাইন অলিম্পিয়াডে অনুত্তীর্ণরাও এতে অংশ নিতে পারবেন। তবে যারা জাতীয় পর্যায়ের জন্য অফলাইনে ইতোমধ্যে নির্বাচিত তারা সরাসরি ২৪ তারিখে অনুষ্ঠিতব্য জাতীয় উৎসবে অংশ নেবেন।

পরীক্ষার আগে বা সময় পেরিয়ে যাওয়ার পরে পরীক্ষার লিংকে লগইন করার চেষ্টা করা, পরীক্ষা চলাকালে পূর্ববর্তী প্রশ্নে যাওয়ার চেষ্টা করা, স্ত্রিনশট নেওয়ার চেষ্টা করা, পরীক্ষার সাইট বাদে অনলাইনে বা অফলাইনে কিছু দেখা বা খোঁজা, ইচ্ছাকৃতভাবে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা, একই সাথে একাধিক ডিভাইস থেকে একই অ্যাকাউন্টে লগইন করার চেষ্টা করা, সাইটের সোর্স কোড খোঁজা ইত্যাদি কাজ করলে পরীক্ষা দিতে সমস্যা হতে পারে কিংবা আপনার পরীক্ষা বাতিল হতে পারে।

সব উত্তর দেওয়ার আগে সময় শেষ হয়ে গেলে বা অসময়ে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেলে বা কোনো ত্রুটি দেখালে পরীক্ষার্থী যতটুকু উত্তর দিতে পেরেছেন তা স্বয়ংক্রিভাবে সিস্টেমে জমা হবে। পরীক্ষার সময় শেষ হওয়ার আগে পুনরায় সংযোগ স্থাপিত হলে বা রিফ্রেশ করলে কিংবা আবার লগ ইন করলে শেষ যে প্রশ্নে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়েছিল সেখান থেকে উত্তর দিতে থাকতে পারবেন। অনেক সময় কোনো একটা ইন্টারনেট সেবাদাতার সিস্টেম থেকে কোনো ওয়েবসাইট বন্ধ দেখাতে পারে যদিও তা আসলে চালু; সেটা অনলাইন পরীক্ষার ক্ষেত্রেও ঘটতে পারে। তখন সেই সার্ভিসের বদলে অন্য ইন্টারনেট সার্ভিস ব্যবহার করলে সমস্যার সমাধান হতে পারে; যেমন: ব্রডব্যান্ডের বদলে মোবাইল ইন্টারনেট কিংবা একটি মোবাইল ক্যারিয়ারের বদলে অন্য ক্যারিয়ার। তাছাড়া বিনামূল্যে ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক (যেমন: Browsec) ব্রাউজার অ্যাড-অন বা মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করেও এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

কোন ইন্টারনেট সার্ভিস বা ডিভাইস ব্যবহার করে পরীক্ষার্থী সবচেয়ে সহজে পরীক্ষার লিংকটি দেখতে পান সেটা আগেই যাচাই করে নির্দিষ্ট রাখতে হবে; কারণ অনলাইনে পরীক্ষা চলাকালে অতিরিক্ত সময় পাবেন না কেউ। সময় সবার জন্য একসাথে শুরু হয়ে একসাথে শেষ হবে; কে কখন শুরু করলেন তার উপর নির্ভর করবে না।

সিস্টেম রিসেট করার কারণে ১৩ তারিখের পর পরীক্ষার লিংক পরিবর্তন হয়েছে। নতুন লিংক: https://bdbo-exam.azurewebsites.net/ পরীক্ষা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে: bdbo.org/reg পরীক্ষার সাইট সংক্রান্ত অভিযোগ জানাতে: tarikseu@gmail.com।