করোনাকালে বেকার হয়ে দেশে ফেরা নারী কর্মীদের সহায়তা করবে বহুজাতিক সংস্থা ইউনিলিভার। শনিবার উদ্বোধন করা এ প্রকল্পের আওতায় ১০ জেলায় নারী কর্মীদের জরুরি খাদ্য সহায়তা ও স্বাস্থ্য সুরক্ষাসামগ্রী প্রদান করা হবে।

ইউএন উইমেন, জাপান সরকার এবং ইউনিলিভার বাংলাদেশের সহায়তায় চালু করা এই প্রকল্পটি প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় এবং সংশ্নিষ্ট অংশীজনদের মাধ্যমে বাস্তবায়ন করা হবে। 

শনিবার ইউএন উইমেনের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ নারী শ্রমিক কেন্দ্র এবং বাদাবন সংঘ নামক দু'টি নারী অধিকার সংস্থা হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর, ঢাকা মহানগর, মানিকগঞ্জ, কেরানীগঞ্জ, নরসিংদী, রাজবাড়ী, যশোর, বাগেরহাট, সিলেট, হবিগঞ্জ, পটুয়াখালী ও জামালপুর জেলায় প্রকল্প বাস্তবায়ন করবে।

প্রকল্পের আওতায় বিদেশ ফেরত ৪০০ জন নারী কর্মী 'ডিগনিটি প্যাকেজ' পাবেন। এ প্যাকেজে মাস্ক ছাড়াও হাত ধোয়ার সাবান, গুঁড়া সাবান এবং প্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী থাকবে। এছাড়াও ১০ হাজার নারী কর্মীকে দু'টি মাস্ক, হাত ধোয়া সাবান, গুঁড়া সাবান, শ্যাম্পু, টুথপেস্ট সহ দরকারী স্বাস্থ্য সুরক্ষা পণ্যসামগ্রী দেওয়া হবে। মানিকগঞ্জে ৩০ নারী কর্মী মাস্ক তৈরির প্রশিক্ষণসহ সেলাই মেশিন দেওয়া হবে। ১০০ জনকে কাজের বিনিময়ে টাকা দেওয়া হবে।

প্রকল্পের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রবাসী কল্যাণ সচিব ড. আহমেদ মুনিরুস সালেহীন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএমইটি'র এর মহাপরিচালক মো. শামসুল আলম; ইউএন উইমেন বাংলাদেশের অফিসার ইনচার্জ মিস দিলরুবা হায়দার এবং ইউনিলিভার বাংলাদেশের লিগ্যাল ডিরেক্টর রাশেদুল কাইয়ুম।