বিদেশে পাচার করে এবি ব্যাংকের ২৩৬ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যানসহ ২৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। 

বৃহস্পতিবার দুদক উপপরিচালক মো. জাহাঙ্গীর আলম, সহকারী পরিচালক নারগিস সুলতানা ও জেসমিন আক্তার বাদী হয়ে কমিশনের ঢাকা-১ কার্যালয়ে মামলাগুলো করেন।

জানা গেছে, আসামির তালিকায় ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান এম ওয়াহিদুল হক, নয়জন পরিচালকসহ ২৩ জনের নাম রয়েছে। তিনটি মামলাতেই এই ২৩ জনের নাম রয়েছে।

এজাহারে বলা হয়, অফশোর ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে এবি ব্যাংকের ২৩৬ কোটি টাকা দুবাই ও সিঙ্গাপুরে পাচার করে আত্মসাৎ করা হয়েছে। এর মধ্যে উপপরিচালক মো. জাহাঙ্গীর আলম বাদী হয়ে ১৬০ কোটি ৮০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ২১নং মামলা দায়ের করেন। 

সহকারী পরিচালক নারগিস সুলতানা বাদী হয়ে ৬০ কোটি ৪০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ২২নং মামলা দায়ের করেন। এ ছাড়া সহকারী পরিচালক জেসমিন আক্তার বাদী হয়ে ১৪ কোটি ৮৮ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ২৩নং মামলাটি দায়ের করেন।

আসামিরা অফশোর ব্যাংকিংয়ের নামে তথাকথিত এলসির বিপরীতে সর্বমোট ২৩৬ কোটি ৮ লাখ টাকা পাচার করে আত্মসাৎ করেছেন। এবি ব্যাংকের অফশোর ব্যাংকিং ইউনিটের গ্রাহক সিম্যাটসিটি জেনারেল ট্রেডিং এলএলসি, এটিজেড কমিউনিকেশন লিমিটেড ও ইউরো কারস হোল্ডিং প্রাইভেট লিমিডেটকে ব্যবহার করে দুবাই ও সিঙ্গাপুরে ঋণের নামে ওই পরিমাণ অর্থ পাচার করা হয়।

তিন নম্বর মামলার ২৩ আসামি হলেন- এবি ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান এম ওয়াহিদুল হক, ব্যাংকের পরিচালক ফিরোজ আহমেদ, সাবেক পরিচালক এম এ আউয়াল, ফাহিম উল হক, ড. মো. ইমতিয়াজ হোসেন, সৈয়দ আফজাল হাসান উদ্দিন, শিশির রঞ্জন বোস, বি বি সাহা রায়, জাকিয়া এস আর খান ও মো. মেজবাউল হক; বাকি ১৩ আসামি হলেন- ব্যাংকের ডিএমডি ও হেড অব অপারেশন সাজ্জাদ হোসেন, সাবেক ইভিপি ও হেড অব আইসিসিডি মো. শাহজাহান, ইভিপি ও হেড অব আইসিসিডি মো. আমিনুর রহমান, সাবেক ইভিপি সরফুদ্দিন আহমেদ, ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. শাহজাহান, সিনিয়র প্রিন্সিপাল অফিসার আরিফ নেওয়াজ, সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. সালাহ উদ্দিন, অ্যাসিস্ট্যান্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট কাজী আশিকুর রহমান, সাবেক ইভিপি কাজী নাসিম আহমেদ, সাবেক এসইভিপি ও হেড অব বিজনেস আবু হেনা মোস্তফা কামাল, সাবেক এসইভিপি ও হেড অব বিজনেস সালমা আক্তার, সাবেক ডিএমডি ও ক্রেডিট কমিটির প্রধান মশিউর রহমান, সাবেক এমডি ও ক্রেডিট কমিটির প্রেসিডেন্ট শামীম আহমেদ চৌধুরী ও ব্যবসায়ী এ এন এম তায়েবু রশীদ।


বিষয় : দুদক মামলা এবি ব্যাংক

মন্তব্য করুন