দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) থেকে আবারও নির্দোষ ব্যক্তির বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল ও সাজার ঘটনায় ক্ষোভ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। 

এ ঘটনা উদ্ঘাটনের পর দুদকের 'সরল বিশ্বাসের' ব্যাখ্যাকে দায় এড়ানোর অর্থহীন প্রয়াস আখ্যা দিয়ে সংশ্লিষ্টদের কঠোর জবাবদিহি নিশ্চিতের মাধ্যমে দুদককে প্রাতিষ্ঠানিক গ্রহণযোগ্যতা অর্জনের চেষ্টা করার আহ্বান জানিয়েছে সংগঠনটি।

বুধবার এক বিবৃতিতে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান এই আহ্বান জানান।

বিবৃতিতে বলা হয়, ভুল তদন্তের মাধ্যমে জালিয়াতি মামলায় মোহাম্মাদ কামরুল ইসলামের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল ও সাজার ঘটনায় উচ্চ আদালতে ভুল স্বীকার এবং মামলার এজাহার থেকে তদন্তের 'সকল পর্যায়ে ভুল হয়েছে' মর্মে দুদকের পক্ষে তার আইনজীবীর স্বীকারোক্তিই প্রমাণ করে, প্রতিষ্ঠান হিসেবে দুদকের পেশাদারিত্ব দুর্বলতা ও অদক্ষতায় ভরা।

এর আগে নির্দোষ পাটকল শ্রমিক জাহালমের সাড়ে তিন বছর সাজা খাটার ঘটনা তুলে ধরে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক বিবৃতিতে বলেন, জাহালমের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দুদক সংশ্নিষ্টদের বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নিয়েছিল কিনা তা আমরা জানতে পারিনি। দুদকের মতো প্রতিষ্ঠানের পক্ষে এ জাতীয় 'সরল বিশ্বাসের' ভুল বারবার হলে সাধারণ মানুষের আস্থা ও বিশ্বাসের জায়গা বিনষ্ট হয়ে যায়, প্রতিষ্ঠান হিসেবে দুদকের দক্ষতা ও গ্রহণযোগ্যতা প্রশ্নের মুখে পড়ে, যা কাম্য নয়।

বিষয় : দুদক টিআইবি

মন্তব্য করুন