উচ্চশিক্ষা ও উচ্চ আদালতে বাংলা ভাষার ব্যবহার নিশ্চিত করার পাশাপাশি এটিকে জাতিসংঘের দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করার দাবি জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। 

তিনি বলেছেন, আজ জনসংখ্যার দিক থেকে বাংলা ভাষা বিশ্বের ষষ্ঠ ভাষা। অথচ জাতিসংঘ এখনও এটিকে দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে স্বীকৃতি দেয়নি। একুশের মঞ্চ থেকে সেই স্বীকৃতি দেওয়ার দাবি জানাচ্ছি।

মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে রোববার প্রথম প্রহরে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধার্ঘ্য অর্পণ শেষে দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। 

তিনি বলেন, স্বাধীনতার এত বছর পরও বিজয় সুসংহত হয়নি। কারণ আমাদের প্রধান শত্রু সাম্প্রদায়িকতার ডালপালা দেশে এখনও রয়ে গেছে। তাই এবার একুশের প্রত্যয় হোক, আমরা সাম্প্রদায়িকতার বিষবৃক্ষকে উপড়ে ফেলতে চাই।

জনগণকে একুশের চেতনায় ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের উদার, গণতান্ত্রিক ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ বিনির্মাণে সাম্প্রদায়িক অপশক্তির শিকড় উৎপাটনের প্রত্যয় নিয়ে কাজ করতে হবে।

এর আগে ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের নেতারা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। এ সময় আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, লে. কর্নেল (অব.) ফারুক খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ূয়া, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বিষয় : ওবায়দুল কাদের জাতিসংঘ

মন্তব্য করুন