বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় (ববি) প্রতিষ্ঠার এক দশক পূর্ণ হয়েছে সোমবার। করোনাকালীন সংকটে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় সংক্ষিপ্ত কর্মসূচির মাধ্যমে ‘বিশ্ববিদ্যালয় দিবস’ উদযাপন করা হয়েছে। 

সকাল ১০টায় জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের সঙ্গে উপাচার্য প্রফেসর মো. ছাদেকুল আরেফিন জাতীয় পতাকা এবং মানবিক অনুষদের ডিন ড. মো. মুহাসিন উদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা উত্তোলন করে কর্মসূচির সূচনা করেন। 

পরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করা হয়। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভার প্রধান অতিথি বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. কাজী শহীদুল্লাহ ওয়েবিনারে অংশ নেন।

তিনি বলেন, ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় মানসম্মত শিক্ষার কোনো বিকল্প নেই। যুগের চাহিদার সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে হলে মানসম্মত শিক্ষার উপর গুরুত্বারোপ করতে হবে। আমরা ভবিষ্যতে কোথায় থাকব সে বিষয়ে পরিকল্পনা এখনই করতে হবে, কেননা নিত্য নতুন চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে আমাদের এগিয়ে যেতে হবে। 

তিনি আরও বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে মানসম্মত শিক্ষার পাশাপাশি মানসম্মত গবেষণাও নিশ্চিত করতে হবে। আজকের শিক্ষার্থীরাই আগামীর কর্ণধার। তাদের যোগ্য হিসেবে গড়ে তোলার দায়িত্ব আমাদের।  

উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. ছাদেকুল আরেফিনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন-ববি শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. আরিফ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ড. মো. খোরশেদ আলম, অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি বাহাউদ্দীন গোলাপ, গ্রেড ১১-১৬ কল্যাণ পরিষদের সভাপতি ফয়সাল কিবরিয়া ও ১৭-২০ কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান।