করোনা পরিস্থিতিতে সাময়িকভাবে বন্ধ হওয়া শপিংমল ও দোকানপাট খুলে দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে রাজধানীসহ সারাদেশে শপিংমল ও দোকানপাট খুলে দেওয়া হয়। যা চলবে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

আগামী ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে শপিংমল ও দোকানপাট খোলা রাখা যাবে বলে বৃহস্পতিবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়েছে।  

উপসচিব মো. রেজাউল ইসলামের স্বাক্ষরিত ওই প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ৯ থেকে আগামী ১৩ এপ্রিল সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত কঠোর স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালন সাপেক্ষে দোকানপাট ও শপিংমল খোলা রাখা যাবে। তবে স্বাস্থ্যবিধি না মানলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এতে বলা হয়, করোনার ভ্যাকসিন প্রয়োগ কার্যক্রম যথারীতি চলমান থাকবে।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধির প্রেক্ষপটে বেশ কয়েটি নির্দেশনা দিয়ে গত ৩ মার্চ ‘লকডাউনের’ ঘোষণা দেয় সরকার। ওই ঘোষণা অনুযায়ী ৫ এপ্রিল ভোর ৬টা থেকে ১১ এপ্রিল রাত ১২টা পর্যন্ত লকডাউন কার্যকর থাকবে।

করোনা পরিস্থিতি পর্যালোচনায় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় ২৯ মার্চ যে ১৮ দফা নির্দেশনা দিয়েছিল, তাতে দোকানপাট-শপিংমল ও গণপরিবহন বন্ধের নির্দেশনাও ছিল।

এরই মধ্যে লকডাউনের তৃতীয় দিন থেকে মহানগরীতে গণপরিবহন চলাচল শুরু হয়েছে। দোকান খোলা রাখার দাবিতে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ চলছিল কয়েকদিন ধরেই। পরে বৃহস্পতিবার শপিংমল ও দোকান খোলার সিদ্ধান্ত হয়।




মন্তব্য করুন