রাজধানীর গুলশানে ইউনাইটেড হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন ইউনিটে অগ্নিকাণ্ডে ৫ জনের মৃত্যুর ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত চার পরিবারকে আপাতত ২৫ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশ দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট। প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগের ছয় বিচারপতির ভার্চুয়াল বেঞ্চ বৃহস্পতিবার এই আদেশ দেন।

ক্ষতিপূরণের বিষয়ে হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ওই হাসপাতালের লিভ টু আপিল (আপিল করার অনুমতি চেয়ে আবেদন) নিষ্পত্তি করে এই আদেশ দেওয়া হয়েছে। এক মাসের মধ্যে পরিবারগুলোকে এ টাকা দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট আইনজীবীরা। 

আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোস্তাফিজুর রহমান খান ও তানজীব-উল আলম। অন্যদিকে রিট আবেদনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী অনীক আর হক, হাসান এম এস আজিম, মুনতাসির উদ্দিন আহমেদ, নিয়াজ মোহাম্মদ মাহবুব।

গত ১১ জানুয়ারি রাজধানীর গুলশানে ইউনাইটেড হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ডে ৫ জনের মৃত্যুর ঘটনায় নিহতদের চার পরিবারকে ৩০ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোর প্রত্যেককে ১৫ কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না- তা জানতে চেয়ে রুল জারি করা হয়। পরে ওই আদেশ স্থগিত চেয়ে আপিল বিভাগের চেম্বার আদালতে আবেদন করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। 

এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার আবেদনটি নিষ্পত্তি করে ২৫ লাখ টাকা করে চার পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দিতে আদেশ দেন আপিল বিভাগ।

গত বছরের ২৭ মে রাতে রাজধানীর গুলশানের ইউনাইটেড হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন ইউনিটে এসি বিস্ফোরণের আগুনের সূত্রপাত ঘটে। পরে ফায়ার সার্ভিস আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘটনাস্থল থেকে পাঁচটি মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃতদের মধ্যে চারজন পুরুষ এবং একজন নারী। পরে একই বছরের ৩০ মে এ ঘটনায় প্রয়োজনীয় নির্দেশনা চেয়ে রিটটি দায়ের করেন আইনজীবী নিয়াজ মাহমুদ।