ফেসবুকে সরকারবিরোধী পোস্ট ও করোনাভাইরাস নিয়ে অপপ্রচারের অভিযোগে কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, সামিউল ইসলাম খান ওরফে সায়ের জুলকারনাইন ওরফে সামিসহ সাতজনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করেছে পুলিশ।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের (সিটিটিসি) উপ-পরিদর্শক (এসআই) আফছর আহমেদ গত ১০ মে এ চার্জশিট আদালতে দাখিল করেন। 

রোববার রমনা থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক নিজাম উদ্দিন এ তথ্য জানান।

চার্জশিটভুক্ত অপর আসামিরা হলেন- 'রাষ্ট্রচিন্তা'র দিদারুল ইসলাম ভূঁইয়া, 'নেত্র নিউজ' সম্পাদক তাসনীম খলিল, ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের সাবেক পরিচালক মিনহাজ মান্নান ইমন, ব্লগার আশিক মোহাম্মাদ ইমরান ও মো. ওয়াহিদুন্নবী।

অন্যদিকে কারাগারে থাকার সময় লেখক মুশতাক আহমেদ মারা যাওয়ায় এবং অপর দু'জনের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট তথ্য-প্রমাণ না পাওয়ায় তাদের অব্যাহতির আবেদন করেছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা।

২০২০ সালের ৫ মে র‌্যাব-৩ রমনা থানায় কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, মুশতাক আহমেদ, দিদারুল ইসলাম ভূঁঁইয়া, মিনহাজ মান্নানসহ ১১ জনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়।

মামলার পর গ্রেপ্তার মিনহাজ মান্নান ২০২০ সালের ৮ সেপ্টেম্বর ও দিদারুল আলম ভূঁইয়া ১৪ সেপ্টেম্বর জামিনে মুক্তি পান। চলতি বছর ২৫ ফেব্রুয়ারি লেখক মুশতাক কাশিমপুর কারাগারে মারা যান। ৩ মার্চ কার্টুনিস্ট কিশোর জামিন পান।