চারুকলার শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সমন্বয়ে তৈরি শহীদ মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রবের বিশাল পোর্ট্রেটের (১৬ বাই ১২ ফুট) ওপর স্বাক্ষর দিয়ে সিআরবিতে হাসপাতাল নির্মাণের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানালেন চট্টগ্রামের মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ রবের পরিবার ও চারুশিল্পীরা। 

বৃহস্পতিবার চারুকলার শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সহযোগিতায় সিআরবি সাতরাস্তার মোড়ে ব্যতিক্রমী এ প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজন করে সিআরবি রক্ষা মঞ্চ।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলার শিক্ষক জাহেদ আলী যুবরাজ, জিহান করিম, সোহরাব হোসেন সৌরভের নেতৃত্বে চারুকলার শিক্ষার্থীরা এ পোর্ট্রেট নির্মাণ করেন। কর্মসূচির উদ্বোধন করেন শহীদ জায়া মুশতারি শফি এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সিআরবি রক্ষা মঞ্চের সমন্বয়ক ডা. মাহফুজুর রহমান। অসুস্থতার কারণে উপস্থিত থাকতে না পারায় ভিডিওবার্তায় উদ্বোধন ঘোষণা করে মুশতারি শফি বলেন, 'এখানে শহীদ আব্দুর রবের কবরসহ মুক্তিযুদ্ধের অনেক স্মৃতিচিহ্ন আছে। আমার স্বামী শহীদ ডা. মোহাম্মদ শফি, ছোটভাই এহসানুল হক আনসারী, ওদের ধরে নিয়ে গেছে, শুনেছি তাদের সিআরবিতে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আরও দশজন মুক্তিযোদ্ধার স্মৃতি এখানে রয়েছে। মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিসংবলিত সিআরবি এলাকাটি হাসপাতালের নামে কোনো মতেই ধ্বংস হতে দেওয়া যায় না। সিআরবি ধ্বংস করে হাসপাতাল করার যে তৎপরতা চলছে, তাতে আমি ভীষণ ক্ষুব্ধ, চট্টগ্রামবাসীকে রুখে দাঁড়ানোর আহবান জানাচ্ছি।'

সভাপতির বক্তব্যে সিআরবি রক্ষা মঞ্চের সমন্বয়ক ডা. মাহফুজুর রহমান বলেন, 'শহীদের কবরের ওপর হাসপাতাল নির্মাণ মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি চূড়ান্ত অবমাননার সামিল। আমরা এ অন্যায় হতে দিতে পারি না।'

শিল্পী ইন্দ্রানী ভট্টাচার্য্য সোমার সঞ্চালনায় কর্মসূচিতে আরও বক্তব্য দেন ১১ নম্বর সেক্টরের মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শাহ আলম, চারুকলার শিক্ষক জাহেদ আলী যুবরাজ, জিহান করিম, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গড়ে ওঠা গ্রুপ সিআরবি রক্ষা আন্দোলনের সংগঠক রিতু পারভি, মুক্তিযোদ্ধা রাজা মিঞা, রেল শ্রমিক নেতা রিজওয়ানুর রহমান, অধ্যাপক আমির উদ্দিন, সোহরাব হোসেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ৭১ ব্যাচের পক্ষে আফম মোদাচ্ছের আলী, মশিউর রহমান খান, সিদ্দিকুল ইসলাম, হাসান মারুফ রুমি, আমির আব্বাস তাপু, মহিনউদ্দিন, শফি উদ্দিন কবির আবিদ, সাবেক কাউন্সিলর জান্নাতুল ফেরদৌস পপি, প্রকৌশলী সিঞ্চন ভৌমিক, শহীদ আব্দুর রব কলোনিবাসী শান্তনু দাশ, নোমান উল্লাহ বাহার, রায়হান উদ্দিন, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি ডা. আর কে রুবেল, মিনহাজুর রহমান শিহাব, বিজয় '৭১-এর সভাপতি ডা. মো. আয়াজ, রিপন সিং প্রমুখ।