অর্থনীতি সচল রেখেই পরিবেশ রক্ষা করতে হবে। উন্নয়নের পাশাপাশি নদী বাঁচিয়ে রাখার পরিকল্পনা করতে হবে। ঢাকার প্রাণ বুড়িগঙ্গাসহ দেশের অন্যান্য নদীতে দখল-দূষণ বন্ধে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।

শনিবার লালবাগের নবাবগঞ্জ পার্ক মাঠে ওয়াটার কিপার্স বাংলাদেশ কনসোর্টিয়ামের দূষণবিরোধী অ্যাডভোকেসি প্রকল্পের আয়োজনে বুড়িগঙ্গা নদী রক্ষায় ‘বুড়িগঙ্গা নদী দূষণ ও প্রতিকার’ শীর্ষক নাগরিক সভায় বক্তারা এ কথা বলেন।

আওয়ামী লীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক মো. হুমায়ুন কবিরের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন ওয়াটার কিপার্স বাংলাদেশের সমন্বয়ক শরীফ জামিল, স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটির পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. আহমদ কামরুজ্জমান মজুমদার, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র ইলিয়াছুর রহমান বাবুল, ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. মকবুল হোসেন, মো. মোকাদ্দেস হোসেন জাহিদ, জাহাঙ্গীর আলম বাবুল ও মোহাম্মদ হোসেন প্রমুখ।

শরীফ জামিল বলেন, কারখানায় ইটিপি স্থাপন করে বর্জ্য পরিশোধনের মাধ্যমে তা নিষ্কাশন করতে হবে, যাতে উন্নয়নের পাশাপাশি নদীও বাঁচিয়ে রাখা যায়।

অধ্যাপক ড. আহমদ কামরুজ্জমান বলেন, পৃথিবীতে নদীবেষ্টিত শহর কম আছে। প্রকৃতির অপার দান ঢাকার চারপাশের নদীকে রক্ষা করা যাচ্ছে না।