‘শীতার্তদের জন্য ভালোবাসা’- এই স্লোগানে মঙ্গলবার পাবনার ঈশ্বরদীতে প্রায় দুই হাজার অসহায় শীতার্ত দুস্থদের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে কম্বল। 

ঢাকার গুলশান অল কমিউনিটি ক্লাব ও সমকাল সুহৃদ সমাবেশ ঈশ্বরদী শাখা যৌথভাবে এই শীতবস্ত্র বিতরণের আয়োজন করে। 

ঈশ্বরদী প্রেসক্লাব চত্বরে আয়োজিত মানবিক এই আয়োজনে এসে প্রবীণ মানুষ আজিজুল হক আবেগাপ্লুত কণ্ঠে বলেন, ‘বাবারে এই জারের মইদ্যে (শীতের মধ্যে) তোমাদের এই কম্বলখানা পাইয়া শান্তি পাইলাম। এবার আর আমারে জার কাবু করতে পারব না।’

সাঁড়াগোপালপুর গ্রামের হতদরিদ্র একরাম হোসেন বলেন, ‘বয়সের ভারে নানারকম রোগে অসুস্থতায় এবারের শীতে আরও অসুস্থ হয়ে পড়ি। আজ একখান ভালো কম্বল পেয়ে মনে হয় এবার আর শীত আমারে কাবু করতে পারবে না ‘

৮৩ বছর বয়সী হতদরিদ্র নারী রুশনি বেগম কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘বাবারে বুড়ো বয়সে আমার মত অসহায়দের খবর নেওয়ার মত কেউ নাই, এ বছর কত জনরে অনুরোধ করলাম একটা কম্বল দিবার জন্য। কেউ দিল না, তোমাদের কাছে না চাইলেও তোমরা আমারে একখানা কম্বল দিলা, আমি প্রাণভরে দোয়া করি তোমরা যেন আরও মানুষরে এভাবে সহযোগিতা করতে পার। তোমাদের মাধ্যমে আরো মানুষ যেন শীতের কষ্ট থেকে রেহাই পায়।’ 

শীতবস্ত্র বিতরণ উপলক্ষে মঙ্গলবার বিকেলে ঈশ্বরদী প্রেসক্লাব চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন ঈশ্বরদী উপজেলা নির্বাহী অফিসার পিএম ইমরুল কায়েস। 

সমকাল সুহৃদ সমাবেশ ঈশ্বরদী শাখার সভাপতি আর. কে. বাবুর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মাসুদুল ইসলাম মাসুদের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন ঢাকার গুলশান অল কমিউনিটি ক্লাবের অন্যতম পরিচালক শিল্পপতি আশরাফ আলী খান মঞ্জু, ঈশ্বরদী পৌরসভার সচিব জহুরুল ইসলাম, বীর মুক্তিযোদ্ধা ইমদাদুল হক আমান, ঈশ্বরদী প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মোস্তাক আহমেদ কিরণ, অল কমিউনিটি ক্লাবের সদস্য সাহাবুদ্দিন সাবু, সমকালের ঈশ্বরদী প্রতিনিধি সেলিম সরদার, ঈশ্বরদীর পুলিশ পরিদর্শক শহিদুল ইসলাম শহিদ। 

এসময় সাপ্তাহিক জনদৃষ্টির সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, প্রথম সকালের সম্পাদক মহিদুল ইসলাম, সমকাল সুহৃদ সমাবেশ ঈশ্বরদী শাখার সিনিয়র সহসভাপতি খন্দকার তৌফিক আলম সোহেল, স্বর্ণকলি বিদ্যাসদনের পরিচালক মনিরুল ইসলাম বাবু, মানাবের সভাপতি মাসুম পারভেজসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার নেতৃত্ব স্থানীয়রা উপস্থিত ছিলেন।