মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশের সাবেক হাইকমিশনার এম খায়রুজ্জামানকে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির অভিবাসন পুলিশ।

মালয়েশিয়ার ইংরেজি দৈনিক দ্য স্টার এক প্রতিবেদনে বলেছে, দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হামজাহ জাইনুদিন বাংলাদেশের সাবেক হাইকমিশনারকে গ্রেপ্তারের বিষয়টি সম্পর্কে অবগত আছেন। বৃহস্পতিবার তিনি দ্য স্টারকে বলেন, আইন মেনেই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ রয়েছে এবং তাকে গ্রেপ্তারের ব্যাপারে তার নিজের দেশ থেকে অনুরোধ ছিল। 

এদিকে মালয়েশিয়া প্রবাসী এক বাংলাদেশিও সমকালক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, খায়রুজ্জামানকে বুধবার সকালে কুয়ালালামপুরের আমপাং এলাকায় তার বাসা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। 

ওই প্রবাসী বলেন, ‘মনে করা হচ্ছে তাকে দ্রুত মালয়েশিয়া থেকে ফেরত পাঠানো হবে।’

এম খায়রুজ্জামান ১৯৭৫ সালের ৩ নভেম্বর কারাগারে চার জাতীয় নেতা হত্যায় অভিযুক্ত ছিলেন। মালয়েশিয়ায় তিনি এক দশকেরও বেশি সময় ধরে শরণার্থী হিসেবে বসবাস করছেন।

এদিকে গ্রেপ্তারের পর খায়রুজ্জামানের আইনজীবী অবিলম্বে তার মুক্তি দাবি করে মালয়েশিয়া কর্তৃপক্ষকে আইনি নোটিশ দিয়েছেন।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশনের দায়িত্বশীল কর্মকর্তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

তবে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্র জানায়, গ্রেপ্তারের ঘটনা সত্য। পরে বিস্তারিত জানানো হবে।