বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বলেছেন, বাজারের আগুন রাজপথে ছড়িয়ে পড়লে সরকার গদি রক্ষা করতে পারবে না। বাজারের আগুন আর মানুষের মনের আগুন এক হয়ে বিস্ফোরিত হলে দমন নিপীড়ন-চালিয়েও সরকার শেষ রক্ষা করতে পারবে না।

মঙ্গলবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে সাইফুল হক এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, দেশের সমস্যা খাদ্য সংকট নয়। সমস্যা মুনাফাখোর বাজার সিন্ডিকেটের চূড়ান্ত স্বেচ্ছাচারিতা। সরকারের সঙ্গে অশুভ যোগসাজশে দেশের মানুষকে এরা পুরোপুরি জিম্মি করে ফেলেছে।

সাইফুল হক বলেন, সরকারের উন্নয়নের রাজনীতি এখন বিসিবির ট্রাকের সামনে গড়াগড়ি খাচ্ছে। কথিত এই উন্নয়ন নতুন করে সাড়ে তিন কোটি মানুষকে দরিদ্র করেছে। দেশে বেকারের মিছিল কেবল দীর্ঘ করছে। স্বল্প আয়ের কোটি কোটি মানুষের খাদ্যগ্রহণ কমিয়ে দিয়েছে। অন্যদিকে গত দু'বছরে ১৭ হাজারের বেশি নতুন কোটিপতির জন্ম হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতেও মন্ত্রীদের বক্তব্য ও আচরণ নিষ্ঠুর ও অমানবিক।

তিনি বলেন, ক্ষমতায় থাকার জন্য মানুষের ভোটের দরকার না হওয়ায় সরকার দেশের মানুষকে যেন আল্লাহর ওয়াস্তে ছেড়ে দিয়েছে। প্রতিটি ভোগ্যপণ্য আর সেবার দাম বাডিয়ে মানুষের জীবন-জীবিকাকে অতিষ্ঠ করে তুলেছে। জীবন-জীবিকা রক্ষা এবং অধিকার ও ইনসাফ প্রতিষ্ঠায় রাজপথে গণসংগ্রাম ও গণপ্রতিরোধ জোরদার করতে হবে।

সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির রাজনৈতিক পরিষদের সদস্য বহ্নিশিখা জামালী, আকবর খান, আনছার আলী দুলাল, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য রাশিদা বেগম, ফিরোজ আহমেদ, সিকদার হারুন রশীদ মাহমুদ, সাইফুল ইসলাম, অরবিন্দু বেপারি বিন্দু, স্নিগ্ধা সুলতানা ইভা, কামরুজ্জামান ফিরোজ প্রমুখ। সমাবেশ শেষে বিক্ষোভ মিছিল নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে।