উর্দুভাষীদের ভোটাধিকার অর্জনের ১৪ বছর পূর্তি উপলক্ষে রাজধানীর পল্লবীতে জাতীয় পতাকা র‌্যালি করেছে উর্দু স্পীকিং পিপলস ইউথ রিহ্যাবিলিটেশন মুভমেন্ট (ইএসপিওয়াইআরএম)।

বুধবার সকালে সংগঠনটির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে র‌্যালি শুরু হয়ে এলাকার প্রধান সড়ক ঘুরে একইস্থানে এসে শেষ হয়। পরে সেখানে অনুষ্ঠিত হয় সংক্ষিপ্ত সমাবেশ।

ইউএসপিওয়াইআরএম সভাপতি সাদাকাত খান ফাক্কুর সভাপতিত্বে সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক শাহিদ আলি বাবলু, সহ-সভাপতি আবদুর রাশিদ খান বিরেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোক্তার হোসেন, দপ্তর সম্পাদক শেখ নাজের উদ্দীন রাশেদ প্রমুখ।

সমাবেশে ইউএসপিওয়াইআরএম সভাপতি বলেন, উর্দুভাষীরা মনেপ্রাণে বাংলাদেশকে ভালোবাসে। ২০০৮ সালের ১৮ মে হাইকোর্টের দেওয়া রায় বাস্তবায়নের ফলে উর্দুভাষীরা নিজ সন্তানদের ভালো স্কুল-কলেজে ভর্তি করাতে পারছেন। চাকরি-ব্যবসা করতে পারছেন। ভোটাধিকার আছে বলেই রাজনৈতিক নেতারা আমাদের খোঁজ-খবর নেন।

স্বাধীনতার ৫১ বছর পর উর্দুভাষী নাগরিকদের পুনর্বাসনে সুস্পষ্ট ঘোষণা দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানান তিনি। একইসঙ্গে পুনর্বাসনের আগে বিহারিদের ক্যাম্প উচ্ছেদ ও বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্নের কার্যক্রম বন্ধ রাখতে প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টি কামনা করেন।

২০০৮ সালের ১৮ মে ইউএসপিওয়াইআরএমের ১১ নেতার দায়ের করা এক রিটের পরিপ্রেক্ষিতে দেশের ১১৬টি ক্যাম্পে বসবাসরত উর্দুভাষীদের নাম জাতীয় ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করাসহ তাদের জাতীয় পরিচয়পত্র দেওয়ার রায় দেন হাইকোর্ট। তখন থেকে প্রতিবছর এই দিনটি ভোটাধিকার দিবস হিসেবে পালন করে আসছেন উর্দুভাষীরা।