যশোরে রোববার থেকে ফের শুরু হচ্ছে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) পণ্য বিক্রি কার্যক্রম। এ দফায় টিসিবির ফ্যামিলি কার্ডের মাধ্যমে জেলার এক লাখ ৩৭ হাজার ৪৩৯ পরিবার পাবে টিসিবি পণ্য। একজন ভোক্তা সর্বোচ্চ দুই লিটার সয়াবিন তেল, দুই কেজি মসুর ডাল ও এক কেজি চিনি কিনতে পারবেন। ইতোমধ্যে প্যাকেট তৈরির কাজ সম্পন্ন হয়েছে। জেলা প্রশাসনের ব্যবস্থাপনায় এবার আট উপজেলায় ১৮ জন ডিলার পণ্য বিক্রি করবেন।

এদিকে, প্রায় তিনমাস পর টিসিবির পণ্য পাওয়ার খবরে ফ্যামিলি কার্ডধারীর অনেকেই সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। ডিলাররা বলছেন, কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে টিসিবির পণ্য বিক্রির এই উদ্যোগ কিছুটা হলেও নিম্ন আয়ের মানুষের উপকারে আসবে।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) রফিকুল হাসান বলেন, জেলার ৯৩ ইউনিয়নের ৮৩৭ ও আটটি পৌরসভার ৭২টি মিলে ৯০৯টি ওয়ার্ডের উল্লেখিত পরিবার ভর্তুকি মূল্যে পাবে টিসিবির পণ্য। ১৮ জন ডিলার এসব পণ্য বিক্রি করবেন। প্রত্যেক পরিবারকে ফ্যামিলি কার্ডের মাধ্যমে কিনতে হবে পণ্য। এই কার্ডের বাইরে কেউ টিসিবির পণ্য নিতে পারবেন না। 

আতিকুর রহমান নামে একজন টিসিবি ডিলার জানিয়েছেন, প্রতিটি প্যাকেটে দু’ কেজি তেল, দু’ কেজি ডাল ও দু’ কেজি চিনি থাকবে। তেল ১১০, ডাল ৬৫ ও চিনি ৫৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি করা হবে।

যশোর জেলা টিসিবি ডিলার অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান জানান, কার্ডধারী টিসিবি পণ্য সরবাহরের জন্য তাদের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন। এদিকে, নিত্যপণ্যের এই দামবৃদ্ধির সময় ভর্তুকি মূল্যে তিনটি পণ্য পেলে অর্থ সাশ্রয় হবে বলে মনে করছেন শ্রমজীবী মানুষ।

শহরের ঘোপ বউ বাজার এলাকার রিকশাচালক নজরুল ইসলাম বলেন, ‘রমজান মাসে কার্ডের মাধ্যমে টিসিবির জিনিস পেয়েছিলাম। এখন তেল, ডাল ও চিনির দাম বেশি। আবারও যদি টিসিবির জিনিস পাই তাহলে অনেক উপকার হবে।’

রোববার যেস্থানে বিক্রি হবে টিসিবি পণ্য:

যশোরের চৌগাছা পৌরসভা চত্বরে, উপজেলায় সরুপদাহ ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, বাঘারপাড়া পৌরসভা চত্বরে, রায়পুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, অভয়নগরের শ্রীধরপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, শুভরাড়া ইউপি চত্বরে, শার্শার বাগআঁচড়া ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, গোগা ইউপি চত্বরে, মণিরামপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, মনোহরপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, হরিদাসকাটি ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, ঝিকরগাছা পৌরসভা চত্বরে, মাগুরা ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, কেশবপুরের গৌরীঘোনা ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, যশোর সদর উপজেলার উপশহর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, বসুন্দিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, রামনগর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে। এসকল স্থানে সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত টিসিবি পণ্য বিক্রয় করা হবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।