প্রায় ১৫০ বছরের মধ্যে জাপানে সর্বোচ্চ তাপপ্রবাহ বয়ে চলেছে।  তীব্র তাপদাহে জনজীবন অস্থির হয়ে পড়েছে। ১৮৭৫ সালে রেকর্ড শুরু হওয়ার পর চলতি বছর জুন মাসে দেশটিতে সবচেয়ে গরম আবহাওয়া রেকর্ড করা হয়েছে।

স্থানীয় মাইনিচি পত্রিকার খবরে বলা হয়েছে, হিট স্ট্রোকের চিকিৎসার জন্য শনি ও রোববার টোকিওতে ২৫০ জনেরও বেশি মানুষকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। মঙ্গলবার স্থানীয় সময় সকাল ৯টা পর্যন্ত আরও ১৩ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

দেশটির আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, আগামী কয়েকদিন তাপমাত্রা বৃদ্ধি অব্যাহত থাকবে।

মঙ্গলবার জাপানের রাজধানী টোকিওতে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৩৪ ডিগ্রি  সেলসিয়াস। এর আগে টানা তিনদিন তাপমাত্রা ছিল ৩৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

জাপানের আবহাওয়া অধিদপ্তরের মতে, সাধারণত বছরের এই সময়ে দেশটির বেশিরভাগ অংশে বর্ষা মৌসুম দেখা যায়। তবে সোমবার কান্তো অঞ্চলে, টোকিও ও পার্শ্ববর্তী কোশিন এলাকায় ঋতু শেষ হওয়ার ঘোষণা দিয়েছে অধিদপ্তর। ১৯৫১ সালে রেকর্ড শুরু হওয়ার পর থেকে এটি ছিল স্বাভাবিকের চেয়ে ২২ দিন আগে মৌসুমের সমাপ্তি।

এদিকে, জাপানের রাজধানীর উত্তর-পশ্চিমে ইসেসাকি শহরে ৪০ ডিগ্রি তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে যা দেশটিতে জুন মাসে রেকর্ড করা সর্বোচ্চ তাপমাত্রা। সূত্র: বিবিসি, রয়টার্স, আল জাজিরা