বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ পুলিশ সদস্যদের উদ্দেশে বলেছেন, ‘অতীতের ভালো কাজের সাফল্যর জন্য গৌরব, অহংকার করা যাবে। তবে ভালো কাজের রেকর্ড আরও ভালো কাজ দিয়ে ভাঙতে হবে। প্রতিনিয়ত অতীতের ভালো কাজকে আরও ভালো কাজ দিয়ে অতিক্রম করার চেষ্টা করতে হবে। তবেই জাতি হিসেবে আমরা এগিয়ে যাব।’

রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের ৩০ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আজ শুক্রবার বিকেলে পুলিশ লাইন্স মাঠে এক আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। 

পুলিশপ্রধান বলেন, ‘সাম্প্রতিক সময়ে বিভিন্ন সামাজিক অবক্ষয় হচ্ছে। এর কারণে আমরা অনেক অপরাধ দেখতে পাচ্ছি। যে শিক্ষককে আমরা এখনো পায়ে হাত দিয়ে সালাম করি, সেই শিক্ষককে একজন ছাত্র পিটিয়ে মারছে। এক শিক্ষক আরেক শিক্ষকের বিরুদ্ধে লেলিয়ে দিচ্ছে। এটাই সামাজিক অবক্ষয়, নৈতিক অবক্ষয়। সমাজ যখন দ্রুত রূপান্তরের দিকে এগিয়ে যায়, তখন সামাজিক অবক্ষয় দেখা দেয়। আমাদের সমাজ দ্রুত রূপান্তর হচ্ছে। পুরোনো মূল্যবোধ ভেঙে নতুন মূল্যবোধের আবির্ভাব হচ্ছে। এ সময়টা চরম অস্থির হয়। সবাই মিলে এই সামাজিক অবক্ষয় থেকে দেশকে, সমাজকে, নাগরিককে রক্ষা করতে হবে। এটা শুধু পুলিশের দায়িত্ব নয়। সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এই অবক্ষয় থেকে জাতিকে রক্ষা করতে হবে।’

মহানগর পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিকের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর গোলাম সাব্বির সাত্তার তাপু, বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমির প্রিন্সিপাল অতিরিক্ত আইজিপি আবু হাসান মুহাম্মদ তারিক, রাজশাহী রেঞ্জ ডিআইজি আব্দুল বাতেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোহাম্মদ আলী  কামাল।

এর আগে সকালে নগরীর ভেড়িপাড়া মোড়ে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর উদ্বোধন করেন পুলিশ প্রধান ড. বেনজীর আহমেদ। পরে সেখান থেকে শোভাযাত্রা বের করে পুলিশ লাইন্সে গিয়ে শেষ হয়। সেখানে বিশেষ রক্তদান কর্মসূচি, অনাবাদি জমিতে সবজি চাষের উদ্বোধন, বৃক্ষরোপণ এবং মৎস্যপোনা অবমুক্তকরণ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন পুলিশপ্রধান বেনজীর আহমেদ।