হবিগঞ্জ সদর উপজেলার হুরগাঁও গ্রামে জমিতে পানি সেচ দেওয়া নিয়ে দু'পক্ষের সংঘর্ষে অন্তত অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়েছে।

তাদের মধ্যে গুরুতর আহত অবস্থায় ৩০ জনকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যদের স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, হুরগাঁও গ্রামের পার্শ্ববর্তী একটি ডোবা থেকে জমিতে পানি সেচ দেওয়া নিয়ে ওই গ্রামের আব্দুল কাইয়ুম ও শাহ আলম মিয়ার লোকজনের মধ্যে বাগ্‌বিতণ্ডা হয়। এর একপর্যায়ে উভয় পক্ষ এ ঘটনার জেরে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে হবিগঞ্জ সদর মডেল থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে।

আহতদের মধ্যে বাছির মিয়া, হুসেন মিয়া, রিপন মিয়া, ইউছুফ আলী, বাহার উদ্দিন, আব্দুর রাজ্জাক, আ. শহিদ, হাসন আলি, জসিম উদ্দিন, শাহজাহান, লাবলু মিয়া, মাজরুল ইসলাম, নাজুম হক, রুমেল, নুর ইসলাম, টেনু মিয়া, মিলন মিয়া, জাহির আলী, বুলবুল আহমেদ, আল আমিন, ফরহাদ, রুমন মিয়া, গিয়াস উদ্দিন, মোজাক্কির, আজমান মিয়া, ছালেক মিয়া, শানু মিয়া, জিলাই মিয়া, তপু মিয়া, আবুল মিয়া ও জাহাঙ্গীর মিয়াকে হাসপাতালে ভর্তি ও চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

এসআই উৎসব কর্মকার জানান, একটি ডোবা থেকে পানি সেচ ও মাছ ধরা নিয়ে এই সংঘর্ষ হয়। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।