তৃতীয় লিঙ্গ নেতৃত্বাধীন যুব সংগঠন 'পথচলা'। ২০১৯ সালে একঝাঁক পরিশ্রমী, উদ্যমী ও বৈচিত্র্যময় তৃতীয় লিঙ্গ জনগোষ্ঠীর মানুষকে নিয়ে যাত্রা শুরু করে পথচলা। করোনা মহামারি ও লকডাউন চলাকালে সংগঠনকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিয়ে টানা ৯ মাস এক হাজার ১১২ জন তৃতীয় লিঙ্গের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন, সেবা দিয়েছেন এই স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা। চট্টগ্রামে প্রাতিষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু করলেও পরবর্তী সময়ে খুলনা, ময়মনসিংহ ও ঢাকায় ২৪টি কমিউনিটিভিত্তিক ও ১৪টি বিশেষ চাহিদা পূরণ প্রকল্প হাতে নেয় সংগঠনটি। এ পর্যন্ত তিন হাজারেরও বেশি লৈঙ্গিক বৈচিত্র্যময় জনগোষ্ঠীর পাশে দাঁড়িয়েছেন সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবকরা। সংগঠনটির উল্লেখযোগ্য প্রকল্পগুলো ছিল- ত্রাণ বিতরণ, আর্থিক সহযোগিতা, কম্বল বিতরণ, ঈদ উপহার বিতরণ, সেলাই মেশিন ও ওয়েট মেশিন বিতরণ, মাস্ক ক্যাম্পিং, কফি হাউস ক্যাম্পিং, তৃতীয় লিঙ্গ সুশিক্ষা ব্যবস্থাপনা সভা, করোনা ভ্যাকসিনেশন ক্যাম্পিং, করোনা সচেতনতাবিষয়ক ক্যাম্পিং, এইচআইভি এইডস সচেতনতা ক্যাম্পিং, কারিগরি প্রশিক্ষণ, জীবন দক্ষতা প্রশিক্ষণ, মানসিক স্বাস্থ্যবিষয়ক আর্ট ও ডান্স থেরাপি, ফ্ল্যাশ মব, ডকুমেন্টারি ও সুদক্ষ কর্মশালা ইত্যাদি। পথচলা সংগঠন স্বেচ্ছাসেবী কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ শেখ হাসিনা ন্যাশনাল ইয়ুথ ভলান্টিয়ার অ্যাওয়ার্ড-২০২০, জাতিসংঘ স্বেচ্ছাসেবক সম্মাননা-২০২১, জাতিসংঘ একাডেমি ইমপেক্ট মিলিনিয়াম ফেলোশিপ-২০২১ ও দ্য ডায়ানা অ্যাওয়ার্ড-২০২২ অর্জন করে। সংগঠনটি গত তিন বছরে ২৫টি স্থানীয়, বিভাগীয় এবং জাতীয় পর্যায়ে বিভিন্ন সংগঠনের সঙ্গে যৌথভাবে কাজ করেছে। পথচলা স্বপ্ন দেখে, তৃতীয় লিঙ্গ জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন, সামাজিক গ্রহণযোগ্যতা ও লিঙ্গ সমতা, যাতে তৃতীয় লিঙ্গের জনগোষ্ঠীর সদস্যরা নিজে আর্থিকভাবে স্বাবলম্বী হয়ে সমাজ ও দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে অবদান রাখতে পারে। া