দেশে এখন পর্যন্ত ৯ হাজার ৭০৮ জন এইচআইভি ভাইরাসে সংক্রমিত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি জানান, শনাক্ত রোগীদের মধ্যে মারা গেছেন ১ হাজার ৮২০ জন। এই ভাইরাসে নতুন করে সংক্রমিতদের মধ্যে সমকামী, যৌনকর্মী, শিরায় মাদক গ্রহণকারী ও বিদেশফেরত শ্রমিকরা বেশি।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে বিশ্ব এইডস দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব তথ্য জানান। অনুষ্ঠানটি আয়োজন করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এবারের বিশ্ব এইডস দিবসের প্রতিপাদ্য- 'সমতা দূর করি, এইডসমুক্ত বিশ্ব গড়ি।'

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বিদেশে যাওয়ার সময় শ্রমিকদের এইচআইভিসহ নানা পরীক্ষা করা হয়। তবে তাঁরা দেশে ফেরার সময় আর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয় না। এইডস প্রতিরোধে বিদেশ থেকে ফেরার সময়ই প্রবাসী শ্রমিকদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করতে হবে। মধ্যপ্রাচ্য ও আফ্রিকার কয়েকটি দেশ থেকে যাঁরা দেশে ফিরেছেন, তাঁদের মধ্যেও এইচআইভি সংক্রমণ বেশি দেখা যাচ্ছে।

তিনি জানান, এক বছরে দেশে এইডসে ২৩২ জন মারা গেছেন। নতুন করে এইচআইভি শনাক্ত হয়েছেন ৯৪৭ জন।

অনুষ্ঠানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধি রাজেন্দ্র গোহরা বলেন, সারা বিশ্বে এইচআইভি সংক্রমণ কমে আসছে। বাংলাদেশের জন্যও ভালো খবর আছে। এ দেশে সংক্রমণ শূন্য দশমিক শূন্য ১ শতাংশের নিচে আছে। তবে সচেতনতা বাড়াতে হবে এবং সতর্কতামূলক কর্মসূচি নিতে হবে।