জামালউদ্দিনকে সরিয়ে নতুন চেয়ারম্যান জনতা ব্যাংকে

প্রকাশ: ২৮ জুলাই ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির সাধারণ সম্পাদক জামালউদ্দিন আহমেদকে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীর জনতা ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যান হিসেবে তিন বছরের জন্য নিয়োগ দেওয়ার ১১ মাসের মাথায় তাকে ওই পদ থেকে  সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। ওই পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস বিভাগের সাবেক অধ্যাপক এস এম মাহফুজুর রহমান। তিনি বিজিএমইএ ইউনিভার্সিটি অব ফ্যাশন অ্যান্ড টেকনোলজির উপাচার্য।

মঙ্গলবার অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে  জামালউদ্দিন আহমেদকে অব্যাহতি এবং এস এম মাহফুজুর রহমানকে নিয়োগের আদেশ জারি করা হয়েছে। এস এম মাহফুজুর রহমান ২০১১ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত সরকারি বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠান ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশের (আইসিবি) চেয়ারম্যান ছিলেন।

২০১৯ সালের ২৮ আগষ্ট তিন বছরের জন্য জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ পান জামালউদ্দিন আহমেদ এফসিএ। তিনি বর্তমানে অর্থনীতি সমিতির সাধারণ সম্পাদক। জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হওয়ার আগে বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালক ছিলেন। সার্বিক বিষয়ে বক্তব্যের জন্য জামালউদ্দিনকে আহমেদের ব্যক্তিগত মোবাইলে কয়েক দফা ফোন করা হলেও তিনি ধরেননি।

জানা গেছে, জনতা ব্যাংকে কিছু দিন আগে একটি বিদ্যুৎ প্রকল্পের ঋণ প্রস্তাবে জামালউদ্দিন আহমেদ নিজেই পরিচালক হিসেবে ছিলেন। এ নিয়ে আপত্তি উঠলে ওই প্রতিষ্ঠানের পরিচালক পদ থেকে পদত্যাগ করেন তিনি। সম্প্রতি আরও একটি প্রতিষ্ঠানের ঋণ প্রস্তাবে বিধিবহির্ভুতভাবে তিনি হস্তক্ষেপ করেন। এসব নিয়ে ব্যাংকের ভেতরে-বাইরে নানা সমালোচনা ছিল।

অনিয়মের মাধ্যমে অ্যাননটেক্স ও ক্রিসেন্ট গ্রুপকে দেওয়া ১০ হাজার কোটি টাকার বেশি ফেরত না আসায় আগে থেকেই সংকটে আছে  জনতা ব্যাংক। নমনীয় নীতিতে বিপুল অঙ্কের খেলাপি ঋণ পুনঃতফসিল, পুনর্গঠনের পরও গত মার্চ শেষে জনতা ব্যাংকের খেলাপি ঋন দাড়িয়েছে ১৪ হাজার ১১৭ কোটি টাকা। মোট ৫১ হাজার ৭৪৮ কোটি টাকা ঋণের যা ২৭ শতাংশ। আর ২ হাজার ৫৬৪ কোটি টাকার মূলধন ঘাটতি নিয়ে চলছে এক সময়ের ভালো ব্যাংকটি।