ঢাকা সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

শিক্ষার্থীদের তৈরি চার্জিং গাড়ি

শিক্ষার্থীদের তৈরি চার্জিং গাড়ি

রাজীব হোসেন

প্রকাশ: ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩ | ০২:৩৮

বিদ্যুৎ দিয়ে চলবে গাড়ি। কিন্তু গাড়িতে থাকা ব্যাটারিতে চার্জ হবে তারবিহীন পদ্ধতিতে। এই গাড়ি ও চার্জিং পদ্ধতি তৈরির তাদের শুরুটা ছিল থিসিস থেকে। এমনটাই বলছিলেন এ দলের সদস্য কবীর হাসান। তিনি শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবি) ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) বিভাগের ২০১৭-১৮ সেশনের শিক্ষার্থী। কবীর বলেন, ‘নাহিদ ইসলাম, আজম জামান এবং আমার যৌথ থিসিস ছিল এটা। থিসিসের আগে আমরা বৈশ্বিক প্রযুক্তির বিষয় মাথায় রেখে সিদ্ধান্ত নিই বৈদ্যুতির গাড়ি এবং এর চার্জিং পদ্ধতি নিয়ে কাজ করব। থিসিসের শেষ দিকে আমাদের সুপারভাইজার ইফতে খায়রুল আমিন স্যার এ প্রজেক্টে অর্থ বরাদ্দের জন্য আবেদন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রিসার্চ সেন্টারে। আমরা এটা নিয়ে 
কাজ করার জন্য অর্থ বরাদ্দ পেয়ে যাই। পাশাপাশি সদস্য বাড়ানোর চেষ্টা করি এবং আমাদের সঙ্গে ২০১৮-১৯ সেশনের রেজওয়ান জাকারিয়া, এম রিফাত হোসেন, আবির মাহমুদ, সাজ্জাদ হোসেন, ইরফান উদ্দিন আহমেদ ও তৌসিফুল আলম যোগ দেন। এ ছাড়া সুপারভাইজার হিসেবে ছিলেন সহযোগী অধ্যাপক ইফতে খায়রুল আমিন এবং সমন্বয়ক হিসেবে ছিলেন সহকারী অধ্যাপক নাফিজ ইমতিয়াজ রহমান।’ তারবিহীন চার্জিং পদ্ধতি ব্যবহার করলে গাড়ি স্টেশনে যাবে এবং সুইচ চালু করার সঙ্গে সঙ্গে স্বয়ংক্রিয়ভাবে চার্জ হতে থাকবে। নাহিদ ইসলাম বলেন, ‘এ জন্য আমাদের দুটি কয়েল ব্যবহার করেছি; একটা থাকবে চার্জিং স্টেশন ট্রান্সমিটারে আর অন্যটি গাড়ির রিসিভারে। এ ছাড়া চার্জিংয়ের বিদ্যুৎ প্রবাহ যেন একদিকে থাকে সেটা নিয়ে কাজ করেছি। আমাদের এই প্রতিতে বিদ্যুতের উচ্চ ভোল্টেজে গাড়ির কোনো ক্ষতি হবে না। যেটা তার দিয়ে চার্জিং পদ্ধতিতে হয়।’
শিক্ষার্থীদের এই গাড়ি এবং চার্জিং পদ্ধতি তৈরি করতে প্রায় এক বছর লেগে যায়। কাজ শেষ করে সম্প্রতি তারা তাদের প্রজেক্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের রিসার্চ সেন্টারে জমা দিয়েছেন। এদিকে থিসিস গবেষণায় তারা ৯২ শতাংশ ফল পেয়েছিলেন কিন্তু ল্যাবে পেয়েছেন ৪০ শতাংশ। এর পেছনের কারণ হিসেবে দলের সদস্য আজম জামান বলেন, ‘আমরা গবেষণায় ১ মেগাহার্জ ক্ষমতার বিদ্যুৎ ব্যবহার দেখিয়েছি কিন্তু বাস্তবে আমরা পেয়েছি ৫০ হার্জ ক্ষমতার বিদ্যুৎ এবং এটাকেই আমরা ল্যাবে কনভার্ট করে ২০ কিলো হার্জে নিয়ে ব্যবহার করেছি। সামনের দিনে আমরা এটা নিয়ে কাজ করব। একই সঙ্গে এটার কার্যক্ষমতা এবং ডাইনামিক চার্জিং সিস্টেম নিয়ে কাজ করতে চাই।’ v

আরও পড়ুন

×