করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে ঢাকা শহরের ১৮টি স্পটে হ্যান্ডওয়াশ বেসিন স্থাপনের উদ্যোগ নিয়েছে  'মিশন সেভ বাংলাদেশ'। 

এ বিষয়ে মিশন সেভ বাংলাদেশের অন্যতম উদ্যোক্তা তাজদিন হাসান বলেন, 'জরুরি প্রয়োজনে এখনও কিছু মানুষকে রাস্তায় বের হতে হচ্ছে। কাঁচাবাজার, সুপারশপ ও হাসপাতালে প্রয়োজনে অনেক মানুষের জনসমাগম হচ্ছে। চিকিৎসক, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা ও গণমাধ্যমকর্মীরা নিয়মিত অফিস করছে।'

তিনি বলেন, 'প্রয়োজনে এখনও যাদের নিয়মিত রাস্তায় বের হতে হয় তাদের সুরক্ষার কথা চিন্তা করে দেশের শীর্ষস্থানীয় ওষুধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান রেনাটা লিমেটেডের সহযোগিতায় প্রাথমিকভাবে ঢাকা শহরের ১৮ টি গুরুত্বপূর্ণ স্পটে পাবলিক হ্যান্ডওয়াশ বেসিন স্থাপন করবে ’মিশন সেভ বাংলাদেশ’। '

তাজদিন হাসান বলেন, 'পাবলিক প্লেসে চলাচলকারী সাধারণ মানুষের সুবিধার্থে এবং স্বাস্থ্যসচেতনার অংশ হিসেবে এই হ্যান্ডওয়াশ বেসিনগুলো স্থাপন করা হবে।'

সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস বিরূপ প্রভাব ফেলেছে মানুষের জীবনযাপনে। অন্য দেশের মতো এ ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে বাংলাদেশেও মানুষের চলাচলে নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে টিকে থাকা কঠিন হয়ে পড়েছে নিম্নআয়ের মানুষের। এ অবস্থায় তাদের পাশে দাঁড়িয়েছে 'মিশন সেভ বাংলাদেশ'। শনিবার থেকে এ উদ্যোগে যুক্ত হয়েছেন ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে তিনি এ ঘোষণা দেন।

সেবা এক্সওয়াইজেড, সমকাল ও ডেইলি স্টারের এ উদ্যোগের পাশে অর্থ ও অন্যান্য সহযোগিতা নিয়ে এগিয়ে এসেছে আইপিডিসি ফাইন্যান্স, পিএফডিএ, স্বপ্ন, এসএসএল কমার্স, মিরপুর ডিওএইচএস সোসাইটি, ডানো, গুলশান সোসাইটি, পাঠাও, ডাবর বাংলাদেশ, তরুণ ডিজিটাল, ইউনিমার্ট, জেসিআই ঢাকা নর্থ, কর্ম, এডিএ, নিজের বলার মতো একটা গল্প, রবি টেন মিনিট স্কুল, সেফ হ্যান্ডস, ডেভোটেক, ডাক্তার ভাই, উইন্ডমিল, অমিকন গ্রুপ, জাস্টস্টোরিজ, মেমোরিলেন, এডুহাইভ, লেকচার পাবলিকেশনস লিমিটেড, ই-কুরিয়ার, মহাখালী ডিওএইচএস সোসাইটি, রোয়ার বাংলা, বনানী সোসাইটি, চ্যারিটি রাইট, ভ্রুম, স্পাইক স্টোরি, পেপারফ্লাই, বঙ্গ, মাস্টহেড পিআর, সিএনআই, অ্যাঞ্জেল শেফ, স্মার্টিফায়ার, জেসিআই ঢাকা সাউথ, শাশা ডেনিমস, অলিম্পিক, চল ঘুরি, আডন কমিউনিকেশন, পপ অব কালার, আর্থমুভিং সলিউশন, মাইন্ডম্যাপার, ট্রাক কোথায়, মেন্টরস, অসীম এন্টারপ্রাইজ, হাই ভোল্টেজ লিমিটেড, সি থ্রি সিক্সটি, গ্রো অ্যান্ড এক্সেল, হরলিক্স, সামিট কমিউনিকেশন লিমিটেড, সেইলর, টেকনো ড্রাগস লিমিটেড, নন্দ-দুলাল মেমোরিয়াল ট্রাস্ট ফাউন্ডেশন, জেসিআই চিটাগং কসমোপলিটান, ওয়ান পার্সেন্ট ফাউন্ডেশন, অ্যারোলিংক, ওয়ান্ডার ওমেন, রেনাটা লিমিটেড, এস ম্যানেজার এবং এস বিজনেস।

যে কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান সামর্থ্য অনুযায়ী 'মিশন সেভ বাংলাদেশ' উদ্যোগে আর্থিক সহায়তা দিয়ে যুক্ত হতে পারেন। বিস্তারিত জানতে অথবা অনুদান দিতে ভিজিট করুন (https://samakal.com/MissionSaveBangladesh) এ ঠিকানায়।

................................

ভেন্টিলেটর তৈরিতে পাশে থাকবে 'মিশন সেভ বাংলাদেশ'

আরও আড়াইশ' পরিবার পেল ১০ দিনের খাবার

ধন্যবাদ সাকিব আল হাসান

আরও ১১০ পরিবার পেল ১০ দিনের খাবার

তারা পেলেন ১০ দিনের খাবার

সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে 'মিশন সেভ বাংলাদেশ'

'মিশন সেভ বাংলাদেশ'