রাজধানীতে নির্মাণাধীন ছয়তলা ভবনের তৃতীয় তলা থেকে ইট পড়ে এক নারী নিহত হয়েছেন। বুধবার দুপুরে সায়েদাবাদ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত নারীর নাম শিউলি আক্তার (৩৬)। তিনি বেসরকারি সংস্থার (এনজিও) মাঠকর্মী ছিলেন।

যাত্রাবাড়ী থানার এসআই বিলাল আল আজাদ সমকালকে জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তবে নির্মাণাধীন ভবনের ওখানে কাউকে পাওয়া যায়নি। তারা নিরাপত্তা ব্যবস্থা হিসেবে টিনের ছাউনিও দিয়ে রেখেছিল। তারপরও কীভাবে দুর্ঘটনাটি ঘটল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এতে কারও গাফিলতি পাওয়া গেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে উল্লেখ করেন তিনি।

শিউলির বোন শাহনাজ বেগম জানান, সায়েদাবাদ এলাকায় এনজিওর কিস্তির টাকা সংগ্রহে গিয়েছিলেন শিউলি। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে একটি বাসা থেকে বের হওয়ার পরপরই পাশের নির্মাণাধীন ভবনের তৃতীয় তলা থেকে একটি ইট তার মাথায় পড়ে। তখনই তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে ডাক্তাররা তাকে মৃত ঘোষণা করে।

তিনি জানান, তিন বোন ও দুই ভাইয়ের মধ্যে তৃতীয় শিউলি। তার স্বামীর নাম দেলোয়ার হোসেন। তিনি একটি চায়ের দোকান চালান। তারা সায়েদাবাদের আর কে চৌধুরী গলির একটি বাসায় থাকেন। তাদের একটি ছেলে রয়েছে। গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জের বিক্রমপুরে।

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া বলেন, দুপুর সোয়া ১টার দিকে শিউলির নিথর দেহ হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। চিকিৎসকরা পরীক্ষা করে জানান, পথেই তার মৃত্যু হয়েছে।




মন্তব্য করুন