পুরান ঢাকার সন্ত্রাসী রফিকুল ইসলাম ওরফে রতনকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। বুধবার রাজধানীর হাজারীবাগ এলাকা থেকে অস্ত্র-গুলিসহ তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। একই সময়ে তার সহযোগী মো. আরমানকেও গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করে ওই দুই সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তারের তথ্য দেন ডিবির কর্মকর্তারা। সেখানে ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার (ডিবি) একেএম হাফিজ আক্তার বলেন, হাজারীবাগের শিকারীটোলা এলাকায় আবুল হাশেম ও মো. মামুনের মধ্যে জায়গা-জমি নিয়ে বিরোধ হয়। এ বিরোধকে কেন্দ্র করে আবুল হাশেম ভাড়াটে সন্ত্রাসী রফিক বাহিনীর ৮ থেকে ১০ জনকে ভাড়া করে। গত ৪ জুন ভাড়াটে সন্ত্রাসীদের নিয়ে বিরোধপূর্ণ জমিতে দেওয়াল নির্মাণ করার চেষ্টা করা হয়। ওই সময় মামুনসহ তার পরিবারের সদস্যরা বাধা দেন। রফিক বাহিনীর প্রধান রফিকুল ইসলাম তার সহযোগী আরমান, রাসেল ও মহসিন ভিকটিম মামুনকে গুলি করে। ওই ঘটনায় হাজারীবাগ থানায় মামলা হয়। এর পরই ঘটনায় জড়িত সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারে ডিবি অভিযান শুরু করে। 

তিনি বলেন, এরই ধারাবাহিকতায় গত বুধবার সন্ধ্যায় সাভার ও হাজারীবাগ এলাকায় একাধিক অভিযান চালিয়ে ডিবির মিরপুর বিভাগের সদস্যরা তাদেরকে গ্রেপ্তার করেন। ওই সময় গ্রেপ্তার দু'জনের কাছ থেকে একটি পিস্তল, একটি রিভলবার, দুই রাউন্ড গুলি ও একটি মোটরসাইকেল জব্দ করা হয়।

বিষয় : অস্ত্রসহ সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার পুরান ঢাকা

মন্তব্য করুন