ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় জমি থেকে সায়মন (৯) নামের এক মাদ্রাসাছাত্রের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার সকালে শহরতলীর সুহিলপুর গ্রামের একটি ধানি জমি থেকে শিশুটির  মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত সায়মন একই গ্রামের নর্দা পাড়ার বাদল মিয়ার ছেলে ।

পুলিশ জানায়, সকালে সায়মন তার বাবার সাথে বাড়ি থেকে প্রায় এক কিলোমিটার দূরে জমিতে ঘাস কাটতে যায়। কিছুক্ষণ পর সে বাবার কাছে বলে বাড়ির পথে রওয়ানা হয়। কিন্তু সকাল সাড়ে আটটায় সায়মনের বাবা বাড়িতে ফিরে ছেলেকে না পেয়ে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে তাকে খোঁজাখুজি শুরু করেন। এক পর্যায়ে তাদের বাড়ি থেকে আধ কিলেমিটার দূরে ধানি জমিতে সায়মনের গলাকাটা মরদেহ দেখতে পান । খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়ে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমরানুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সায়মন স্থানীয় একটি মাদ্রাসার ছাত্র। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। পুলিশ ঘটনার রহস্য উদঘাটনে কাজ শুরু করেছে। নিহতের বাবা-মাকে প্রাথমিকভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে ।